Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম

যশোরে বিএনপি'র ৫২ নেতাকর্মী কারাগারে

প্রকাশিত:সোমবার ০১ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১০৮জন দেখেছেন

Image

ইয়ানূর রহমান শার্শা,যশোর প্রতিনিধি:বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, যশোর জেলা বিএনপির সদস্য সচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ সাবেরুল হক সাবু সহ বিএনপি'র ৫২ নেতাকর্মীকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছে আদালত।

রোববার দুপুরে নাশকতার বিভিন্ন মামলায় তারা সকলেই আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন জানালে বিচারক সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ শেখ নাজমুল আলম জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। তারা সকলেই উচ্চ আদালতের জামিনে ছিলেন। জামিনের সময় সিমা শেষ হওয়ায় উচ্চ আদালতের নির্দেশে নিম্ন আদালতে তারা আত্মসমর্পণ করেন। বিচারক তাদের জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

অমিত ও সাবু ছাড়াও বিএনপি'র উল্লেখযোগ্য নেতাকর্মীদের মধ্যে রয়েছেন, মুনীর আহম্মেদ সিদ্দিকি বাচ্চু, আব্দুর রাজ্জাক, সাবেক চেয়ারম্যান রবিউল ইসলাম, জেলা যুবদলের সভাপতি এম.তমাল আহমেদ,  জেলা ছাত্রদলের সভাপতি রাজিদুর রহমান সাগর, সাধারণ সম্পাদক কামরুজ্জামান বাপ্পি প্রমুখ।

এছাড়া বিএনপির ১২ নেতাকর্মীকে আদালত জামিন প্রদান করেছে। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্যরা হলেন, সাবেক এমপি মফিকুল হাসান তৃপ্তি, বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক দেলোয়ার হোসেন খোকন, সাবেক পৌর মেয়র মারুফুল ইসলাম, বিএনপি নেতা আব্দুস সালাম আজাদ, হাজী আনিছুর রহমান মুকুল, শরফুদ্দৌলা ছোটলু, যুবদলের যুগ্মসম্পাদক নাজমুল হোসেন বাবুল প্রমুখ।

আইনজীবী দেবাশীষ দাস বলেন, অধিকাংশ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে তিনটি থেকে চারটি মামলা রয়েছে। কোতোয়ালি থানা, শার্শা থানা ও কেশবপুর থানার মামলায় তারা আত্মসমর্পণ করেছেন। আদালত অসুস্থ্য নেতাকর্মীদের জামিন প্রদান করেছেন ও অন্যদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন।


আরও খবর



কেএনএফের সহযোগী লিয়ান বম গ্রেপ্তার

প্রকাশিত:বুধবার ১০ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৯৫জন দেখেছেন

Image

বুধবার (১০ এপ্রিল) বান্দরবানের রুমার বেথেলপাড়া থেকে,পাহাড়ের সশস্ত্র গোষ্ঠী কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) এক সহযোগী লাল লিয়ান সিয়াম বম (৬৫) নামে এই কেএনএফ উপদেষ্টাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

বান্দরবানের পুলিশ সুপার শাহিন সৈকত এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি জানান, কুকি-চিনের ‘গুরু’ হিসেবে পরিচিত ছিলেন লাল লিয়ান। এ নিয়ে বান্দরবানের যৌথ বাহিনীর অভিযানে মোট ৫৭ জনকে গ্রেপ্তার করা হলো।

প্রসঙ্গত, গত ২ ও ৩ এপ্রিল রুমা ও থানচিতে সোনালী ও কৃষি ব্যাংকে ডাকাতি, ব্যাংক ম্যানেজারকে অপহরণ, টাকা লুট ও পুলিশ-আনসারের ১৪টি অস্ত্র ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে। ব্যাংক ব্যবস্থাপক উদ্ধার হলেও লুট হওয়া অস্ত্র ও টাকা উদ্ধার করা যায়নি।

এ ঘটনার পর বান্দরবানের দুর্গম পাহাড়ে সন্ত্রাসীদের ধরতে অভিযান চালাচ্ছে যৌথ বাহিনীর সদস্যরা। অভিযানে পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি, আমর্ড পুলিশের পাশাপাশি সেনাবাহিনীর সদস্যরা একসঙ্গে অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে।


আরও খবর



হিলিতে ৩ হাজার ৮১ পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০২ এপ্রিল 2০২4 | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৭১জন দেখেছেন

Image

মাসুদুল হক রুবেল,হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:আর মাত্র কয়েক দিন পরেই মুসলিম সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব ঈদুল ফিতর।পবিত্র ঈদ-উল ফিতর উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার হিসাবে দিনাজপুরের হাকিমপুর হিলি পৌরসভার ৩ হাজার ৮১ দরিদ্র, অসহায় ও দুস্থ পরিবারের মাঝে ১০ কেজি করে চাল বিতরণ করা হয়েছে। ঈদের আগে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহারের চাল পেয়ে খুশি এসব অসহায় পরিবার। মঙ্গলবার (০২ এপ্রিল) সকাল ৯ টায় দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তর ভিজিএফ কর্মসূচীর আওতায় পৌর সভার ৯ টি ওয়ার্ডের ৩ হাজার ৮১ পরিবারের মাঝে ১০ কেজি করে চাল বিতরণের উদ্বোধন করেন হাকিমপুর হিলি পৌরসভার প্যানেল মেয়র মিনহাজুল ইসলাম লিটন।

এসময় তদারকি অফিসার ও উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ তাহিরুল ইসলাম, কাউন্সিলর রাকিবুল ইসলাম কেবলা, দুলাল হোসেন, রতন কুমার, ফারুক হোসেন,শামীম সরদার, পৌর প্রকৌশলী আব্দুর রাজ্জাক, সাবেক যুবলীগ নেতা মার্শালসহ ৯ টি ওয়ার্ডের কাউন্সিলরা উপস্থিত ছিলেন।

পৌরসভার ২নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা শহিদা বেগম বলেন, কয় দিন পরে ঈদ। আমরা দিন আনা দিন খাওয়া মানুষ। ঈদের আগে চাল পেয়ে আমার খুব ভালো হলো বাবা। এতে আমি খুব খুশি।

প্যানেল মেয়র মিনহাজুল ইসলাম লিটন বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার গরীব অসহায় দুস্থদের সরকার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে যতো দিন থাকবে দেশ, পথ হারাবে না বাংলাদেশ। ঈদুল ফিতর উপলক্ষে সবাই যেন এক সাথে ঈদের আনন্দ উদযাপন করতে পারে সে কারণে ঈদের আগেই দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রাণালয়ের মাধ্যমে মানবিক সহায়তা কর্মসূচীর আওতায় প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার হিসেবে বিনামূল্যে ভিজিএফ এর চাল বিতরণ করা হচ্ছে।


আরও খবর



স্বাধীনতা দিবসে স্মৃতিসৌধে বিএনপির শ্রদ্ধা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৬ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১১০জন দেখেছেন

Image
মারুফ সরকার, স্টাফ রিপোর্টার : মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে একাত্তরের বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছেন বিএনপি নেতারা।

মঙ্গলবার সাভারে জাতীয় স্মৃতিসৌধে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন তারা। এ সময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান বলেন, “যে উদ্দেশ্য ও আদর্শ নিয়ে এদেশে মুক্তিযুদ্ধ হয়েছে, তা রক্ষা হয়নি।”

এসময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ড. আব্দুল মঈন খান, ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান, ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন, অ্যাডভোকেট আহমদ আজম খান, আব্দুল আউয়াল মিন্টু, দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকট রুহুল কবির রিজভী, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ডা. ফরহাদ হালিম ডোনার, মাসুদ আহমেদ তালুকদার, যুগ্ম মহাসচিব ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, প্রচার সম্পাদক শহিদ উদ্দিন চৌধুরি এ্যানি,ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপির সদস্য সচিব আমিনুল হক,  ঢাকা জেলার সভাপতি খন্দকার আবু আশফাক, সাধারণ সম্পাদক নিপুণ রায় চৌধুরী, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক মোনায়েম মুন্না, ছাত্রদলের সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রাকিব, সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন নাসিরসহ বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

আরও খবর



ঈদে আসছে নির্মাতা কে এ নিলয়ের 'ও মেয়ে ঢং করোনা'

প্রকাশিত:রবিবার ২৪ মার্চ 20২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১১৮জন দেখেছেন

Image
বিনোদন প্রতিবেদক:আসন্ন ঈদকে সামনে রেখে পুবাইলের বিভিন্ন লোকেশনে নির্মিত হলো নতুন মিউজিক ভিডিও 'ও মেয়ে ঢং করোনা' ।আল আমিন জমাদ্দার সবুজ কথায় ও সুরে সঙ্গীত আয়োজন করেছেন আকাশ মাহমুদ। মিক্স মাস্টার আশিক মাহমুদ।গানটিতে কন্ঠ দিয়েছেন কণ্ঠশিল্পী আকাশ মাহমুদ ও নওশীন অমি। মিউজিক ভিডিওতে মডেল হিসাবে কাজ করেছেন আলিফ চৌধুরী ও প্রণমি নাফি। মিউজিক ভিডিওটি নির্মান করেছেন নির্মাতা কে এ নিলয়। কোরিওগ্রাফার হিসাবে ছিলেন প্রিন্স খান।গানটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান এজেএস ওয়ার্ল্ড। প্রযোজক আল আমিন জমাদ্দার সবুজ।'ও মেয়ে ঢং করোনা গানটি ঈতে মুক্তি পাবে।

এ প্রসঙ্গে কণ্ঠশিল্পী আকাশ মাহমুদ বলেন,'ও মেয়ে ঢং করোনা' নতুন গানটি বাড়তি মাত্রা যোগ করবে বলে আশা করছি।এই গানটিও সবার পছন্দ হবে।

কোরিওগ্রাফার প্রিন্স খান বলেন, ‘ঈদের গান নিয়ে শ্রোতা-দর্শকদের বেশ আগ্রহ রয়েছে। গানে সবাই এখন সুন্দর ভিডিও দেখতে পছন্দ করেন। আমি চেষ্টা করেছি দর্শকদের পছন্দ অনুযায়ী ভালো একটি গান উপহার দিতে। আশা করছি সবার ভালো লাগবে।

নির্মাতা কে এ নিলয় বলেন, ‘সেই ছোট্টবেলা থেকেই ঈদ আসলে আমরা আনন্দে ভেসে যেতাম। সেই ছোট্টবেলার স্মৃতি মনে করে আমরা চেষ্টা করেছি ‘'ও মেয়ে ঢং করোনা'
গানটি সবার মাঝে ছড়িয়ে দেওয়ার। যদি গানটি সবার ভালো লাগে, তাহলে আমাদের কষ্ট সার্থক হবে।

আরও খবর



ঈদ পর ফের বাড়লো হিলিতে আলু,পেঁয়াজ, রসুন ও আদার দাম

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ৬৮জন দেখেছেন

Image

মাসুদুল হক রুবেল,হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি:দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর দিয়ে বেড়েছে আলু আমদানি। তবে আমদানিতেও কমছে না ভারতীয় ও দেশীয় আলুর দাম। ভারতীয় আলু কেজিতে বেড়েছে ৮ টাকা আর দেশীয় আলু কেজিতে বেড়েছে ১০ থেকে ১৫ টাকা। এদিকে ঈদের পর থেকে ফের দাম বাড়তে শুরু করেছে দেশীয় রসুন, পেঁয়াজ ও আদার দাম। দেশীয় রসুন কেজিতে বেড়েছে ১০০ টাকা,আমদানিকৃত আদা কেজিতে বেড়েছে ৬০ টাকা। আর দেশীয় পেঁয়াজ কেজিতে ১০ টাকা বেড়েছে। পণ্যগুলোর দাম বাড়ায় বিপাকে পড়েছেন ক্রেতা সাধারণ। বিক্রেতারা বলছেন,টানা ছুটি থাকায় আমদানি বন্ধ ছিল ও সরবরাহ কমে যাওয়া দাম বেড়েছে।

আজ মঙ্গলবার (১৬ এপ্রিল) হিলি বাজার ঘুরে দেখা গেছে, ঈদের আগে দেশীয় আলু ৩৫ থেকে ৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হয়েছে,আজ সেই আলু ৪৫ থেকে ৫৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। দেশী রসুন আগে ছিল ৮০ টাকা কেজি দরে,তা এখন ১০০ টাকা বেড়ে ১৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। আমদানিকৃত চায়না আদা আগে বিক্রি হয়েছে ১৮০ টাকা কেজি দরে, তা এখন ৬০ টাকা বেড়ে ২৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। দেশীয় পেঁয়াজ ৪৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হলেও তা এখন ১৫ টাকা বেড়ে ৫৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। আর আমদানিকৃত আলু বন্দর থেকেই দেশেরস্থানে পাঠানো হচ্ছে। তবে ক্রেতারা সাদ নেই বলে আমদানিকৃত আলু কিনতে চায় না।হিলি বাজারে আলু আদা,পেঁয়াজ ও রসুন কিনতে আসা ফরহাদ বলেন,বাড়িতে মেয়ে-জামাই এসেছে তাই বাজার করতে আসলাম। এসে দেখি সব জিনিসের দাম বেশি।

আমি ঈদের আগে দেশীয় আলু কিনেছি ৩৫ থেকে ৪০ টাকা কেজি দরে,আজকে সেই আলু ৪৫ থেকে ৫৫ টাকা কেজি দরে কিনলাম। আগে রসুন কিনেছি ৮০ টাকা কেজি দরে, আজ সেই রসুনের দাম চাচ্ছে ১৮০ টাকা কেজি দরে,আদা কিনেছি ১৮০ টাকা কেজি দরে,আজ আদা কিনেছি ২৪০ টাকা কেজি দরে। কি আর করার নিতেই হবে আমাকে তাই অল্প অল্প করে নিলাম।

হিলি বাজারের খুচরা পেঁয়াজ,রসুন ও আদা বিক্রেতা ময়নুল ইসলাম বলেন,ঈদের আগে সরবরাহ বেশি ছিল তাই দামও কম ছিল। টানা ৬ দিন আমদানি-রপ্তানি বন্ধ ও সরবরাহ কমে যাওয়ায় দাম বেড়েছে। আমরা গেলো শনিবারও আলু ৩৫ থেকে ৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করেছে। গত তিন দিন থেকে কেজিতে আলুর দাম বেড়েছে ১০ থেকে ১৫ টাকা। এখন আমরা খুচরা বিক্রি করছি ৪৫ থেকে ৫৫ টাকা কেজি দরে। আদা কেজিপ্রতি বিক্রি করেছি ১৮০ টাকায়,এখন কেজিতে ৬০ টাকা বেড়ে ২৪০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করছি।রসুন ৮০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করেছি এখন সেই রসুন কেজিতে ১০০ টাকা বেড়ে ১৮০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। দেশীয় পেঁয়াজ ৪৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হলেও ১৫ টাকা বেড়ে এখন ৫৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। গত তিন থেকে পাইকারী বাজারে দাম বেশি। আমরা কম দামে কিনতে পারলে কম দামেই বিক্রি করে থাকি। আলুর দাম বাড়ার কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন, দেশীয় আলু বেশি ভাগ ষ্টোর করেছেন কৃষকরা।আমদানিকৃত আলুর সাদ ভালো না হওয়ায় আমরা আমদানিকৃত আলু বিক্রি করিনা।যদিও দুই একজন নিয়ে আসে। তাও আবার সেইগুলো বিক্রি করতে অনেক সময় লাগে। টানা ৬ দিন ছুটি শেষে গতকাল সোমবার হিলি স্থলবন্দর দিয়ে একদিনে ২৭টি ভারতীয় ট্রাকে ৬৯৩ মেট্রিকটন আলু আমদানি হয়েছে। আমদানিকৃত আলু বন্দরে পাইকারী বিক্রি হচ্ছে ৩৯ থেকে ৪০ টাকায়। এর আগে ছিল ৩১ থেকে ৩২ টাকা কেজি দরে।


আরও খবর