Logo
আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমকে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে শোকজ

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৮ ডিসেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১৭৭জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে রাজশাহী-৬ আসনের আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমকে শোকজ (কারণ দর্শানোর নোটিশ) করা হয়েছে।

প্রতীক বরাদ্দের আগেই জনসভা করা ও স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য প্রার্থীদের সমর্থকদের ‘কুলাঙ্গার’ বলার অভিযোগ আনা হয়েছে তার বিরুদ্ধে।

বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) রাজশাহী সদরের সিনিয়র সহকারী জজ ও রাজশাহী-৬ আসনের নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান মো. সেফাতুল্লাহ স্বাক্ষরিত নোটিশে এ আদেশ দেওয়া হয়।

নোটিশে বলা হয়েছে- আপনি (শাহরিয়ার আলম) গত ২ ডিসেম্বর (শনিবার) রাতে নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করে প্রতীক বরাদ্দের আগেই চারঘাটের ফরহাদ আলাউদ্দীন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে জনসভা করেন। জনসভায় আপনি (শাহরিয়ার আলম) রাজশাহী জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও পাকুড়িয়া ইউপির চেয়ারম্যান এবং রাজশাহী-৬ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী ও সাবেক সংসদ সদস্য আওয়ামী লীগ নেতা রাহেনুল হকের কর্মী ও সমর্থক মো. মেরাজুল ইসলামকে জনসমক্ষে ‘কুলাঙ্গার’ বলে অপবাদসহ বিভিন্ন উস্কানিমূলক বক্তব্য দেন। এছাড়া ১৭ ডিসেম্বরের পর তাকে দেখে নেওয়াসহ প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছেন। আপনার (শাহরিয়ার আলম) উক্ত আচরণের মাধ্যমে আপনি (শাহরিয়ার আলম) জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাজনৈতিক দল ও প্রার্থীর আচরণ বিধিমালা, ২০০৮ এর বিধি ৬(গ) ও বিধি ১১(ক) এবং বিধি ১২ লঙ্ঘন করেছেন যা নির্বাচন-পূর্ব অনিয়ম হিসেবে গণ্য হয়।

এমতাবস্থায়, সংসদ নির্বাচনে রাজনৈতিক দল ও প্রার্থীর আচরণ বিধিমালা, ২০০৮-এর বিধি ৬(গ) ও বিধি ১১(ক) এবং বিধি ১২ লঙ্ঘনের দায়ে আপনার বিরুদ্ধে কেন নির্বাচন কমিশনে ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করা হবে না তৎমর্মে আগামী রোববার (১০ ডিসেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টায় নিম্নস্বাক্ষরকারীর (দ্বাদশ জাতীয় সংসদ চেয়ারম্যান নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটি রাজশাহী-৬ (চারঘাট-বাঘা) মো. সেফাতুল্লাহ) কার্যালয়ে সশরীরে হাজির হয়ে অথবা প্রতিনিধির মাধ্যমে লিখিত ব্যাখ্যা প্রদানের জন্য নির্দেশ প্রদান করা হলো।


আরও খবর



সেনাদের নিতে জাহাজ পাঠাচ্ছে মিয়ানমার

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৯৭জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সেহেলি সাবরিন জানান, মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলমান সংঘাত থেকে প্রাণে বাঁচতে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া দেশটির সেনা, সীমান্তরক্ষী বাহিনীসহ (বিজিপি) বিভিন্ন সংস্থার সদস্যদের ফিরিয়ে নিতে জাহাজ পাঠাচ্ছে জান্তা সরকার। বৃহস্পতিবার (০৮ ফেব্রুয়ারি) নিয়মিত ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, নিরাপত্তার কথা চিন্তা করে মিয়ানমারের সেনাদের গভীর সমুদ্র পথে ফেরত পাঠানো হবে। তবে জাহাজের যে রুট প্ল্যান তা মিয়ানমার সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হবে। এখনও জাহাজ ছেড়ে আসেনি, শিগগিরই এ প্রক্রিয়া শুরু হবে।

এর আগে বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেনের সভাপতিত্বে মিয়ানমারের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে এক আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

এ প্রসঙ্গে সেহেলি সাবরিন বলেন, জাহাজ কোন রুট দিয়ে বাংলাদেশে আসবে সে বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। নৌযানটি আরোহীদের নিয়ে গভীর সমুদ্র দিয়ে ফিরে যাবে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেন, নেপিদোতে আমাদের দূত মিয়ানমারের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন। বিজিপি সদস্যদের সঙ্গে আরও যারা এসেছেন তাদের ফেরত পাঠানোর বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

দেশটির অভ্যন্তরীণ সংঘাতের কারণে নিহত বাংলাদেশিদের মৃত্যুতে মিয়ানমারের কাছে ক্ষতিপূরণ চাওয়া হবে কি-না জানতে চাইলে সরকারের এই কর্মকর্তা বলেন, এ বিষয়ে চিন্তাভাবনা হচ্ছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ী, মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলমান সংঘর্ষের জেরে এখন পর্যন্ত ৩৩০ জন বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। তবে প্রশাসনিক সুবিধার কথা বিবেচনা করে বান্দরবানের তুমব্রু থেকে ১০০ জনকে কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার হ্নীলাতে স্থানান্তর করা হয়েছে।


আরও খবর



গণমাধ্যমের স্বাধীনতার জায়গায় কোনো সমস্যা সরকার চায় না

প্রকাশিত:বুধবার ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১২১জন দেখেছেন

Image
মারুফ সরকার স্টাফ রিপোর্টার:গণমাধ্যমের স্বাধীনতার জায়গায় কোথাও কোনভাবে সমস্যা তৈরি হোক এটা সরকার চায় না এবং হতে দেবে না বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী মোহাম্মদ আলী আরাফাত।

আজ বুধবার বিকালে সচিবালয়ে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সভা কক্ষে এডিটরস গিল্ড বাংলাদেশ-এর কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যদের সাথে মতবিনিময়কালে প্রতিমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

এ সময় প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেমে গণমাধ্যম পূর্ণাঙ্গ ম্বাধীনতা ভোগ করছে এবং করবে। গণমাধ্যমের স্বাধীনতার জায়গায় কোথাও কোনভাবে সমস্যা তৈরি হোক এটা সরকার চায়না এবং হতে দেবে না। কিন্তু একইসাথে গণতন্ত্র এবং উন্নয়নের অগ্রগতি-অগ্রযাত্রা অব্যাহত থাকবে। একইসাথে সরকার এটাও বিশ্বাস করে, যারা যুদ্ধাপরাধী, মুক্তযুদ্ধবিরোধী অপশক্তি, জঙ্গি, উগ্রবাদী তাদের একটা জায়গায় রেখে গণতন্ত্র কখনোই সফল হয় না। এজন্য সরকারের অবস্থান উগ্রবাদের বিপক্ষে, জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসের বিপক্ষে, মৌলবাদের বিপক্ষে, মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাইরে যারা তাদের বিপক্ষে, গণতন্ত্রের পক্ষে, নির্বাচনের পক্ষে। সে জায়গায় গণমাধ্যম, রাজনীতিবিদ, সরকার-সবার মধ্যে ঐকমত্য আছে।

সরকার পরিচালনায় ভুল-ভ্রান্তি, বিচ্যুতি থাকলে সমালোচনা করার জন্য গণমাধ্যম সম্পাদকদের এ সময় আহ্বান জানান প্রতিমন্ত্রী। সরকার এটিকে স্বাগত জানাবে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী। পাশাপাশি সরকারের ভালো কাজগুলোর স্বীকৃতি দিয়ে সেটি গণমাধ্যমে তুলে ধরার আহ্বানও জানান তিনি ।

এ সময় প্রতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ, বাংলাদেশের পতাকা, আমাদের জাতীয় সঙ্গীত, জাতির জনক, সংবিধান, মুক্তিযুদ্ধের চেতনার প্রশ্নে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। একইসাথে ষড়যন্ত্র যেগুলো অতীতে বাংলাদেশে হয়েছে- জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্র, দেশের ভেতরেও অনেকে এসব ষড়যন্ত্রে অংশগ্রহণ করে এবং তার ফলাফল হিসেবে ’৭৫ এর ১৫ আগস্ট আমরা দেখেছি, অতীতে অনেক অভিজ্ঞতা আমাদের আছে। এসব ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সতর্ক থাকতে হবে।

তিনি আরো বলেন, অনেক ক্ষেত্রে আমাদের বিদেশি বন্ধুরা বলতে চান সংসদ একতরফা হয়ে গেছে। তারা বলেন, এখানে বিরোধী দল নাই। আমরা অবশ্যই শক্তিশালী বিরোধী দল চাই, সমালোচনা চাই, সংসদের মধ্যে আলোচনা চাই। কিন্তু আমরা জঙ্গিবাদ, উগ্রবাদ ও মুক্তযুদ্ধবিরোধী কোন অপশক্তি চাই ন। এ বিষয়ে আমাদের ঐক্য থাকতে হবে।

যারা নির্বাচন বর্জন করতে বলে, হুমকি দেয় তারা কি গণতন্ত্রের পক্ষে হতে পারে?-মতবিনিময়কালে এমন প্রশ্ন তোলেন প্রতিমন্ত্রী। 

এবারের নির্বাচন, যারা নির্বাচন বর্জনকারী তাদের না বলার নির্বাচন। তাদের এ দেশের জনগণ না বলেছে- যোগ করেন প্রতিমন্ত্রী।

এডিটরস গিল্ড গণতন্ত্রের পক্ষে, নির্বাচনের পক্ষে, বাংলাদেশের এগিয়ে যাওয়ার পক্ষে সরকারে সাথে একসাথে থাকবে-এ সময় আশাবাদ ব্যক্ত করেন তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী। 

এডিটরস গিল্ড বাংলাদেশ-এর কার্যনির্বাহী কমিটির সভাপতি ও একাত্তর টেলিভিশনের প্রধান সম্পাদক মোজাম্মেল বাবু, সাধারণ সম্পাদক ও দি বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডের সম্পাদক ইনাম আহমেদ, আজকের পত্রিকার সম্পাদক গোলাম রহমান, বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, দৈনিক সংবাদ সম্পাদক আলতামাশ কবির, জাতীয় প্রেসক্লাবের সভাপতি ফরিদা ইয়াসমিন, ডিবিসি টেলিভিশনের প্রধান সম্পাদক মঞ্জুরুল ইসলাম, আমাদের অর্থনীতি’র প্রধান সম্পাদক নাঈমুল ইসলাম খান, দৈনিক যুগান্তর সম্পাদক সাইফুল আলম, বাংলাদেশ জার্নাল সম্পাদক শাহজাহান সরদার, ভোরের কাগজ সম্পাদক শ্যামল দত্ত,  গ্লোবাল টেলিভশনের সিইও সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা, বাংলা ট্রিবিউন সম্পাদক জুলফিকার রাসেল, এনার্জি অ্যান্ড পাওয়ার সম্পাদক মোল্লাহ এম আমজাদ হোসেন, এক টাকার খবর সম্পাদক মুন্নী সাহা, আমাদের নতুন সময় সম্পাদক নাসিমা খান মন্টি এবং এটিএন বাংলার প্রধান নির্বাহী সম্পাদক জ ই মামুন প্রমুখ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

আরও খবর



গাংনীতে ফলের ক্যারেটে ফেনসিডিল, আটক-১

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৭২জন দেখেছেন

Image

মজনুর রহমান আকাশ,মেহেরপুর প্রতিনিধিঃফলের ক্যারেটে ফেনসিডিল বহন করতে গিয়ে জনি (২১) নামের এক কিশোরকে আটক করেছে পুলিশ। আজ সোমবার সকালে মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার বামন্দী বাজারের ওয়ালটন শোরুমের সামনে থেকে তাকে আটক করা হয়। উদ্ধার করা হয় ১৩৫ বোতল ফেনসিডিল। আটক জনি কুষ্টিয়া জেলার দৌলতপুর উপজেলার বাহিরমাদি গ্রামের আব্দুল গনি মন্ডলের ছেলে। তাকে মেহেরপুর আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

গাংনী থানার ওসি তাজুল ইসলাম জানান, ফলের ক্যারাটে মাদক পরিবহন করছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বামুন্দি ক্যাম্প পুলিশের একটি টিম অভিযান চালায়। ধৃত জনির কাছে থাকা ফলের ক্যারেট তল্লাশী চালিয়ে ১৩৫ বোতল ফেনসিডিল পাওয়া গেলে তাকে আটক করা হয়। তার বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলাসহ ওই মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে মেহেরপুর আদালতে প্রেরণ করা হয়।


আরও খবর

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ২৬

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্ট

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫০জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হওয়ায় শেখ হাসিনাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্ট বোলা আহমেদ টিনুবু।

শেখ হাসিনাকে পাঠানো এক বার্তায় নাইজেরিয়ার প্রেসিডেন্ট বলেন, আপনাকে অভিনন্দন জানাতে পেরে আমি আনন্দিত, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে পুনর্র্নিবাচিত হওয়ায় আমার উষ্ণ অভিনন্দন গ্রহণ করুন।

নাইজরিয়ার প্রেসিডেন্ট বলেন, নির্বাচনে আপনার বিজয় আপনার প্রশাসনের প্রতি বাংলাদেশের জনগণের আস্থারই প্রতিফলন।

শেখ হাসিনা পুনর্র্নিবাচিত হওয়ায় নাইজেরিয়া ও বাংলাদেশের মধ্যে সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক আরও জোরদার হবে বলে বিশ্বাস করেন তিনি।

বোলা আহমেদ টিনুবু বলেন, দুই দেশ এবং জনগণের পারস্পরিক সুবিধার জন্য সহযোগিতার নতুন ক্ষেত্র খুঁজে বের করতে বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে সহযোগিতা করতে নাইজেরিয়ার আগ্রহী।


আরও খবর



সেন্টমার্টিনে বিকল্প পথে ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা নেই

প্রকাশিত:শনিবার ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:অনির্দিষ্টকালের জন্য টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে পর্যটকবাহী সকল জাহাজ চলাচলে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে কক্সবাজার জেলা প্রশাসন।মিয়ানমারে অভ্যন্তরে চলমান সংঘাতের জেরে নিরাপত্তাজনিত কারণে শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) সকালে এই ঘোষণা দেন।

তবে কক্সবাজার-সেন্টমার্টিন ও চট্টগ্রাম-সেন্টমার্টিন রুটে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল করছে। তাই পর্যটকরা চাইলে বিকল্প পথ ব্যবহার করে সেন্টমার্টিন ভ্রমণ করতে পারবেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে কক্সবাজারের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. ইয়ামিন হোসেন জানান, শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে পর্যটকবাহী সকল জাহাজ চলাচল বন্ধ রযেছে। তবে এটি সাময়িক সময়ের জন্য। যেহেতু মিয়ানমার সীমান্তে সংঘাতময় পরিস্থিতি চলমান রয়েছে।

তিনি আরও জানান, কক্সবাজার-সেন্টমার্টিন ও চট্টগ্রাম-সেন্টমার্টিন নৌরুটে পর্যটকবাহী জাহাজ চলাচল অব্যাহত রযেছে। কেউ সেন্টমার্টিন ভ্রমণ করতে চাইলে কক্সবাজার ও চট্টগ্রাম থেকে জাহাজে ভ্রমণ করতে পারবেন।

পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে জাহাজ চলাচল বন্ধ থাকবে বলেও জানান কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের এই কর্মকর্তা।


আরও খবর