Logo
আজঃ Wednesday ২৫ May ২০২২
শিরোনাম

সংবাদ প্রকাশের জের,নাসিরনগর নির্বাচন অফিসের কর্মচারীর তাৎক্ষনিক বদলী হলে ও কর্মকর্তা বহাল তবিয়তে

প্রকাশিত:Monday ২৪ January ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ২০৯জন দেখেছেন
Image


মোঃ আব্দুল হান্নান,

ব্রাক্ষনবাড়িয়া জেলার নাসিরনগর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্য্যালয়ের বিভিন্ন অনিয়ম দুর্নীতির সংবাদ দৈনিক সমকার,দৈনিক যুগান্তর,দৈনিক আজকের পত্রিকা,দৈনিক কুরুলিয়া সহ একাধিক জাতীয়,স্থানীয় পত্রিকায়,বিভিন্ন অনলাইন ও সামাজিকযোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রকাশিত হবার পর নাসিরনগর উপজেলা নির্বাচন অফিসের অফিস সহকারী কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক মো. আবু সুফিয়ানকে বদলি করা হলেও কর্মকর্তা রয়েছে বহাল তবিয়তে।


রোববার কুমিল্লা অঞ্চলের আঞ্চলিক কর্মকর্তা মো. দুলাল তালুকদার স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ বদলির আদেশ দেওয়া হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়।আবু সুফিয়ান কে নাসিরনগর থেকে সরাইলে বদলি করা হয়েছে বলে জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় সুত্রে জানা গেছে।


গত শনিবার নাসিরনগর নগর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয়ের বিভিন্ন অনিয়ম দুর্নীতির সংবাদ একাদিক পত্রিকা ও অনলাইনে প্রকাশিত হয়।সংবাদে বলা হয়, নাসিরনগর সদর ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোক্তা মোঃ মিজান, ভলাকুটের রইস খান, পূর্বভাগের পারভেজ, সদরের বিকাশ ও হরিপুরের তারেক- এই পাঁচজন নির্বাচন অফিসারের সঙ্গে আঁতাত করে সেবাপ্রত্যাশীদের কাছ থেকে বিপুল অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে।


প্রতিটি নতুন এনআইডি কার্ড করতে ২০ হাজার থেকে শুরু করে সর্বনিম্ন পাঁচ হাজার টাকা, সংশোধনের জন্য ক্যাটাগরিভেদে পাঁচ থেকে ৩০ হাজার টাকা নেন।আশুরাইল গ্রামের সায়েম মিয়া জানান,তার আইডি কার্ডের বয়স ও নামের ভূল সংশোধনের জন্য নির্বাচন অফিসে গেলে সেই অফিসে কাজ করে একজন তার নিকট সেই কাজের জন্য ৩৫ হাজার টাকা দাবী করে।এমন অনিয়ম দুর্নীতির সংবাদ প্রকাশের পরদিনই রোববার অফিস সহকারী আবু সুফিয়ানকে বদলির আদেশ দেওয়া হয়। তাকে নাসিরনগর থেকে সরাইল উপজেলা নির্বাচন অফিসে ২৫ জানুয়ারির মধ্যে যোগদানের জন্য বলা হয়েছে। জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা জিল্লুর রহমান জানান, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে তিনি বিষয়টি জানিয়েছেন।


-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 


আরও খবর



ফেরিতে জুয়ার আসর বসানোর দায়ে চার জুয়ারী আটক

প্রকাশিত:Saturday ২১ May ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ৯৫জন দেখেছেন
Image

এ আর হনিফঃ

রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া ও মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া নৌপথে চলাচলরত ফেরিগুলোতে জুয়ারীদের উপদ্রব বেড়েছে।



 এসব জুয়াড়িরা ফেরিতে জুয়া খেলার আয়োজন করে নিঃস্ব করছে যাত্রী ও চালকদের। 


শুক্রবার (২০ মে) দিবাগত রাতে দৌলতদিয়ার ৫নং ঘাট থেকে ছেড়ে যাওয়া রো রো ফেরি কেরামত আলী মাঝ নদীতে পৌঁছালে যাত্রী বেশে থাকা নৌ-পুলিশ চার জুয়াড়িকে গ্রেফতার করে।


তারা হলেন- গোয়ালন্দ উপজেলার উত্তর দৌলতদিয়া সিদ্দিক কাজীপাড়া এলাকার মৃত মোবারক মোল্লার ছেলে বরকত মোল্লা (৪২), উত্তর দৌলতদিয়া ঢল্লাপাড়া এলাকার মৃত নবু খাঁর ছেলে নুরু খাঁ (৫৩), বাহিরচর দৌলতদিয়া শাহাদৎ মেম্বারপাড়া এলাকার অকেল মোল্লার ছেলে উসমান মোল্লা (৫৪) ও একই গ্রামের মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে সাগর হোসেন (৩৭)।


গ্রেফতার জুয়াড়িদের দেওয়া ভাষ্যমতে একই গ্রামের মৃত মোহন সিকদারের ছেলে রেজাউল সিকদারও (৩০) ফেরিটিতে ছিলেন। তবে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে আগেই পালিয়ে যান।


 এ সময় পুলিশ তাদের কাছ থেকে তাস, কুপি বাতি, জুয়া খেলার একটি বোর্ড ও নগদ টাকা জব্দ করে। তাদেরকে আজ দুপুরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে এক মাস করে বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আজিজুল হক খান।


পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, তারা দীর্ঘদিন ধরে নেশা ও জুয়ার সঙ্গে জড়িত। এর মধ্যে উসমান মোল্লা ফেরিতে জুয়া খেলার সময় পুলিশের হাতে গ্রেফতার হলে ভ্রাম্যমাণ আদালত তাকে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছিলেন। কারাগার থেকে গত বৃহস্পতিবার বের হয়ে আবার ফেরিতে জুয়া খেলা শুরু করেন।


ঘাট সংশ্লিষ্টরা জানান, প্রায় রাতে ঘাট থেকে ছেড়ে যাওয়া ফেরি মাঝ নদীতে পৌঁছলে ইঞ্জিন চালিত নৌকা থেকে তারা ফেরিতে উঠে পড়ে। 


ফেরির এক কোনায় কুপি বাতি জ্বালিয়ে প্রথমে নিজেরা ৪-৫ জন বসে তাস নিয়ে খেলা শুরু করে। এ সময় যাত্রী বা গাড়ি চালক খেলায় আগ্রহ দেখালে সংঘবদ্ধ সদস্যরা টাকা পয়সা, মূল্যবান জিনিসপত্র কেড়ে নেয়। কেউ এগিয়ে গেলে ধারালো ছুরি বা চাকু দিয়ে আঘাত করে দ্রুত নৌকা নিয়ে সটকে পড়ে।


দৌলতদিয়া নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক সৈয়দ জাকির হোসেন বলেন, ‘শুক্রবার রাত পৌনে ১২টার দিকে দৌলতদিয়ার ৫নং ঘাট থেকে ছাড়া কেরামত আলী রো রো ফেরিতে জুয়াড়ি চক্রের সদস্যরা উঠছে সংবাদ পেয়ে যাত্রী বেশে কয়েকজন পুলিশ আগে থেকে অবস্থান নেয়। ফেরিটি কিছু দূর যেতেই কুপি বাতি জালিয়ে জুয়া খেলা শুরু করলে হাতেনাতে চার জনকে আটক করি।’


তিনি আরও বলেন, ‘এরা নেশার সঙ্গে জড়িত থাকায় টাকা জোগাড় করতে এ ধরনের কাজে জড়িয়ে পড়ে। এ ক্ষেত্রে প্রতিটি ফেরিতে পুলিশ দেওয়া সম্ভব হয় না। যে ফেরিতে পুলিশ থাকে না নিশ্চিত হওয়ার পর ওই ফেরিতেই জুয়ার আসর বসায়। এ ছাড়া যে ফেরিতে তারা জুয়ার আসর বসায়, সেই ফেরিতে থাকা ডিম বিক্রেতা, ঝাল মুড়ি বিক্রেতাসহ বিভিন্ন হকাররা জুয়াড়িদের গোপনে খবর আদান প্রদান করে। বিনিময়ে জুয়াড়িরা হকারদের কিছু টাকা দেয়।’



আরও খবর



শ্রীলঙ্কায় তুমুল বিক্ষোভের মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ

প্রকাশিত:Monday ০৯ May ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ৭৮জন দেখেছেন
Image

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ

শ্রীলঙ্কায় তুমুল বিক্ষোভের মধ্যে পদত্যাগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে।


সোমবার তিনি পদত্যাগ করেন বলে তার মুখপাত্র রোহান ওয়েলিউইটার বরাত দিয়ে জানিয়েছে দেশটির স্থানীয় গণমাধ্যম।


মাহিন্দা রাজা পাকসে সমর্থক ও সরকারবিরোধীদের মধ্যে সংঘর্ষের পর তিনি পদত্যাগ করেন। ওই সংঘর্ষে ৭৮ জন আহত হন।


এরপর দেশটিতে কারফিউ জারি করা হয়


৭৬বছর বয়সী মাহিন্দা তার পদত্যাগপত্র ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষের কাছে পাঠান।



গত শুক্রবার প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে তার ভাইকে চলমান রাজনৈতিক সংকট সমাধানের জন্য পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর কথা জানিয়েছিলেন।


গত এপ্রিল থেকে শ্রীলংকায় অর্থনৈতিক সংকট শুরু হয়।


বৈদেশিক ঋণে জর্জরিত দেশটি নিজেকে ‘অর্থনৈতিকভাবে দেউলিয়া’ ঘোষণা করে। এরপর থেকেই প্রধানমন্ত্রী রাজাপক্ষের পদত্যাগের দাবি জোরদার হয়।  


শ্রীলঙ্কায় অর্থনৈতিক সংকটের কারণে রাজনৈতিক অস্থিরতার মধ্য দিয়ে রাজা পাকসে পদত্যাগ করলেন।


আরও খবর



মুগদা থানার ওসি ও সাভারের এক ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশিত:Monday ১৬ May ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ১০১জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ

রাজধানীর মুগদা থানার পরিদর্শক (ওসি) জামাল উদ্দিন মীর ও সাভারের বনগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলামসহ নয়জনের নামে ধর্ষণ ও মানবপাচারের অভিযোগে মামলা করেছেন এক নারী।  


সোমবার (১৬ মে) বিকেলে মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করে ঘটনার বিস্তারিত বর্ণনা দিয়েছেন ভুক্তভোগী নারী।


গত মাসে ঢাকার মানবপাচার ট্রাইব্যুনালে মামলাটি করেছেন তিনি, যা সম্প্রতি জানাজানি হয়েছে।


ভুক্তভোগী নারীর অভিযোগ, ঢাকার মুগদা থানার ৪৬/বি-১ উত্তর মানিকনগরের বাসায় গত ২৯ মার্চ দুপুরে তাকে ধর্ষণ করা হয়।


পরে থানায় ঘুরে অভিযোগ নথিভূক্ত করতে ব্যর্থ হয়ে ১০ এপ্রিল আদালতে পিটিশন মামলা রুজু করেন।  


ভুক্তভোগী নারীর আইনজীবী জাকির হোসেন হাওলাদার  বলেন, মানবপাচার ও ধর্ষণের অভিযোগে মামলা রুজু করা হয়েছে।


সিআইডিকে তা তদন্ত করে প্রতিবেদন দিতে বলেছেন আদালত।


ভুক্তভোগী নারী  বলেন, বনগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম মুগদা এলাকায় একটি বাসায় মদের আসর বসান।


আঙ্গুরী নামের এক নারীর মাধ্যমে তাকে ওই বাসায় ডেকে নিয়ে জোরপূর্বক মদ্যপান করানো হয়। পরে তিনি অচেতন হয়ে পড়লে সাইফুল চেয়ারম্যানসহ কয়েকজন মিলে তাকে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। এ বিষয়ে সেই এলাকার থানায় ঘোরাঘুরি করলেও মামলা নেইনি পুলিশ।


তার অভিযোগ, বিবাদীরা মানব পাচারকারী চক্রের সঙ্গে জড়িত এবং কালো টাকা উপার্জনকারী, নারী লোভী ও পতিতা ব্যবসায়ী।


মামলার আসামিরা হলেন- বনগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম, জাভেদ হোসেন পাপন, মোখলেছ, আনিসুর রহমান রতন, জসিম, কবির হোসেন মিরাজ, আলাউদ্দিন, আনোয়ারা বেগম আঙ্গুরি ও মুগদা থানার পরিদর্শক (ওসি) জামাল উদ্দিন মীর। মামলায় ১৩ জনকে সাক্ষী করা হয়েছে।


জানা গেছে, মামলা আমলে না নেওয়ায় থানার ওসিকে বিবাদি করা হয়েছে। সাক্ষী করা হয়েছে মুগদা জোনের এসি ও থানার এসআইকে। আদালতের নির্দেশ পেয়ে তদন্ত শুরু করেছে ক্রাইম ইনভেস্টিকেশন ডিপার্টমেন্ট (সিআইডি)। তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বাদির বক্তব্য নিয়েছেন। আসামিদের আটকের চেষ্টা চলছে।



আরও খবর



রাস্তা পারাপারের সময় পিকআপের চাপায় পথচারীর মৃত্যু

মাদারীপুরে লিচু বোঝাই পিকাপের চাপায় পথচারীর মৃত্যু

প্রকাশিত:Monday ২৩ May ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ৭০জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ

মাদারীপুর জেলা শহরের ইটের পুল এলাকায় পিকআপ ভ্যানচাপায় সুলতান (৩৫) নামে এক পথচারীর মৃত্যু হয়েছে।  


সোমবার (২৩ মে) সকালে শহরের ইটেরপুল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।


নিহত সুলতান জয়পুরহাট জেলার ক্ষেতলাল উপজেলার বাসিন্দা।


মাদারীপুর সদর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এ এইচ এম সালাউদ্দিন জানান, সকালে ইটেরপুল এলাকায় রাস্তা পার হচ্ছিলেন সুলতান।


এসময় রাজশাহী থেকে শরিয়তপুরগামী লিচুবোঝাই একটি পিকআপ ভ্যান সুলতানকে চাপা দিলে তিনি গুরুতর আহত হন। এ অবস্থায় সুলতানকে জেলা সদর হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।




আরও খবর



বঙ্গোপসাগরে জাহাজ ডুবি

বঙ্গোপসাগরে গম বোঝাই জাহাজ ডুবি

প্রকাশিত:Wednesday ১৮ May ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ২৫ May ২০২২ | ১২২জন দেখেছেন
Image

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ

বঙ্গোপসাগরে প্রায় ৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকার গমসহ  ডুবে গেছে লাইটার জাহাজ ‘এমভি তামিম’।  


বুধবার (১৮ মে) বিকেল ৩টার দিকে জাহাজটি রামগতি পাইলট বিচের নিচে তিল্লার চর এলাকায় ডুবে যায়।


আগের দিন মঙ্গলবার সকালে চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙরে অবস্থানরত বড় জাহাজ ‘এমভি প্রোফেল গ্রেস’ থেকে প্রায় ১ হাজার ৬০০ টন গম বোঝাই করে ঢাকার নাবিল অটো ফ্লাওয়ার মিলের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করেছিল জাহাজটি। 


দুর্ঘটনার পর জাহাজটির ১২ জন নাবিককে অপর একটি জাহাজ এসে উদ্ধার করেছে।


এমভি তামিম জাহাজটি ওয়াটার ট্রান্সপোর্ট সেলের (ডব্লিউটিসি) সিরিয়ালে পরিচালনা করছিল সমতা শিপিং অ্যান্ড লজিস্টিকস। সমতার কর্মকর্তা জামাল হোসেন  জানান, চলার পথে পানির নিচে অদৃশ্য বস্তুর সঙ্গে লেগে জাহাজের সামনের হেজ ফেটে যায়।


এ সময় হেজে পানি ঢুকে যায়। পরে মাঝের ও সামনের হেজেও পানি ঢুকে জাহাজটি ডুবে যায়।


শুধু জাহাজের ব্রিজ দেখা যাচ্ছে। নাবিকদের নিরাপদে উদ্ধার করা হয়েছে।  




আরও খবর