Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪
শিরোনাম

রাজধানীর নয়াপল্টনে ভিওআইপি ব্যবসার সরঞ্জামসহ গ্রেপ্তার ১

প্রকাশিত:সোমবার ১০ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৭৭জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসার সরঞ্জামসহ একজনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব রাজধানীর নয়াপল্টনের একটি বহুতল ভবনের ফ্ল্যাট থেকে। এসময় ৩০ হাজারের অধিক অবৈধ সিমকার্ড ও বেশকিছু রাউটারসহ ভিওআইপি ব্যবসার কাজে ব্যবহৃত বিভিন্ন ধরনের কম্পিউটার সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়।

সোমবার (১০ জুন) অভিযানের পর ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান র‌্যাব-৩ এর অধিনায়ক।

তিনি জানান, এর মাধ্যমে ফাঁকি দেওয়া হতো বিপুল অংকের রাজস্ব।

অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসার কার্যক্রম সম্পর্কে তথ্য পেয়ে সোমবার সকালে রাজধানীর নয়াপল্টনের ৬৩ নম্বর বহুতল ভবনের একটি ফ্ল্যাটে অভিযান চালায় র‌্যাব-৩ এর একটি টিম। কয়েক ঘণ্টার অভিযানে উদ্ধার করা হয় ৩০ হাজারেরও বেশি অবৈধ মোবাইল সিমকার্ড ও বেশ কয়েকটি রাউটারসহ ভিওআইপি ব্যবসার কাজে ব্যবহৃত কম্পিউটার সরঞ্জামাদি।

র‌্যাব জানায়, কয়েক বছর ধরে ভবনটি ভাড়া নিয়ে অবৈধভাবে দেশের বাইরের মোবাইল কল ইন্টারনেটের মাধ্যমে দেশে পরিচালনা করতেন সাইফুল। এর মাধ্যমে সরকারের বিপুল অংকের রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে সাইফুল প্রতি মাসে অবৈধভাবে আয় করতেন প্রায় পাঁচ লাখ টাকা। তাকে গ্রেপ্তারের পর প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে উঠে আসে এসব তথ্য।

র‌্যাব-৩ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল ফিরোজ কবির জানান, কয়েক বছর আগে গুলিস্তানের পাতাল মার্কেটের মোবাইলের দোকানের এক কর্মচারীর কাছ থেকেই অবৈধ ভিওআইপি ব্যবসার হাতেখড়ি সাইফুলের। বিভিন্ন সিমের দোকান থেকে গ্রাহকদের ফিঙ্গারপ্রিন্ট প্রতারণার মাধ্যমে এই সিমগুলো সংগ্রহ করা হত।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




কুমিল্লায় স্কুল ব্যাংকিং কনফারেন্স ২০২৪ অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ২৮জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনায় স্কুল শিক্ষার্থীদের আর্থিক অন্তর্ভুক্তিতে উৎসাহিতকরণ এবং তাদের মধ্যে সঞ্চয়ের মনোভাব গড়ে তোলার লক্ষে কুমিল্লায় অনুষ্ঠিত হয়ে গেছে স্কুল ব্যাংকিং কনফারেন্স। কুমিল্লার ঢুলীপাড়া ফানটাউন মিলনায়তনে ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক পিএলসি (ইউসিবি) এর সার্বিক তত্বাবধানে কুমিল্লার ৪৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং ৪৪টি ব্যাংকের কর্মকর্তাদের নিয়ে দিনব্যাপী ওই কনফারেন্স অনুষ্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংক এর পরিচালক (চট্টগ্রাম অফিস) মোহাম্মদ বদিউজ্জামান দিদার, বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ ব্যাংক (প্রধান কার্যালয়) এর অতিরিক্ত পরিচালক প্রজ্ঞা পারমিতা সাহা। বিশেষ অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন কুমিল্লার সহকারি জেলা শিক্ষা অফিসার রিক্তা বড়ুয়া, ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক পিএলসি কর্পোরেট হেড অফিসের হেড অব ট্রান্সজেকশান ব্যাংকিং মো: সেকান্দার ই আজম, এসইভিপি।

বক্তারা বলেন, সারা বাংলাদেশে প্রায় ৪৩ লাখ শিক্ষার্থী স্কুল ব্যাংকিং করেন। তাদের সঞ্চিত আমানত প্রায় দুই হাজার দুইশ কোটি টাকা। যেহেতু দেশের বড় একটি অংশ শিক্ষার্থী সুতরাং তাদেরকে অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করতে পারলে দেশের আর্থিক অগ্রগতি বাড়বে, দেশের উন্নয়ন হবে। পাশাপাশি শিক্ষার্থীরা সঞ্চয়ী মনোভাব নিয়ে বেড়ে উঠতে পারবে। অনুষ্ঠান শেষে আমন্ত্রিত শিক্ষার্থীদের স্কুল ব্যাগ ও উপহার সামগ্রী দেয়া হয়।


আরও খবর



রাণীশংকৈলে সেই স্বর্ণের মাটির স্তুপ পরিক্ষা ও স্ক্যান করার নির্দেশে দুই সদস্যের কমিটি গঠন

প্রকাশিত:সোমবার ০৩ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৮৪জন দেখেছেন

Image
মাহাবুব আলম, রাণীশংকৈল(ঠাকুরগাঁও)প্রতিনিধি:ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল উপজেলার বাচোর ইউনিয়নের কাতিহার রাজোর এলাকার আরবিবি ইট ভাটার স্তুপ করা মাটি পরীক্ষা,অনুসন্ধান ও স্ক্যান করার নির্দেশসহ দুই সদস্যের একটি কমিটি করা হয়েছে। গত ২ জুন বাংলাদেশ ভুতাত্বিক জরিপ অধিদপ্তর পরিকল্পনা ও বাস্তবায়ন শাখা ঢাকার ভুতত্ব পরিচালক কামাল হোসেন স্বাক্ষরিত এক পত্রে এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে। 

স্বর্ণ পাওয়ার বিষয়টি গুরত্বসহকারে নিয়ে বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবি মেহেদী হাসান বাংলাদেশ ভুতাত্বিক জরিপ অধিদপ্তরে আরবিবি ইটভাটার মাটির পূর্বের স্থানসহ বর্তমান স্থান পরীক্ষা,অনুসন্ধান ও মাটি স্ক্যানের আবেদন করে। সেই পেক্ষিতে এ অফিস আদেশ দেয় সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। চিঠিতে উল্লেখ্য করা হয়েছে, সহকারী পরিচালক ভুতত্ব আনোয়ার সাদাৎ মুহাম্মদ সায়েম ও মোহাম্মদ আল রাজীকে আগামী ৩জুন থেকে ৫জুন অথবা প্রকৃত যাত্রার তারিখ হতে তিনদিনের মধ্যে প্রকৃত ঘটনার তথ্যসহ প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে। 

এর আগে আজকের পত্রিকাসহ বিভিন্ন পত্র পত্রিকায় ইটভাটায় স্বর্ণের খোজে কোদাল নিয়ে হুমড়ি খেয়ে পড়েছে হাজারো মানুষ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশ হয়। এর পরে দিনে রাতে ইটভাটার মাটির স্তুপে অতিরিক্ত মানুষের সমাগম হওয়ায়। আইনশৃঙ্খলা অবনতির আশঙ্কায় গত ২৫ মে ইটভাটায় ১৪৪ ধারা জারী করে রাণীশংকৈল উপজেলা প্রশাসন। এরপর থেকে সেখানে পুলিশি পাহারায় চৌকি বসানো হয়। এতে সাধারণ মানুষ ইটভাটায় ভিড়তে পারে না। বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবি মেহেদী হাসান বলেন, যেহেতু ওই ইটভাটার মাটি ঐতিহাসিক এলাকা থেকে কাটা হয়েছে। এবং মানুষের মুখে মুখে স্বর্ণ পাওয়ার বিষয়টি চাউর হয়েছে। তাই রাষ্ট্রীয় ভাবে এটি পরীক্ষা নিরীক্ষা করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। যদি কোন ধরনের স্বর্ণ পাওয়া যায়। তাহলে সেটি রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা হবে।

রাণীশংকৈল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) রকিবুল হাসান বলেন, বাংলাদেশ ভুতাত্বিক জরিপ অধিদফতর এর নির্দেশে মাটির পরীক্ষা করা হবে বলে জানতে পেরেছি। তারা আসলে উপজেলা প্রশাসন থেকে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে।

আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




মিরসরাইয়ে মাদ্রাসা শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে শিক্ষক আটক

প্রকাশিত:সোমবার ২৭ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৯২জন দেখেছেন

Image

মিরসরাই প্রতিনিধি:মিরসরাইয়ে এক মাদ্রাসা শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। রবিবার (২৬ মে) দুপুরে উপজেলার ওয়ার্লেসে অবস্থিত দারুল উলুম মাদরাসা থেকে ওই শিক্ষককে আটক করা হয়। আটক হাফেজ মাওলানা জোবায়ের চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার বাসিন্দা।সরেজমিনে জানা যায়, শনিবার রাতে ওয়ার্লেস দারুল উলুম মাদ্রাসার শিক্ষক জোবায়ের হেফজ বিভাগের এক শিশু শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের চেষ্টা করে। রবিবার সকালে ওই শিক্ষার্থীর সহপাঠীরা বিষয়টি ক্যান্টিনে জানায়। পরবর্তীতে যৌন নিপীড়নে আক্রান্ত ওই শিক্ষার্থী ক্যান্টিনে এসে পরিবারকে ফোন দিয়ে বিষয়টি জানায়। এরমধ্যে ঘটনাটি স্থানীয়রা জানার পর মাদ্রাসার শিক্ষকদের বিষয়টি জিজ্ঞেস করতে যায়। এই নিয়ে স্থানীয় এবং মাদ্রাসার শিক্ষকদের মধ্যে বাকবিতণ্ডার একপর্যায়ে উভয় পক্ষের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এতে মাদ্রাসার শিক্ষক মাওলানা ইব্রাহীম, স্থানীয় তরুণ তানভীর শাহরিয়ার রিয়াজ ও নুরনবী বশর আহত হয়। আহতরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা নিয়েছেন। পরে খবর পেয়ে মিরসরাই থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে এবং অভিযুক্ত শিক্ষক জোবায়েরকে আটক করে পুলিশ হেফাজতে নিয়ে আসে।

আহত স্থানীয় বাসিন্দা তানভীর শাহরিয়ার রিয়াজ জানায়, মাদ্রাসার এক শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের বিষয়টি জানার পর আমি মাদ্রাসার ভিতরে গিয়ে হুজুরদের কাছে জানতে চাই। তখন মাদ্রাসার শিক্ষকরা ক্ষিপ্ত হয়ে আমার উপর লাঠিসোটা নিয়ে হামলা চালায়। আমার উপর হামলা করতে দেখে স্থানীয় অন্যান্যরা এগিয়ে আসলে মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা তাদের উপরও হামলা চালায়। ওয়ার্লেস দারুল উলুম মাদ্রাসায় যৌন নিপীড়নের ঘটনা আজ নতুন নয়। এর আগে বেশ কয়েকবার এমন ঘটনা ঘটেছে। যতবারই ঘটে ততবারই মাদ্রাসার পরিচালক হাফেজ মাওলানা মুহাম্মদ শোয়াইব গোপনে বিষয়গুলো ধামাচাপা দিয়ে অভিযুক্ত শিক্ষকদের কোন বিচার না করে বাড়িতে পাঠিয়ে দেন।

নাম প্রকাশ না করা শর্তে যৌন নিপীড়নের শিকার শিশু শিক্ষার্থীর পরিবার জানায়, ২০১৬ সালে আমার ছোট ভাইকে ওয়ার্লেস দারুল উলুম নূরানী বিভাগে ভর্তি করাই। নূরানী বিভাগ থেকে হিফজ বিভাগে যাওয়ার পর এখন নাজেরা বিভাগে পাঠদান চলছে। এতবছর কোন সমস্যা শুনি নাই। হঠাৎ করে এমন ন্যাক্কারজনক ঘটনা আমার ভাইয়ের সাথে ঘটবে কখনো চিন্তা করি নাই।
দারুল উলুম মাদ্রাসার পরিচালক হাফেজ মাওলানা মুহাম্মদ শোয়াইব বলেন, দোষীতো প্রতিষ্ঠান না, দোষী একজন ব্যাক্তি। অভিযুক্ত হুজুরকে পুলিশ নিয়ে গেছে। সে যদি প্রকৃত অন্যায়কারী হয় তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। স্থানীয়রা এভাবে আমাদের প্রতিষ্ঠানের উপর হামলা চালানোর বিষয়টি আমাকে ব্যথিত করেছে।

মিরসরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকার্ত (ওসি) সহিদুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে অভিযুক্ত শিক্ষককে পুলিশ হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে।


আরও খবর



নেপাল থেকে ৪০ মেগাওয়াট জলবিদ্যুৎ কিনবে সরকার

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ১১ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৬৯জন দেখেছেন

Image

সরকার ভারতের জাতীয় গ্রিড ব্যবহার করে নেপাল থেকে পাঁচ বছরের জন্য ৪০ মেগাওয়াট জলবিদ্যুৎ আমদানি করবে । যার প্রতি ইউনিট ব্যয় হবে ৮ টাকা ১৭ পয়সা। মঙ্গলবার (১১ জুন) দুপুরে এ জলবিদ্যুৎ আমদানির অনুমোদন দিয়েছে পণ্য ক্রয়সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি।

জানা গেছে, বিদ্যুৎ আমদানির বিষয়ে গত বছরের মে মাসে বাংলাদেশ ও নেপালের মধ্যে একটি চুক্তি হয়। চুক্তি অনুযায়ী নেপালের ত্রিশুলি প্রকল্প থেকে ২৪ মেগাওয়াট এবং অন্য একটি বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে ১৬ মেগাওয়াটসহ মোট ৪০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ বাংলাদেশে আসবে। ভারত হয়ে বাংলাদেশের ভেড়ামারায় জাতীয় গ্রিডে এ বিদ্যুৎ আসবে।

নেপালের এ বিদ্যুৎ আমদানির লক্ষ্যে গত ১০ সেপ্টেম্বর বৈঠকে বসে ‘বিদ্যুৎ খাত উন্নয়ন ও আমদানি’ সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি। সাবেক অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল ওই কমিটির প্রধান ছিলেন। বৈঠকে আ হ ম মুস্তাফা কামাল নেপাল থেকে বিদ্যুৎ আমদানির ট্যারিফ জানতে চাইলে বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ জানান, নেপাল থেকে আমদানি করা বিদ্যুতের দাম দেশে কয়লাভিত্তিক উৎপাদিত বিদ্যুতের দামের তুলনায় কম পড়বে।

ওই বৈঠকের আলোচনায় উঠে আসে, নেপাল শীতকালে বাংলাদেশ কাছ থেকে বিদ্যুৎ নিতে আগ্রহী। শীতে নেপালে বিদ্যুতের চাহিদা বেশি থাকে, অন্যদিকে বাংলাদেশে চাহিদা কম থাকে


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




ফতুল্লায় বকেয়া বিল আদায়,অবৈধ সংযোগ বিচ্ছিন্ন অভিযান চালিয়েছে তিতাস গ্যাস

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৪ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১৫৬জন দেখেছেন

Image

নাজমুল হাসানঃনারায়ণগঞ্জে বেশ কিছু এলাকায় বকেয়া বিল আদায়ে  ও অবৈধ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করার জন্য অভিযান চালিয়েছে তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এন্ড ডিস্ট্রিবিউশন পিএলসি'র জোনাল অফিসের কর্মকর্তারা। সোমবার ৩ জুন সকালে শুরু করা অভিযান চলে বিকেল পর্যন্ত। 

তিতাস জানিয়েছে, তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এন্ড ডিস্ট্রিবিউশন পিএলসি'র ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) হারুনুর রশিদ মোল্লাহ'র নির্দেশে জোবিঅ-ফতুল্লা অফিসের ব্যাবস্থাপক প্রকৌশলী মশিউর রহমান এর নেতৃত্বে এবং জোবিঅ-নারায়নগঞ্জের ব্যাবস্থাপক প্রকৌশলী ইমরানের সহযোগিতায় এই অভিযান পরিচালনা হয়।

অভিযানে ৪কোটি টাকা বকেয়া বিলের অভিযোগে ইসদাইর, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ এলাকার ১,৬০০ জন গ্রাহকের মধ্য ১৩৫ জন গ্রাহকের ১ লক্ষ টাকার অধিক বকেয়া রয়েছে।এছাড়াও উক্ত এলাকার  আবাসিক গ্রাহকদের নিকট প্রায় ৪,০০,০০,০০০c/- (চার কোটি) টাকা গ্যাস বিল বকেয়া রয়েছে ।অধিকাংশ গ্রাহকের অনুমোদনের চেয়ে অতিরিক্ত চুলা রয়েছে।বকেয়া গ্যাস বিল পরিশোধের জন্য ২ দিন মাইকিং করা সহ জুম্মার নামাযে মসজিদে গ্যাস বিল পরিশোর জন্য বয়ান করানো হয়। পাশাপাশি এনায়েতনগর ও ফতুল্লা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়্যারম্যানকেও বকেয়া গ্যাস বিল পরিশোধ করা না হলে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করা হবে মর্মে পত্র মারফত অবহিত করা হয়। এরপরেও

গ্রাহক গ্যাস বিল পরিশোধ না করায় গত সোমবার ৩ জুন উক্ত এলাকার অন্তর্ভুক্ত টাগারপাড়, গাবতলী, ইসদাইর, ফতুল্লা, নারায়ণগঞ্জ এলাকায় বকেয়া গ্যাস বিল আদায়ের উদ্দেশ্যে সংযোগ বিচ্ছিন্নকরণ অভিযান পরিচালনা করে তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এন্ড ডিস্ট্রিবিউশন পিএলসি। অভিযানের সময় এলাকার লোকজন উত্তেজিত হয়ে তিতাস গ্যাসের লোকজনের উপর চড়াও হয় এবং ৩ জন কর্মচারী আহত হন। এলাকার লোকজন কর্তৃক বিচ্ছিন্নকৃত মালামালও ছিনিয়ে নেয়া হয়। বিষয়টি নিয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করে তিতাস। তিতাস গ্যাসের পক্ষ থেকে  উক্ত এলাকার ২ টি উৎসমুখ বন্ধ করে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করা হয়।


আরও খবর