Logo
আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ

প্রকাশিত:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১১১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের কনফারেন্স রুমে সংবাদ সম্মেলনে এমবিবিএস (মেডিকেল) ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী অধ্যাপক ডা. সামন্ত লাল সেন আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফল ঘোষণা করেন।

এর আগে শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। ঘণ্টাব্যাপী দেশের ১৯টি পরীক্ষা কেন্দ্রের ৪৪টি ভেন্যুতে একযোগে চলে পরীক্ষা।

এবার সরকারি-বেসরকারি মিলিয়ে ১০৪টি মেডিকেল কলেজের ১১ হাজার ৬৭৫টি আসনের জন্য এবার ১ লাখ ৪ হাজার ৩৭৪ জন ভর্তিচ্ছু আবেদন করেন। ৩৭টি সরকারি মেডিকেল কলেজে মোট আসন ৫ হাজার ৩৮০টি এবং বেসরকারি পর্যায়ে অনুমোদিত ৬৭টি মেডিকেল কলেজে মোট আসন ৬ হাজার ২৯৫টি।

এমবিবিএস ও বিডিএস ভর্তি পরীক্ষায় ন্যূনতম নম্বর (পাস নম্বর) গতবারের মতো এবারও ৪০ ছিল। প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য শূন্য দশমিক ২৫ নম্বর কাটা হয়। লিখিত পরীক্ষায় ৪০ নম্বরের কম পাওয়া শিক্ষার্থীদের অকৃতকার্য বিবেচনা করা হয়েছে।

মেডিকেল ও ডেন্টাল কলেজে ভর্তি থাকা দ্বিতীয়বার ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের ১০ নম্বর কাটা হয়। এ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় জেলা কোটা বাতিল। মুক্তিযোদ্ধা কোটায় নির্ধারিত সময়ে আসন পূরণ করা না গেলে সেসব আসনে সাধারণ শিক্ষার্থীরা ভর্তির সুযোগ পাবেন। যেভাবে ফল জানা যাবে:- স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী, এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষার ফল ঘোষণার পর ওয়েবসাইট থেকে ফলাফল জানা যাবে। এ ছাড়া স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের ওয়েবসাইটেও ফলবিষয়ক তথ্য প্রকাশ করা হবে।

পাশাপাশি যেসব শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছেন, তাদের আবেদনের সময় দেওয়া মোবাইল ফোন নম্বরে খুদেবার্তার (এসএমএস) মাধ্যমে ফল জানিয়ে দেবে অধিদপ্তর।


আরও খবর



খালেদা জিয়ার ১১ মামলায় হাজিরা ২২ এপ্রিল

প্রকাশিত:বুধবার ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮৯জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নাশকতা ও রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগের বিরুদ্ধে দায়ের করা ১১ মামলায় হাজিরার নতুন দিন নির্ধারণ করেছেন আদালত।

বুধবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) খালেদা জিয়ার হাজিরার দিন ধার্য থাকলেও অসুস্থতাজনিত কারণে তিনি আদালতে উপস্থিত হতে পারেননি। পরে সময় চাওয়ায় ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের ভারপ্রাপ্ত বিচারক ফয়সাল আতিক বিন কাদের আগামী ২২ এপ্রিল দিন ধার্য করেন। ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর তাপস কুমার পাল বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। খালেদা জিয়ার ১১ মামলার মধ্যে রাজধানীর দারুসসালাম থানায় হয়েছে নাশকতার ৮টি মামলা, যাত্রাবাড়ী থানায় দুটি ও রাষ্ট্রদ্রোহের একটি মামলা। মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের সংখ্যা নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করার অভিযোগে ২০১৬ সালের ২৫ জানুয়ারি আদালতে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলাটি হয়। এদিকে যাত্রাবাড়ী থানার মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ২০১৫ সালের ২৩ জানুয়ারি রাতে যাত্রাবাড়ীর কাঠেরপুল এলাকায় গ্লোরি পরিবহনের যাত্রীবাহী একটি বাসে পেট্রোলবোমা হামলা হয়। এতে বাসের ২৯ যাত্রী দগ্ধ হন। পরে তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে ১ ফেব্রুয়ারি চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান নূর আলম (৬০) নামে এক যাত্রী। ওই ঘটনায় ২০১৫ সালের ২৪ জানুয়ারি খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে যাত্রাবাড়ী থানায় মামলা করেন থানার উপপরিদর্শক (এসআই) কে এম নুরুজ্জামান। অন্যদিকে ২০১৫ সালে দারুসসালাম থানা এলাকায় নাশকতার অভিযোগে ৮টি মামলা করা হয়। এ আট মামলায় বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে আসামি করা হয়।


আরও খবর



সরাইলে উৎসবমুখর পরিবেশে জাতীয় দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

প্রকাশিত:সোমবার ১৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১৫৫জন দেখেছেন

Image

মো. রুবেল মিয়াঃ-

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে কেক কাটার মধ্য দিয়ে জাতীয় দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার ২৫ বছরে পদার্পণ ও প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত হয়েছে।এ উপলক্ষ্যে শনিবার  দুপুরে সরাইল প্রেসক্লাব এর  কার্যালয়ে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়।সরাইল প্রেসক্লাবের সদ্য নির্বাচিত সভাপতি মোহাম্মদ আলীর  সভাপতিত্বে ও  সাহিত্য ও পাঠাগার সম্পাদক জহিরুল ইসলাম রিপনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও বিশিষ্ট কলামিস্ট এড. জিয়াউল হক মৃধা।


এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জাতীয়  দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার সরাইল প্রতিনিধি মো. মুরাদ খান।উক্ত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন,  উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মেজবা উল আলম ভূঁইয়া, সরাইল থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ এমরানুল ইসলাম, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রোকেয়া বেগম,  উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার ইসমত আলী।এছাড়াও সভায় সরাইল প্রেসক্লাবের সদ্য নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক তৌফিক আহমেদ (তফছির)।


সরাইল টেলিভিশন জার্নালিস্ট এসোসিয়েশনের সভাপতি মো. শফিকুর রহমান, নোয়াগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মনসুর আহমেদ, আওয়ামী লীগ নেতা মাহফুজ আলী, আওয়ামী লীগ নেতা  ইকবাল হোসেন, মো. আনোয়ার হোসেন, সরাইল প্রেসক্লাবের অর্থ সম্পাদক আব্দুল করিমসহ সরাইল প্রেসক্লাবের অন্যান্য সাংবাদিকবৃন্দ ও  গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।


সভায় বক্তারা বলেন,বর্তমানে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী একমাত্র পাঠক প্রিয় পত্রিকা দৈনিক যুগান্তর। পত্রিকাটি বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনের মাধ্যমে বাংলার মানুষের হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছে। বস্তুনিষ্ঠ ও গঠনমূলক সংবাদ পরিবেশনের জন্য যুগান্তর পত্রিকার প্রকাশক ও সম্পাদক, সংবাদ কর্মীসহ সকল শুভানুধ্যায়ীদের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানানো হয়। সেই সাথে দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার উত্তরোত্তর সাফল্য কামনা করা হয়।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




মধুপুরে প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে বাল্যবিবাহ অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৩৪৫জন দেখেছেন

Image

বাবুল রানা মধুপুর টাঙ্গাইল প্রতিনিধি:টাঙ্গাইলের মধুপুর উপজেলাধীন কুড়ালিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড মেম্বার আঃ আজিজের ছেলের সাথে ১৩ বছরের মেয়ের বিয়ে সংঘটিত হয়েছে।দীর্ঘদিন পর মধুপুরে এতো অল্প বয়সের একটি কিশোরী মেয়ের বিয়ে সংঘটিত হলো।জানা যায়, ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া কেশরগন্জ এলাকায় একটি বাল্যবিবাহ  সংঘটিত হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে ফুলবাড়িয়া পুলিশ প্রশাসন এবং সাংবাদিক মিলে ঘটনা স্থলে গিয়ে সত্যতা পেয়ে বিয়ে বন্ধ করেন।

এসময়  প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্ষন্ত ছেলে মেয়ের বিয়ে দিবেন না বলে একটি অঙ্গিকার নামায় স্বাক্ষর  প্রদান করেন উভয় পক্ষের অভিভাবক।  কিন্তু পরবর্তীতে সুকৌশলে ছেলের বাবা কুড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য আঃ আজিজ সেখান থেকে মেয়েকে এনে প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে নিজ বাড়িতে  বিয়ে সম্পুর্ন করেন বলে জানা যায়।  বিষয়টি মধুপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার জুবায়ের হোসেনকে অবহিত করা হলে তিনি ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য স্হানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আঃ মান্নানকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে বলে জানান।

উক্ত বিয়ে বেশ কয়েকদিন আগে সংঘটিত হয়েছে বলে জানান ইউপি চেয়ারম্যান।ঘটনাটি ঘটেছে ১৪ ফেব্রুয়ারী বুধবার বিকেলে উপজেলার কুড়ালিয়া গ্রামে। বাল্য বিবাহ রোধে দীর্ঘদিন যাবত বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে উপদেশ দিয়া আসছেন মধুপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মানবতার ফেরিওয়ালা খ্যাত মোল্লা আজিজুর রহমান।

তিনি মাদক, বাল্য বিবাহ, ইভটিজিং সহ মোবাইলের অপব্যবহার রোধে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ছাত্র ছাত্রী ও অভিভাবকদের পরামর্শ দিয়ে ব্যাপক আলোচনায় এসেছেন। এ বাল্যবিবাহের ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। বিষয়টি সরেজমিনে দেখে বাল্যবিবাহ সংঘটিত ব্যাক্তিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে না পারলে ভবিষ্যতে অনেক ফুটফুটে কিশোরী অকালে ঝরে পড়বে এমনটাই বলছেন এলাকার সুধী মহল।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা, মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২৯জন দেখেছেন

Image

বিশেষ প্রতিনিধিঃস্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যা, মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার লক্ষ্মীপুরের স্কুলছাত্রী স্মৃতি রানি সীমাকে (১৩) দলবেঁধে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় মৃত্যুদণ্ড সাজাপ্রাপ্ত আসামি মো. সাদ্দাম হোসেন রহিম ওরফে রুবেলকে (৩৭) গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব। ১০ বছর পলাতক থাকার পর র‍্যাবের হাতে ধরা পড়েছে ধর্ষক সাদ্দাম।

রোববার (২৫ ফেব্রুয়ারি) সকালে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন-৩ (র‍্যাব) টিকাটুলি কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান র‍্যাব-৩ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ।

আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ বলেন, লক্ষ্মীপুর জেলার সদর থানার এলাকায় কৃষ্ণলাল দেবনাথ তার স্ত্রী, পুত্রবধূ এবং ৩ নাতনীদের নিয়ে বসবাস করে আসছিলেন।

২০১২ সালের জুলাই মাসের ১৯ তারিখে কৃষ্ণলাল এর বাড়িতে মুখোশ পরে ১৪-১৫ জন ডাকাত দেশীয় অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে প্রবেশ করে। তারা কৃষ্ণলালের পরিবারের সদস্যদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বেঁধে ফেলে। এ সময় তারা কৃষ্ণলাল দেবনাথ, তার স্ত্রী গীতা রানী ও পরিবারের সদস্যদের দেশীয় অস্ত্রদিয়ে মারপিট করে জখম করে রুমে আটকে রাখে।

  -খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ২৬

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




আজ ২১শে ফেব্রুয়ারি

প্রকাশিত:বুধবার ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬৯জন দেখেছেন

Image

২১শে ফেব্রুয়ারি মহান শহীদ দিবস আজ একই সঙ্গে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসও। ১৯৫২ সালের এই দিনে বাংলা মায়ের বীর সন্তানেরা মাতৃভাষার সম্মান রক্ষার্থে বুকের রক্তে রঞ্জিত করেছিলেন ঢাকার রাজপথ। পৃথিবীর ইতিহাসে সৃষ্টি হয়েছিল মাতৃভাষার জন্য আত্মদানের অভূতপূর্ব নজির।

সারাদেশের আজ প্রভাতফেরি নামবে পথে পথে। ফুলে ফুলে ভরে উঠবে দেশের সব শহীদ মিনারের বেদী।

১৯৫২ সালের ২১শে ফেব্রুয়ারি বাংলাকে রাষ্ট্রভাষা করার দাবিতে বাংলার (তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান) ছাত্র ও যুব সমাজসহ সর্বস্তরের মানুষ সে সময়ের শাসক গোষ্ঠীর চোখ-রাঙানি ও প্রশাসনের ১৪৪ ধারা উপেক্ষা করে স্বতঃস্ফূর্তভাবে রাজপথে নেমে আসে।

মায়ের ভাষা প্রতিষ্ঠার আন্দোলনের দুর্বার গতি পাকিস্তানি শাসকদের শঙ্কিত করে তোলায়; সেদিন ছাত্র-জনতার মিছিলে পুলিশ গুলি চালায়। এতে সালাম, জব্বার, শফিক, বরকত ও রফিক গুলিবিদ্ধ হয়ে শহীদ হন। তাদের রক্তের বিনিময়ে বাংলা এ দেশের রাষ্ট্রভাষার স্বীকৃতি পায়। যার ধারাবাহিকতায় পরবর্তীতে আসে বাংলাদেশের স্বাধীনতা।

১৯৯৯ সালের ১৭ নভেম্বর জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি বিষয়ক সংস্থা (ইউনেস্কো) মহান একুশের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের স্বীকৃতি দেয়, যে কারণে আন্তর্জাতিক পর্যায়েও দিবসটি পালিত হচ্ছে।

ঢাকাসহ সারাদেশের শহিদ মিনারে ফুল দিয়ে একুশের মহান শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছে জাতি। রাত ১২টা ১ মিনিটে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে একুশের কর্মসূচি শুরু হয়। প্রথমে রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন। এছাড়া কালো ব্যাজ ধারণ করে প্রভাতফেরি সহকারে আজিমপুর কবরস্থানে শহীদদের কবরে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ ও শ্রদ্ধা জানানো হবে।

এই দিবসটি বাঙালি জাতির জন্য হচ্ছে চরম শোক ও বেদনার। মায়ের ভাষা বাংলার অধিকার আদায়ের জন্য সর্বোচ্চ ত্যাগের মহিমায় উদ্ভাসিত এ দিন। যে কোনো জাতির জন্য সবচেয়ে মহৎ ও দুর্লভ উত্তরাধিকার হচ্ছে মৃত্যুর উত্তরাধিকার- মরতে জানা ও মরতে পারার উত্তরাধিকার। ১৯৫২ সালের একুশে ফেব্রুয়ারি শহীদরা জাতিকে সে মহৎ ও দুর্লভ উত্তরাধিকার দিয়ে গেছেন।

সরকারি ছুটি একুশে ফেব্রুয়ারি। এদিন দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের ভবনে সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সঠিক নিয়মে, সঠিক রং ও মাপে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত এবং কালো পতাকা উত্তোলন করা হবে। দিবসটি পালন উপলক্ষ্যে জাতীয় অনুষ্ঠানের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সকল স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান, জেলা ও উপজেলা প্রশাসন, বিদেশে অবস্থিত বাংলাদেশ মিশনসমূহ বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে।


আরও খবর