Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪
শিরোনাম

স্থগিত হওয়া ১৯ উপজেলায় চলছে ভোট

প্রকাশিত:রবিবার ০৯ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৭১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:দেশের ১৯টি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভোটগ্রহণ চলছে,ঘূর্ণিঝড় রিমালের কারণে স্থগিত হওয়া ।

রোববার (৯ জুন) সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। কোনো প্রকার বিরতি ছাড়াই বিকেল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলবে।

এদিকে নির্বাচন শান্তিপূর্ণ করতে সব ধরনের প্রস্তুতি শেষ করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

ইসির জনসংযোগ বিভাগের পরিচালক মো. শরিফুল আলম জানান, এই ১৯টি উপজেলায় তৃতীয় ধাপে ২৯ মে ভোটগ্রহণ হওয়ার কথা ছিল। ঘূর্ণিঝড় রিমালের কারণে নির্বাচনি এলাকা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় ওইসব নির্বাচন স্থগিত করেছিল কমিশন। ওই এলাকা নির্বাচন উপযোগী হওয়ায় ভোট নেওয়া হচ্ছে।

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় উপজেলায় ইভিএমে এবং বাকি ১৮ উপজেলায় ব্যালট পেপারে ভোট হচ্ছে।

ইসি জানিয়েছে, ১৯ উপজেলায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ৩৩০ জন প্রার্থী। এর মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ১১৯, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১৩২ ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭৯ জন রয়েছেন। এসব উপজেলায় কেন্দ্র রয়েছে ১ হাজার ১৮১টি ও ভোটার রয়েছেন ৩০ লাখ ৪৬ হাজার ৮৮ জন। ১৭৯টি কেন্দ্রে শনিবার ব্যালট পৌঁছেছে।

যেসব উপজেলায় ভোট হচ্ছে- খুলনার কয়রা, পাইকগাছা ও ডুমুরিয়া; বাগেরহাটের শরণখোলা, মোড়েলগঞ্জ ও মোংলা; বরিশালের গৌরনদী ও আগৈলঝাড়া; পটুয়াখালীর পটুয়াখালী সদর, মির্জাগঞ্জ ও দুমকী; পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া; ভোলার তজুমদ্দিন ও লালমোহন; ঝালকাঠির রাজাপুর ও কাঠালিয়া; বরগুনার বামনা ও পাঠরঘাটা উপজেলা এবং নেত্রকোনার খালিয়াজুরী।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




রাণীশংকৈলে মাসিক আইন-শৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৩৬জন দেখেছেন

Image

রাণীশংকৈল(ঠাকুরগাঁও)প্রতিনিধি:ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে বুধবার (১২ জুন) দুপুরে উপজেলা মাসিক আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। ইউএনও রকিবুল হাসানের সভাপতিত্বে সভায় কমিটির উপদেষ্টা নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান আহম্মেদ হোসেন বিপ্লব ও ভাইস চেয়ারম্যান সারমিন আক্তার, সহকারি কমিশনার(ভূমি) আর্নিকা আক্তার, ওসি 

জয়ন্ত কুমার সাহা, প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার রাহিম উদ্দিন, বীর মুক্তিযোদ্ধা হবিবর রহমান।  

এছাড়াও ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাসেম, শরৎচন্দ্র রায় ও মতিউর রহমান মতি, প্রেসক্লাব সভাপতি অধ্যাপক আনোয়ারুল ইসলাম ও মোবারক আলী,সম্পাদক মো: বিপ্লব, সদস্য মাহাবুব আলমসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন। 

সভায় বক্তরা উপজেলার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির বিভিন্ন দিক তুলে ধরে বলেন, উপজেলার বিভিন্ন স্থানে মাদক বেচাকেনা ও সেবন এবং পৌর এলাকায় দ্রুতবেগে হেডলাইট

উঁচু করে মোটরসাইকেল চালানোর বিষয়ে পুলিশের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।এবং মোটরসাইকেল চুরি সহ সীমান্তবর্তী এলাকায় মাদক চোরাচালান, নারী পাচার বিষয়ে সচেতন সতর্ক ও সকলের সহযোগিতা কামনা করেন। 


আরও খবর



তানোরে স্বপ্ন বেকারী ও সাগরিকা আইসক্রিম ফ্যাক্টরীতে অভিযান জরিমানা, সিল গলা

প্রকাশিত:বুধবার ০৫ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৪৬জন দেখেছেন

Image

আব্দুস সবুর তানোর থেকে:রাজশাহীর তানোর পৌর সদর  এলাকার গোল্লাপাড়া বাজারস্থ স্বপ্ন বেকারি ও সাগরিকা আইসক্রিম ফ্যাক্টরীতে অভিযান চালিয়ে ৫ হাজার টাকা করে জরিমানা, মালামাল ধ্বংস এবং সিলগালা করা হয়।মঙ্গলবার বিএসটিআইয়ের উদ্যোগে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোস্তাফিজু রহমানের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত এসব জরিমানা আদায় করেন।  

জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে  অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে  বিস্কুট পাউরুটি ও কেক এবং আইস তৈরি করে বাজারজাত সহ রমরমা ব্যবসা করে আসছিল স্বপ্ন বেকারি ও সাগরিকা আইসক্রিম ফ্যাক্টরী।  এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে মঙ্গলবার    মঙ্গলবার বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশনের (বিএসটিআই) উদ্যোগে  উপজেলায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাকালে এসব ভয়াবহ  চিত্র ধরা পড়ে। বিএসটিআই’র গুণগত মানসনদ ছাড়াই অত্যন্ত অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে বিস্কুট, পাউরুটি ও কেক উৎপাদন ও বিক্রি হচ্ছে যা মানব দেহের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর।  এই অপরাধে তানোর পৌর সদর  গোল্লাপাড়া এলাকার মেসার্স স্বপ্ন বেকারীকে ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

এ সময় উৎপাদনে ব্যবহৃত নন-ফুডগ্রেড রং ও ফ্লেভার জব্দপূর্বক ধ্বংস করা হয়। এছাড়াও একই এলাকায় অবৈধভাবে ও অত্যন্ত অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে আইসক্রিম উৎপাদন করায় মেসার্স সাগরিকা আইসক্রিম ফ্যাক্টরীকেও ৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয় এবং কারখানাটি সিলগালা করে দেওয়া হয়।

সেই সাথে কোনো প্রকার দুধ ছাড়াই শুধুমাত্র আটা, দূষিত পানি ও নন-ফুডগ্রেড রং দিয়ে তৈরি প্রায় ৮০০ পিস আইসক্রিম অভিযানকালে ধ্বংস করা হয়।  উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বে পরিচালিত এই ভ্রাম্যমাণ আদালতে প্রসিকিউটর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বিএসটিআই বিভাগীয় কার্যালয়ের কর্মকর্তা প্রকৌশলী জুনায়েদ আহমেদ।

পুলিশ ও আনসার সদস্যরা আইনশৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্ব পালন করেন। আর জনস্বার্থে এই ধরণের অভিযান অব্যহত থাকবে বলে জানিয়েছে বিএসটিআই।


আরও খবর



বেনজীরকে ১৭ দিন সময় দিলো দুদক

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৭০জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:আগামী ২৩ জুন পু‌লি‌শের সাবেক মহাপ‌রিদর্শক (আইজি‌পি) বেনজীর আহমেদকে হাজির হতে নতুন তারিখ ধার্য করেছে দুর্নী‌তি দমন ক‌মিশন (দুদক)।২৩ জুন তাকে জিজ্ঞাসাবা‌দের জন‌্য দিন ধার্য করেছে প্রতিষ্ঠিানটি। বৃহস্পতিবার (৬ জুন) তার দুদকে হাজির হওয়ার থাকলেও আইনজীবীর মাধ্যমে তিনি দুদকের কাছে ১৫ দিন সময় চান।

বৃহস্পতিবার (৬ জুন) বিকেলে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ‌্য জানান সংস্থা‌টির স‌চিব খোরশেদা ইয়াসমীন। তিনি বলেন, জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগের বিষয়ে সাবেক আইজিপি বেনজীর আহমেদকে দুদক তলব করলেও শুনানিতে অনুপস্থিত থাকায় ২৩ জুন নতুন তারিখ ঘোষণা করেছে দুদক।

এর আগে গত ২৮ মে বেনজীর ও তার স্ত্রী-সন্তানদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নোটিশ পাঠায় দুদক। ওই নোটিশে বেনজীরকে ৬ জুন এবং তার স্ত্রী ও সন্তানদের ৯ জুন দুদকে হাজির হয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়। তবে গতকাল বুধবার দুদকের কার্যালয়ে বেনজীরের পক্ষে তার আইনজীবী ১৫ দিনের সময় আবেদন করেন। দুদক সে আবেদন মঞ্জুর করার পর নতুন তারিখ ধার্য করল।

সম্প্রতি এক জাতীয় দৈনিকে সাবেক আইজিপি ও র‌্যাবের সাবেক মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদের বিপুল পরিমাণ অবৈধ সম্পদের নিয়ে সংবাদ প্রকাশিত হয়। এরপর থেকেই বেশ আলোচনায় পুলিশের সাবেক এ শীর্ষ কর্মকর্তা।

জাতীয় ওই দৈনিকে ‘বেনজীরের ঘরে আলাদীনের চেরাগ’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। প্রতিবেদনে তার নানা অর্থ সম্পদের বিবরণ তুলে ধরা হয়।

ওই প্রতিবেদন অনুযায়ী, বেনজীরের বিপুল সম্পদের মধ্যে রয়েছে গোপালগঞ্জের সাহাপুর ইউনিয়নে সাভানা ইকো রিসোর্ট নামের এক অভিজাত ও দৃষ্টিনন্দন পর্যটনকেন্দ্র। এ ছাড়া তার স্ত্রী ও দুই মেয়ের নামে দেশের বিভিন্ন এলাকায় অন্তত ছয়টি কোম্পানির খোঁজ পাওয়া গেছে। পাঁচটি প্রতিষ্ঠানে বিনিয়োগের পরিমাণ ৫০০ কোটি টাকার বেশি হতে পারে।

প্রতিবেদনে আরও দাবি করা হয়, ঢাকার অভিজাত এলাকাগুলোতে বেনজীর আহমেদের দামি ফ্ল্যাট, বাড়ি আর ঢাকার কাছের এলাকায় বিঘার পর বিঘা জমি রয়েছে। দুই মেয়ের নামে বেস্ট হোল্ডিংস ও পাঁচতারা হোটেল লা মেরিডিয়ানের রয়েছে দুই লাখ শেয়ার। পূর্বাচলে রয়েছে ৪০ কাঠার সুবিশাল জায়গাজুড়ে ডুপ্লেক্স বাড়ি, যার আনুমানিক মূল্য কমপক্ষে ৪৫ কোটি টাকা। একই এলাকায় আছে ২২ কোটি টাকা মূল্যের আরও ১০ বিঘা জমি।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




পাকিস্তানে ট্রাক খাদে, নিহত ১৪

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১৭১জন দেখেছেন

Image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:ব্রেক ফেল করে গাড়ি খাদে একই পরিবারের ১৪ জন নিহত হয়েছেন পাকিস্তানে খাইবার-পাখতুনখাওয়া প্রদেশের খুশাব জেলার নওশেরায় । শনিবারের (১৮ মে) এ দূর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে আটজন শিশু রয়েছে। এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও বেশ কয়েকজন।

খুশাবের রেসকিউ ১১২২ ইমার্জেন্সি অফিসার ইঞ্জিনিয়ার রাশেদ জানান, একই পরিবারের ২৩ জন সদস্য বান্নু থেকে নওশেরা (খুশাব) যাওয়ার সময় ব্রেক ফেল করে ট্রাকটি ২০ ফুট গভীর খাদে পড়ে যায়।

মৃতদেহ ও আহতদের নওশেরার টিএইচকিউ হাসপাতালে এবং জোহরাবাদের ডিএইচকিউ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

যাত্রীরা সবাই শ্রমিক শ্রেণির এবং কাজের জন্য খুশাব শহরে যাচ্ছিলেন।

সূত্র: ডন।https://www.dawn.com/news/1834266/14-killed-in-truck-accident-in-punjabs-khushab-district-rescue-1122


আরও খবর



দুই উপজেলার ডিজিটাল প্রতারক নুর হোসেন বরখাস্ত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৩১জন দেখেছেন

Image

মাজহারুল ইসলাম,রৌমারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি:বহুল আলোচিত, বিতর্কিত, প্রতারক দলিল লেখক নুর হোসেনকে আবারো বরখাস্তসহ তিনভাইকে আটক করেন রৌমারী সাব-রেজিস্টার মোহাম্মদ শাহিন। আটকের ৫ ঘন্টা পর তিন ভাইকে রহস্যজনক ভাবে ছেড়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে সাব-রেজিস্টারের বিরুদ্ধে। গত ১১ জুন মঙ্গলবার সন্ধ্যার দিকে কুড়িগ্রাম জেলার রৌমারী উপজেলার সাব-রেজিস্টার কার্যালয় এ ঘটনাটি ঘটেছে। এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনার ঝড় উঠেছে।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, কড়াইকান্দি গ্রামের বাসিন্দা রহিম বাদশা, সাইদুর রহমানসহ তিন সহোদর ভাই। তাদের আরেক বোনকে বাদ দিয়ে গোপনে অন্যের কাছে ২৬ শতক জমি বিক্রয় করেন। পরে নামজারি ছাড়াই গোপনে প্রতারণা মুলক জাল দলিল লেখা সম্পন্ন করেন। বিকাল ৩ টার দিকে ওই জাল দলিলসহ অন্যান্য কাগজপত্রাদি সাব-রেজিস্টার মোহাম্মদ শাহিন এর কাছে জমা দেন। কাগজপত্রাদি দেখে সাব-রেজিস্টারের সন্দেহ হলে রহিম বাদশাসহ তিনভাইকে জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায় তাদেরকে আটক করা হয়। পাশাপাশি দলিল লেখক নুর হোসেনকেও জিজ্ঞাবাদ করা হয়। 

জমির এক শরীককে বাদ দিয়ে ও নামজারি ছাড়াই ২৬ শতক জায়গা অন্যের নামে জাল দলিল তৈরি করে জমি রেজিস্ট্রি করার চেষ্টা অপরাধে রৌমারী উপজেলায় প্রতারক নুর হোসেন সহ তিনভাইকে আটক করেন সাব-রেজিস্টার মোহাম্মদ শাহিন। জিজ্ঞাসাবাদে জাল দলিলের বিষয়ে আনিত অভিযোগের সত্যতা পান উপজেলা সাব-রেজিস্টারা মোহাম্মদ শাহিন। পরে জেলা সাব-রেজিস্টারের সাথে আলোচনা সাপেক্ষে দলিল লেখক নুর হোসেনকে দুই মাসের জন্য বরখাস্ত করা হয়। অপর অভিযুক্ত তিনভাইকে রহস্যজনক কারনে রাতের অন্ধকারে ছেড়ে দিয়েছে বলে জানা গেছে।

আটককৃত তিনসহোদর হলেন রহিম বাদশা, সাইদুর রহমান ও অঞ্জাত আরেকজন। তারা উভয়ে উপজেলার রৌমারী সদর ইউনিয়নের কড়াইকান্দি গ্রামের আব্দুল হামিদের ছেলে বলে জানা যায়। 

এব্যাপারে উপজেলা সাব-রেজিস্টার মোহাম্দ শাহিন জানান, কর্তৃপক্ষের নির্দেশে দলিল লেখককে দুই মাসের জন্য বরখাস্ত করা হয়েছে এবং জমির মালিক তিনভাইকে মানবিক চিন্তা করে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।  

উল্লেখ্য যে, ঘটনাক্রমে জানা যায়, প্রতারক নুর হোসেন উপজেলার রৌমারী সদর ইউনিয়নের কোনাচীপাড়া গ্রামের ৯ নং ওয়ার্ডের একজন স্থায়ী বাসিন্দা। তিনি রাজিবপুরে শশুর বাড়ির সুত্রে প্রশাসনকে ফাঁকি দিয়ে দুই উপজেলায় দীর্ঘদিন ধরে দলিল লেখক হিসেবে কাজ করে আসছিলেন। ইতিপূবে রাজিবপুর উপজেলায় প্রতারণা করে ভুয়া দলিল করার কারনে এলাকাবাসিসহ তার বিরুদ্ধে বিক্ষোভ মিছিল ও অফিস ঘেরাও করেছিল। পরে স্থানীয় পুলিশ তাকে থানায় নিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। পরে ওই অভিযুক্ত নুর হোসেনকে ৬ মাসের জন্য সাময়িক ভাবে বরখাস্ত করা হয়েছিল। একইভাবে আবারো রৌমারীতে জাল দলিল করার ঘটনা ঘটিয়েছেন তিনি। 


আরও খবর