Logo
আজঃ বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪
শিরোনাম

ভিআর ক্রিকেট ক্যাম্পেইনে তরুণরা অনুপ্রাণিত হলো ইনফিনিক্সের উদ্ভাবনী চার্জিং প্রযুক্তিতে

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ | ১৫১জন দেখেছেন

Image

প্রযুক্তি ডেস্ক:আইসিসি মেনস টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০২৪ উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত ভার্চুয়াল রিয়েলিটি (ভিআর) ক্রিকেট ক্যাম্পেইনটি সফলভাবে সম্পন্ন করেছে তরুণদের পছন্দের ব্র্যান্ড ইনফিনিক্স। ‘চার্জ আপ বাংলাদেশ’ নামের এই ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে ইনফিনিক্স আবারও তাদের অভিনবত্বের অঙ্গীকার প্রদর্শন করেছে। ক্যাম্পেইন চলাকালে ঢাকায় ভক্তরা ভিআর ক্রিকেটের মাধ্যমে অসাধারণ এক অভিজ্ঞতা উপভোগ করেন। 

অত্যাধুনিক প্রযুক্তির অভিজ্ঞতা প্রদানের মাধ্যমে তরুণদের ক্ষমতায়ন করাই ছিল ইনিফিনিক্স্বের ভিআর ক্রিকেট ক্যাম্পেইনের  মূল উদ্দেশ্য। নোট ৪০ সিরিজটি যেভাবে উদ্ভাবনী ম্যাগচার্জ সিস্টেমের মাধ্যমে চার্জিং পদ্ধতিতে বৈপ্লবিক পরিবর্তন এনেছে, তরুণদের মাঝে একইভাবে ক্যাম্পেইনটি প্রযুক্তির মাধ্যমে ক্রিকেটের চেতনায় উদ্বুদ্ধ করেছে। ক্যাম্পেইনটি ‘চার্জ আপ’ থিমের উপর জোর দিয়ে পরিচালিত হয়েছে যা মূলত ইনফিনিক্সের উন্নত চার্জিং সমাধানের মূল ধারণা। একই সাথে এটি ক্রিকেটের রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা সবার সামনে তুলে ধরেছে।

৪ জুন থেকে শুরু হওয়া ক্যাম্পেইনটি ঢাকার বেশ কিছু বিশ্ববিদ্যালয় এবং জনপ্রিয় শপিং মলে পরিচালিত হয়। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিল- ইন্ডিপেনডেন্ট ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (আইইউবি), আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ (এআইইউবি) এবং যমুনা ফিউচার পার্ক।

এক হাজারেরও বেশি দর্শক এই ভার্চুয়াল ক্রিকেট ক্যাম্পেইনে অংশ নিয়ে এক অন্যন্য অভিজ্ঞতা উপভোগ করেন। ইনফিনিক্স্-এর এই ক্যাম্পেইনের অন্যতম উদ্দেশ্য ছিল ভক্তদের সম্পৃক্ত করার পাশাপাশি তাদের উন্নত চার্জিং প্রযুক্তি প্রদর্শন করা। তরুণদের আধুনিক চার্জিং প্রযুক্তির সাথে সংযুক্ত রাখাতে এই অভিনব প্রযুক্তি ডিজাইন করা হয়েছে। ক্রিকেটের সাথে প্রযুক্তি মিশেলে ইনফিনিক্স নতুন প্রজন্মকে তাদের প্যাশন এবং আধুনিক প্রযুক্তির ক্ষমতা উপভোগ করতে অণুপ্রাণিত করেছে। 

ইনফিনিক্সের নোট সিরিজটি এর আধুনিক চার্জিং প্রযুক্তির জন্য তরুণ গ্রাহকদের মধ্যে বেশ জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। ইনফিনিক্স নোট ৩০ সিরিজে ওয়্যারলেস চার্জিং প্রযুক্তি ব্যবহার করে, মিড রেঞ্জের ফোন হওয়ায় এটি তখন বেশ সাড়া ফেলে দেয়। এরপর তারা নোট ৪০ সিরিজে ম্যাগচার্জ প্রযুক্তি আনে, যেটিও বেশ আলোড়ন সৃষ্টি করে। কেননা এই প্রযুক্তি অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোনের জন্য প্রথম। সবশেষ গ্রাহকের কথা মাথায় রেখে বাংলাদেশে নোট সিরিজের নতুন স্মার্টফোন লঞ্চ করার প্রস্তুতি নিচ্ছে, যেখানে থাকতে পারে অত্যাধুনিক সব প্রযুক্তির ছোঁয়া।


আরও খবর



জয়পুরহাটে শিশু হত্যা মামলায় দুই ভাইসহ ৪ জনের যাবজ্জীবন

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১১ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০২৪ | ৯৯জন দেখেছেন

Image
এস এম শফিকুল ইসলাম জয়পুরহাট প্রতিনিধিঃজয়পুরহাটে শিশু রিয়াদকে অপহরণের পর হত্যা মামলার ২৪ বছর পর দুই ভাইসহ ৪ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ড দিয়েছেন আদালত। এছাড়া তাদের প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরও দুই বছরের কারাদন্ড দেওয়া হয়। বুধবার দুপুরে অতিরিক্ত দায়রা জজ ১ম আদালতের বিচারক নুরুল ইসলাম এ রায় দেন।

দন্ডপ্রাপ্তরা হলেন, জেলার ক্ষেতলাল উপজেলার হিন্দাপাঁচখুপি গ্রামের ইউসুফ আলী ফকিরের ছেলে একাব্বর আলী, মৃত সোলায়মান আলীর ছেলে শফিকুল ইসলাম, আব্দুল মতিন ও কালাই উপজেলার হাজীপুর গ্রামের আসাদ আলীর ছেলে তোফাজ্জল হোসেন। এদের মধ্যে একাব্বর ও তোফাজ্জল পলাতক রয়েছেন।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলার হিন্দাপাঁচখুপি গ্রামের মাসুদুর রহমান দুলালের ৫ বছরের ছেলে রিয়াদ ২০০০ সালের ২৫ মার্চ সকাল থেকে নিখোঁজ হয়। অনেক খোঁজাখুজি করেও পরিবারের সদস্যরা তার কোন সন্ধান পাননি। পরে ২৬ মার্চ আসামীরা রিয়াদকে অপহরণ করেছে জানিয়ে এক লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করেন। এরপর ১০ হাজার টাকা দেওয়া হলেও আসামীরা রিয়াদকে ২৭ মার্চ রাতের কোন এক সময় হত্যা করে। পরে দুপুরে গ্রামের একটি গর্ত থেকে শিশু রিয়াদের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় নিহতের মামা বেলাল উদ্দীন তালুকদার বাদী হয়ে ক্ষেতলাল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করলে দীর্ঘ শুনানি শেষে আদালত আজ এ রায় দেন। 

-খবর প্রতিদিন/ সি.

আরও খবর



নবীনগরে রাস্তার দুপাশ দখল করে গড়ে ওঠা কয়েক শতাদিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১৬ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ | ১১৯জন দেখেছেন

Image

মোহাম্মদ হেদায়েতুল্লাহ  নবীনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া)প্রতিনিধি:-ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর উপজেলার বাঙ্গরা বাজারের নবীনগর টু কোম্পানীগঞ্জ সড়কের দুপাশে সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের জায়গা দখল করে গড়ে ওঠা কয়েক শতাদিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। আজ সোমবার (১৫ জুলাই) সকাল ৯ টা থেকে এ উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হয়। প্রথমে স্থানীয় অবৈধ দখলদারদের বাধায় উচ্ছেদ অভিযান কিছুটা ব্যাহত হলেও পুলিশের জোড়ালো ভূকিকায় কিছুক্ষণ পর থেকে শক্তিশালী ভেকু দিয়ে ভেঙে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয় বিভিন্ন ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানসহ প্রায় তিন শতাধিক অবৈধ স্থাপনা। এতে টানা সাত ঘণ্টার অভিযানে রাস্তার দুপাশ দখল করে গড়ে ওঠা কয়েক শতাদিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে দখলমুক্ত হয়।


উচ্ছেদ অভিযানে নেতৃত্ব দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর ফরহাদ শামীম। উচ্ছেদ অভিযানে আরো উপস্থিত ছিলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মীর নিজাম উদ্দিন, উপজেলার সহকারী কমিশনা ভূমি আবু মোছা, নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মাহাবুবুর রহমান, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহমুদা আক্তার শিউলী, ইউপি চেয়ারম্যান রবিউল আউয়াল রবি সহ প্রায় শতাদিক পুলিশ সদস্য।


এসময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর ফরহাদ শামীম জানান, দোকানগুলো সরকারি জমিতে অবৈধভাবে নির্মাণ করা হয়েছিল। পূর্বে ব্যবসায়ীদের একাধিকবার নোটিশ ও মাইকিং করে এসব অবৈধ দখলদারদের নিজ উদ্যোগে স্থাপনা সরিয়ে নেওয়ার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হলেও সেটি মানা হয়নি। ফলে বিধি অনুযায়ী এসব অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়। তিনি ভবিষ্যতে এ ধরণের ঘটনা পুনরাবৃত্তি না হওয়ার জন্য স্থানীয়দের সচেতন থাকার আহ্বান জানান।


এব্যাপারে জেলা সড়ক ও জনপদ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মীর নিজাম উদ্দিন জানান, আগামীতে এই বাজারের মধ্য দিয়ে ফোরলেনের রাস্তা নির্মাণ করা হবে। ফলে আমাদের জায়গাগুলো দখলমুক্ত করা প্রয়োজন হয়ে পড়ায় উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশেক্রমে এ উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে।


জানা যায়, এই বাজারটি কেবল একটি ঐতিহাসিক স্থান ছিল না, বরং এটি উপজেলার কয়েক হাজার পরিবারের জীবিকার প্রধান উৎস ছিল। এই বাজার উচ্ছেদের ফলে কয়েক হাজার ব্যবসায়ী ও কর্মী বেকার হয়ে পড়েছে। এতে করে স্থানীয় অর্থনীতিতে বিরূপ প্রভাব পড়ার আশঙ্কা করছেন অনেকেই। ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীদের অভিযোগ তাদের পূর্ব নোটিশ দেওয়া হয়নি। বিকল্প পুনর্বাসনের ব্যবস্থা না করে আচমকা এ অভিযানে তাদের যে পরিমাণ ক্ষতি হয়েছে তা পূরণ হওয়ার নয়।

   -খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



গাবতলী মহিলা কলেজে পরীক্ষার্থীদের বিদায়

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৭ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ | ১৫২জন দেখেছেন

Image

আল আমিন মন্ডল (বগুড়া) প্রতিনিধিঃগতকাল বুধবার বগুড়ার গাবতলী মহিলা কলেজে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের বিদায় উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভা শেষে বিশেষ দোয়া মোনাজাত করা হয়।

অত্র কলেজের অধ্যক্ষ নূরে আলম সিদ্দিকীর সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বগুড়া সরকারি মুজিবুর রহমান মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ রেজাউন নবী। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন গাবতলী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) মিজানুর রহমান, থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ। সহকারী অধ্যাপক জহিরুল ইসলাম ও আব্দুর রহিমের সঞ্চালনায় আরো বক্তব্য রাখেন সহকারী অধ্যাপক জাহাঙ্গীর আলম, সুলতানা বিদৌরা, আব্দুস সবুর, গভর্নিং বর্ডির সদস্য  আব্দুল হক, আব্দুল বারীসহ অভিভাবক ও বিদায়ী শিক্ষার্থীবৃন্দ প্রমূখ।


আরও খবর



রূপগঞ্জে জঙ্গি আস্তানায় অভিযানে উদ্ধারকৃত তিনটি বোমা নিষ্ক্রিয়

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০২ জুলাই 2০২4 | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ | ১০৯জন দেখেছেন

Image

মোঃআবু কাওছার মিঠু রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ)প্রতিনিধিঃ-

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার তারাবো পৌরসভার বরপা আড়িয়াবো এলাকার একটি চার তলা ভবনে অভিযান চালিয়ে উদ্ধারকৃত তিনটি বোমা নিষ্ক্রিয় করেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা। জঙ্গি আস্তানার খবর পেয়ে গতকাল ২জুলাই মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় আড়িয়াবো এলাকার জাকির হোসেনের বাড়িতে তারা এ অভিযান চালায়। অভিযানে পুলিশ, অ্যান্টি টেরোরিজম ও সোয়াদ ইউনিটের সদস্যরা অংশ নেয়। 


জানা গেছে, গত মার্চ মাসে রূপগঞ্জের তারাবো পৌরসভার আড়িয়াবো গ্রামের জাকির হোসেনের চার তলা বাড়ির তৃতীয় তলার একটি ফ্ল্যাট আনসারউল্লাহ বাংলা টিমের(এবিটি) সক্রিয় একজন সদস্য ভাড়া নেয়। সেখানে তিনি তার দুই সন্তান ও স্ত্রী নিয়ে বসবাস করেন। এলাকায় কিংবা আশপাশের কারো সঙ্গে যোগাযোগ না করেই তিনি তার মতো বসবাস করে আসছিলেন। বাড়ির মালিক জাকির হোসেনের গ্রামের বাড়ি ব্রা²ণবাড়িয়া জেলায়। তিনি সৌদী প্রবাসী।


তবে এবিটির সদস্যের নাম পরিচয় জানা যায়নি। অ্যান্টি টেরোরিজম ইউনিটের পুলিশ সুপার (মিডিয়া অ্যান্ড অ্যাওয়ারনেস) সানোয়ার হোসেন জানান, গতকাল ২জুলাই মঙ্গলবার সকাল থেকেই এটিইউর একটি দল নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের বরপা আড়িয়াবো এলাকায় জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে চারতলা একটি বাড়ি ঘেরাও করে রাখে। নেত্রকোণা জেলার জঙ্গি ঘটনায় জঙ্গি সংগঠনের সদস্য একজন নারীকে কক্সবাজার থেকে গ্রেফতার করা হয়। ওই নারীর দেয়া তথ্য অনুযায়ী এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। 


এলাকাবাসী জানায়, গত আট বছর আগে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সৌদি প্রবাসী জাকির হোসেন নামের এক ব্যক্তি চার তলা এই ভবনটি নির্মাণ করে ভাড়া দেন। অনেক সময় অপরিচিত লোকজনের এ বাড়িতে আসা-যাওয়া করতে দেখা গেছে। নেত্রকোণার জঙ্গির ঘটনার পর গত ৩/৪ দিন ধরে তাদেরকে এ বাড়িতে দেখা যায়নি। জাকির হোসেনের পাশাপাশি তার স্ত্রী বকুলী বেগমও এ বাড়িতে আসা যাওয়া করতেন। 


নারায়ণগঞ্জ জেলা সহকারী পুলিশ সুপার ('গ'-সার্কেল) হাবিবুর রহমান বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা এ অভিযান পরিচালনা করে। উদ্ধারকৃত তিনটি বোমার একটি বোমা বিষ্ফোরণের আশঙ্কায় ভবনের ভেতরেই তাদের ফ্ল্যাটে বিষ্ফোরিত করে নিষ্ক্রিয় করা হয়। অপর দু’টি বোমা ভবনের পাশে খালি মাঠে গর্ত করে বিশেষ প্রক্রিয়ায় বিষ্ফোরিত করে নিষ্ক্রিয় করা হয়।


সোয়াদের কমান্ডার শাহেদ আহমেদ বলেন, তিনটি ইমপ্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস(আইইইডি) বোমা উদ্ধার করা হয়। এই বোমা তাৎক্ষণিক উদ্ভাবিত বোমা। তাৎক্ষণিক উদ্ভাবিত বিস্ফোরক বলতে প্রচলিত সামরিক পদ্ধতি অপেক্ষা অন্য কোনও উপায়ে নির্মিত বোমা হতে পারে। এটি একটি বিস্ফোরক ব্যবস্থার সাথে সংযুক্ত একটি আর্টিলারি শেলের মতো সামরিক বিস্ফোরক নির্মিতও হতে পারে। রূপগঞ্জ থানা ওসি দীপক চন্দ্র সাহা বলেন, এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতারে পুলিশ তৎপর রয়েছে।  

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর



আটোয়ারীতে ব্রীজের নীচ থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় লাশ উদ্ধার

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৫ জুলাই ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ জুলাই ২০২৪ | ১৩০জন দেখেছেন

Image

কুয়েল ইসলাম সিহাত,পঞ্চগড় প্রতিনিধি:পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলায় হাত-পা বাঁধা অবস্থায় একটি ব্রিজের নিচ থেকে শাকিল রানা (২৮) নামে এক ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
বুধবার (৩ জুলাই) রাত ১০টার দিকে উপজেলার রাধানগর ইউনিয়নের পল্লী বিদ্যুৎ এলাকার সুখের ব্রিজের নিচ থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।ব্যবসায়ী শাকিল রানা উপজেলার রাধানগর ইউনিয়নের বড়দাপ প্যারিস এলাকার আজিজুল হকের ছেলে। তিনি পেশায় ট্রাক্টর ব্যবসায়ী ছিলেন।আটোয়ারী থানার ওসি (তদন্ত) মো. শাহিনুর ইসলাম তালুকদার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এক যুবকের লাশ ব্রিজের নিচে পড়ে আছে এমন খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস ঘটনাস্থলে পৌঁছে। প্রাথমিকভাবে লাশের সুরতহালের পর ময়নাতদন্তের জন্য পঞ্চগড় সদর আধুনিক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।তিনি বলেন, পরিবারের পক্ষ থেকে এখনো কোনো মামলা করা হয়নি। তবে পরিবার মামলা করবে। পুলিশের পক্ষ থেকে একটি অপমৃত্যু মামলা করা হয়েছে।

এদিকে এলাকাবাসীর ধারণা আর্থিক লেনদেনের কারণে শাকিলের অনাকাঙ্খিত মৃত্যু হয়েছে। পাশাপশি মৃতের পরিবার ও এলাকাবাসী দ্রুত তার মৃত্যুর রহস্য উন্মোচনের দাবী জানান।

আরও খবর