Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪
শিরোনাম

‘সরকার ২০১৮ সালের মতো নির্বাচন করার দিবাস্বপ্ন দেখছে’

প্রকাশিত:শনিবার ১৮ মার্চ ২০২৩ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ২৩১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক ;জাতীয়তাবাদী সমমনা জোটের সমন্বয়ক ও এনপিপির চেয়ারম্যান ড. ফরিদুজ্জামান ফরহাদ বলেছেন, সরকার ২০১৮ সালের মতো একটি প্রহসনের নির্বাচন করার দিবাস্বপ্ন দেখছে। সরকারকে বলব, ওই ধরনের নির্বাচন করার স্বপ্ন ভুলে যান। দলীয় সরকারের অধীনে এদেশে আর কোনো নির্বাচন হবে না,  জনগণ এ ধরনের নির্বাচন হতে দেবে না। তাই সময় থাকতে পদত্যাগ করে নির্দলীয় সরকারের অধীনে ক্ষমতা হস্তান্তর করুন। অন্যথায় জনগণকে নিয়ে আন্দোলনের মাধ্যমে পদত্যাগে বাধ্য করা হবে।

সরকার বিরোধী যুগপৎ আন্দোলনের অংশ হিসেবে আজ শনিবার রাজধানীর বিজয়নগরে আল রাজি কমপ্লেক্সের সামনে এক সমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন। ১০ দফা দাবি আদায়ে জাতীয়তাবাদী সমমনা জোটের উদ্যোগে এই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

ফরিদুজ্জামান ফরহাদ বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ নেতাকর্মীদের মুক্তি দিতে হবে, আলেম-ওলামাদের মুক্তি দিতে হবে, বিরোধীদলের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা প্রত্যাহার করতে হবে।

দেশে এখন ডিজিটাল কায়দায় একদলীয় শাসন চলছে বলে মন্তব্য করেন জাতীয়তাবাদী সমমনা জোটের এই সমন্বয়ক।

নির্দলীয়-নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনসহ ১০ দফা দাবি বাস্তবায়ন না হওয়া আন্দোলন চলবে বলেও জানান ফরহাদ।

জাগপার সাধারণ সম্পাদক এস এম শাহাদাতের সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন জাগপার সভাপতি খন্দকার লুৎফর রহমান, গণদলের চেয়ারম্যান এটিএম গোলাম মাওলা চৌধুরী, বাংলাদেশ ন্যাপের চেয়ারম্যান এম এন শাওন সাদেকী, বাংলাদেশ মাইনরিটি জনতা পার্টির সভাপতি সুকৃতি কুমার মণ্ডল, সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক ডা. নুরুল ইসলাম, এনপিপির মহাসচিব মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তফা, জাগপার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আওলাদ হোসেন শিল্পী, গণদলের মহাসচিব আবু সৈয়দ, যুগ্ম মহাসচিব নুরুল কাদের চৌধুরী, বাংলাদেশ ন্যাপের মহাসচিব ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল বারিক, যুগ্ম মহাসচিব আবু মেহেদী প্রমুখ।


আরও খবর



ভূমিহীন হতদরিদ্র পরিবারের বাড়িঘর অধিগ্রহণ না করে পার্শ্ববর্তী নালজমি অধিগ্রহণ করার দাবিতে মানববন্ধন

প্রকাশিত:রবিবার ৩১ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ এপ্রিল ২০২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ পিরোজপুর জেলার নাজিরপুর উপজেলায় ছোট বুইছাকাঠি মৌজায় সাড়ে ৪২ শতাংশ ভূমি নাজিরপুর টেক্সটাইল ভোকেশনাল ইনস্টিটিউট স্থাপনের জন্য অধিক গ্রহণের আওতায় পড়ে। ওই জমিতে বসবাসকারী হতদরিদ্র পরিবারগুলো তাদের বাড়িঘর অধিগ্রহণ না করে পাশের নাল জমি অধিগ্রহণের দাবি জানিয়েছেন। এই দাবিতে বস্ত্র অধিদপ্তর বরাবর লিখিত আবেদনও করেছেন ভুক্তভোগী পরিবারগুলো। ভুক্তভোগী পরিবারগুলোর দাবি এসব জমি ছাড়া তাদের মাথা গোজার অন্য কোথাও কোন ঠাঁই নেই। এসব অসহায় খেটে খাওয়া মানুষগুলো দিশেহারা হয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, বস্ত্র অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, বাংলাদেশ সচিবালয়ে লিখিত আবেদনের পাশাপাশি হাইকোর্টেও আবেদন করেন। উচ্চ আদালত থেকে দুই মাসের মধ্যে এসব ভুক্তভোগীদের ঘরবাড়ি অধিগ্রহণ থেকে অব্যাহতি প্রদান করে পাশের নাল জমি অধিগ্রহণ করে আদালতকে অবহিত করার নির্দেশ প্রদান করে। কিন্তু স্থানীয় জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা আদালতের নির্দেশ আমলে না নিয়ে পূর্ব অবস্থা বজায় রেখেছেন। এই কারণে ভুক্তভোগী পরিবার গুলোর পক্ষে পরিচ্ছন্ন কর্মী মোসাম্মৎ বিউটি বেগম, একই এলাকার রফিক খান, আব্দুল জলিল, আলেয়া বেগম এই লিখিত আবেদন বস্ত্র অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবর দাখিল করেন। ভুক্তভোগী পরিবার গুলোর দাবি এই জমি থেকে তাদেরকে অধিগ্রহণের মাধ্যমে উচ্ছেদ করা হলে তাদের মাথা বোঝার কোন থাই থাকবে না। তাই বিষয়টি মানবিক বিবেচনার অনুরোধ জানান ভুক্তভোগী পরিবারগুলো। স্থানীয় জেলা প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে ঘুরে ঘুরে ও কুল কিনারা না হওয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে এই বিষয়ে হস্তক্ষেপের আবেদন জানিয়েছেন ভুক্তভোগী পরিবারগুলো। জাতীয় প্রেসক্লাবে এই বিষয়ে একটি মানববন্ধনেরও আয়োজন করেন তারা।


আরও খবর



প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়ার নারী ক্রিকেটারদের সাক্ষাৎ

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১২৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাক্ষাৎ করেছেন সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ সফরে আসা অস্ট্রেলিয়া ও স্বাগতিক বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়দের সঙ্গে।

বুধবার (৩ এপ্রিল) প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন গণভবনে সাক্ষাৎকালে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রী এবং বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন, বাংলাদেশে নিযুক্ত অস্ট্রেলিয়ার ভারপ্রাপ্ত হাইকমিশনার নার্দিয়া সিম্পসন এবং বিসিবি পরিচালক ও নারী ক্রিকেট বিভাগের চেয়ারম্যান শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল (এমপি) উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে যাওয়া নারী ক্রিকেটাররা ফুল দিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে শুভেচ্ছা জানান। এছাড়া অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটারদের স্বাক্ষর সম্বলিত একটি জার্সি প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেওয়া হয়। প্রধানমন্ত্রীও দুই দলের খেলোয়াড়দের হাতে উপহার তুলে দেন।

বিসিবির নারী বিভাগের চেয়ারম্যান নাদেল পরে জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী দেশের নারী ক্রিকেটারদের উন্নত প্রশিক্ষণের জন্য অস্ট্রেলিয়া পাঠাতে চেয়েছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী ক্রিকেটারদের উৎসাহিত করেছেন। হেসে বলেছেন তোমাদের অস্ট্রেলিয়া পাঠাব, ওখানে ট্রেনিং করবা।

ওয়ানডে ও টি-২০ সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ সফরে এসেছে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া নারী ক্রিকেট দল। ওয়ানডে সিরিজে ৩-০ ব্যবধানে সিরিজ জয়ের পর টি-২০ সিরিজে এক ম্যাচ হাতে রেখে সিরিজ নিশ্চিত করে ফেলেছে তারা।


আরও খবর



জনগণের সেবা নিশ্চিত করলে ভবিষ্যতে ভোটের চিন্তা থাকবে না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৪ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১৩৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:জনগণের সেবা নিশ্চিত করতে পারলে ভবিষ্যতে ভোটের চিন্তা থাকবে না,বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা । জনগণের উন্নয়নের লক্ষ্য নিয়েই কাজ করে আওয়ামী লীগ। লক্ষ্য স্থির রেখে পরিকল্পনার জন্যই দেশে দারিদ্র্যতা হ্রাস পেয়েছে।

বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) কুমিল্লা ও ময়মনসিংহ সিটির মেয়র কাউন্সিলরদের শপথ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

শেখ হাসিনা বলেন, চিকিৎসাসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে দেওয়ার জন্য জাতির পিতা প্রথমে ইউনিয়ন পর্যায়ে দশ শয্যার হাসপাতাল তৈরি করার ব্যবস্থা নিয়েছিলেন। তিনি সম্পন্ন করতে পারেননি। আমি সরকারে আসার পর কমিউনিটি ক্লিনিক করলাম। স্থানীয় লোক সেখানে জমি দেয়, আমরা ভবনের ব্যবস্থা করা, চিকিৎসার সরঞ্জামের ব্যবস্থা করা, স্বাস্থ্যকর্মী প্রশিক্ষণ দিয়ে সেখানে নিয়োগ দেই। ৩০ ধরনের ওষুধ আমরা বিনামূল্যে দিচ্ছি।

তিনি বলেন, আপনারা জনপ্রতিনিধি হিসেবে এসবের দিকে নজর দেবেন। স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলো সঠিকভাবে চলছে কিনা তার খবর রাখবেন। মানুষ চিকিৎসা সেবা পাচ্ছে কিনা। মানুষ সেবা পাওয়াটাই বড় কথা।

নবনির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা জনগণের ভোটে নির্বাচিত। জনগণের সেবা নিশ্চিত করতে পারলে ভবিষ্যতে ভোটের কোনো চিন্তা থাকবে না। মানুষ আপনাদের ওপর আস্থা রাখবে, বিশ্বাস রাখবে। এই কথাটা আপনারা মাথায় রাখবেন। জনসেবার দিকে বিশেষ দৃষ্টি দেবেন, সেটাই আমরা চাই।

এর আগে প্রধানমন্ত্রীর কাছে শপথ নেন ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র ইকরামুল হক (টিটু) ও কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের মেয়র ডা. তাহসীন বাহার সূচনা। এ সময় শপথ নেন কুড়িগ্রাম, ঠাকুরগাঁও, সিরাজগঞ্জ, ব্রাক্ষণবাড়িয়া ও হবিগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান। এ ছাড়া স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলামের কাছে শপথ নেন ময়মনসিংহ সিটির ৪৪ জন কাউন্সিলর।


আরও খবর



নতুন দুই সেতু ও ৮ ওভারপাসের চলাচলের জন্য উন্মুক্ত

প্রকাশিত:শনিবার ০৬ এপ্রিল ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ১৭ এপ্রিল ২০২৪ | ৭৪জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের মেঘনা টোল প্লাজায় ১২টি বুথে ইলেকট্রনিক টোল কালেকশন (ইটিসি) কার্যক্রম চালু করা হয়েছে। অন্যদিকে এলেঙ্গা-হাটিকমরুল-রংপুর মহাসড়কে নির্মিত একটি রেল ওভারপাস, ৭টি ওভারপাস ও দু’টি সেতু যানবাহন চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করেছেন।

শনিবার (৬ এপ্রিল) সকালে সচিবালয়ে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এক অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে এগুলো উন্মুক্ত করেন তিনি।

পরে সেতুমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, ঘরমুখো যাত্রীদের নির্বিঘ্নে যাতায়াতের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে জনগণের জন্য ঈদ উপহার হিসেবে এসব উন্মুক্ত করা হলো।

ওবায়দুল কাদের বলেন, রাস্তায় গাড়ির চাপ রয়েছে, তবে যানজট নেই। রাজধানীতেও যানজট নেই। এ সময় বান্দরবানে চলমান সমস্যা নিয়েও কথা বলেন মন্ত্রী। তিনি বলেন, বান্দরবানে এখন যৌথ অভিযান চলছে। শিগগিরই এসব নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে। ‘পাহাড়ের সর্বত্র অনেক রাস্তা ও সেতু নির্মাণ হলেও এখনো অনেক বিচ্ছিন্ন এলাকা রয়েছে। শিগগিরই এসব বিষয় নিয়ন্ত্রণে আসবে বলে আশা করছি’, যোগ করেন কাদের।


আরও খবর



সরকার ২৩ নাবিককে উদ্ধারে অনেক দূর এগিয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৮ মার্চ ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৮ এপ্রিল ২০২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:সোমালিয়ার জলদস্যুদের হাতে ভারত মহাসাগরে ২৩ নাবিকসহ জিম্মি বাংলাদেশি জাহাজ এমভি আবদুল্লাহ মুক্ত করার বিষয়ে সরকার অনেক দূর এগিয়েছে,বলেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

তিনি বলেন, আমরা যোগাযোগের মধ্যে আছি। নাবিকদেরকে রিলিজ করার করার জন্য আমরা নানামুখী তৎপরতা চালাচ্ছি। আমাদের উদ্দেশ্য হচ্ছে, নাবিকদের আনহার্ট (কোনো ক্ষতি যেন না হয়) অবস্থায় উদ্ধার করা এবং একইসঙ্গে জাহাজটা উদ্ধার করা।

বৃহস্পতিবার (২৮ মার্চ) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সমসাময়িক বিষয়ে করা ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ তথ্য জানান মন্ত্রী।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, খাদ্য সংকট অতীতে যখন জাহাজ হাইজ্যাক হয়েছে তখনও হয়নি। তিন বছর ছিল তখনও হয়নি, ১০০ দিন ছিল তখনও হয়নি। আশা করি এক্ষেত্রেও হবে না।

এদিকে, সীমান্ত হত্যা বন্ধে আগেই বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভারতকে অনুরোধ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, ২ বাংলাদেশি ভারত সীমান্তে অবৈধভাবে ঢুকে পড়েছিল, তাই বিএসএফ গুলি করে। বিজিবি এর প্রতিবাদ জানিয়েছে, পতাকা বৈঠক হয়েছে। তবে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এ ঘটনায় এখনো কোনো প্রতিবাদ জানানো হয়নি বলে জানান মন্ত্রী।


আরও খবর