Logo
আজঃ Wednesday ১০ August ২০২২
শিরোনাম
নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে ২৪৩৫ লিটার চোরাই জ্বালানি তেলসহ আটক-২ নাসিরনগরে বঙ্গ মাতার জন্ম বার্ষিকি পালিত রূপগঞ্জে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের মধ্যে ডিজিটাল সনদ ও জাতীয় পরিচয়পত্র বিতরণ কাউন্সিলর সামসুদ্দিন ভুইয়া সেন্টু ৬৫ নং ওয়ার্ডে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কর্মসুচীতে অংশগ্রহন করেন চান্দিনা থানায় আট কেজি গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার নাসিরনগরে ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সমাবেশ নাসিরনগর বাজারে থানা সংলগ্ন আব্দুল্লাহ মার্কেটে দুই কাপড় দোকানে দুর্ধষ চুরি। ই প্রেস ক্লাব চট্রগ্রাম বিভাগীয় কমিটির মতবিনিময় সম্পন্ন ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৬ কেজি গাঁজাসহ হাইওয়ে পুলিশের হাতে আটক এক। সোনারগাঁয়ে পুলিশ সোর্স নাম করে ডাকাত শাহ আলমের কান্ড

‘অর্ডার অব রিও ব্র্যাঙ্কো’ পদক পেলেন আবিদা ইসলাম

প্রকাশিত:Thursday ০৯ June ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ১০৭জন দেখেছেন
Image

বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক উন্নয়নে ‘অর্ডার অব রিও ব্র্যাঙ্কো’ পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন মেক্সিকোতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবিদা ইসলাম। ব্রাজিল সরকারের দেওয়া এ পুরস্কার আবিদা ইসলামের কাছে হস্তান্তর করেন ঢাকায় নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত জোয়াও তাবাজারা ডি অলিভেইরা।

এ বিষয়ে তিনি বলেন, চার বছর পর আমাদের দুই দেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ককে আরও শক্তিশালী করার জন্য মহাপরিচালক (আমেরিকা) হিসাবে আমার অবদানের জন্য ব্রাজিল সরকারের কাছ থেকে ‘অর্ডার অব রিও ব্র্যাঙ্কো’ নামে মর্যাদাপূর্ণ পুরস্কার পেয়ে আমি সম্মানিত বোধ করছি।

মঙ্গলবার ঢাকায় নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত অলিভেইরা এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পুরস্কারটি হস্তান্তর করেন। পুরস্কারটি আগে ঘোষণা হলেও কোভিড-১৯ মহামারির কারণে এটি পেতে বিলম্বিত হয়।

মঙ্গলবার (৭ জুন) বাংলাদেশে নিযুক্ত ব্রাজিলের রাষ্ট্রদূত জোয়াও তাবাজরা ডি অলিভেরা জুনিয়রের হাত থেকে তিনি এ পদক গ্রহণ করেন।

jagonews24

জানা গেছে, ‘দুই বন্ধুত্বপূর্ণ দেশের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক আরও শক্তিশালী করতে মহাপরিচালক (আমেরিকা) হিসাবে অবদান রাখায় ব্রাজিল সরকারের কাছ থেকে ‘অর্ডার অফ রিও ব্র্যাঙ্কো’ পদক পেয়েছেন এই কূটনীতিক।

বর্তমানে আবিদা ইসলাম মেক্সিকো সমদূরবর্তী দায়িত্ব হিসেবে কোস্টারিকা, ইকুয়েডর, গুয়াতেমালা ও হন্ডুরাসেও বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের দায়িত্ব পালন করছেন।

বিসিএস পররাষ্ট্র ক্যাডারের ১৫তম ব্যাচের কর্মকর্তা আবিদা ইসলাম। এর আগে সফলভাবে দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

এর আগে আবিদা ইসলাম লন্ডন, ব্রাসেলস, কলকাতা ও কলম্বোর বাংলাদেশ মিশনে বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। ঢাকায় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন বিভাগেও কাজ করেছেন তিনি।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সমাজবিজ্ঞানে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জনের পর আবিদা ইসলাম অস্ট্রেলিয়ার মনাশ ইউনিভার্সিটি থেকে পররাষ্ট্র ও বাণিজ্য বিষয়ে স্নাতকোত্তর করেন।


আরও খবর



দেশের কোন বিভাগে সাক্ষরতার হার কত

প্রকাশিত:Wednesday ২৭ July ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ০৮ August ২০২২ | ৩৪জন দেখেছেন
Image

দেশের জনসংখ্যা অনুপাতে মোট সাক্ষরতার হার ৭৪ দশমিক ৬৬ শতাংশ। যার মধ্যে ঢাকা বিভাগ সর্বোচ্চ ৭৮ দশমিক ৯ শতাংশ হার নিয়ে এগিয়ে। অন্যদিকে সর্বনিম্ন সাক্ষরতার হার ময়মনসিংহ বিভাগে ৬৭ দশমিক ৯ শতাংশ।

বুধবার (২৭ জুলাই) রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে (বিআইসিসি) পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের আওতায় বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) মাধ্যমে বাস্তবায়িত প্রথম ডিজিটাল জনশুমারি ও গৃহগণনা ২০২২ এর প্রাথমিক প্রতিবেদন প্রকাশনা অনুষ্ঠানে এসব তথ্য তুলে ধরা হয়।

এতে বলা হয়, দেশের মোট জনসংখ্যা এখন ১৬ কোটি ৫১ লাখ ৫৮ হাজার ৬১৬ জন। যেখানে ৮ কোটি ১৭ লাখ পুরুষ ও ৮ কোটি ৩৩ লাখ নারী আর ১২ হাজার ৬২৯ জন তৃতীয় লিঙ্গ।

প্রতিবেদনে সাক্ষরতার হারের হিসাবে বলা হয়, দেশের নারী-পুরুষ মিলে মোট সাক্ষরতার হার ৭৪ দশমিক ৬৬ শতাংশ। যার মধ্যে অঞ্চলভেদে গ্রামাঞ্চলে ৭১ দশমিক ৫৬ শতাংশ এবং শহর এলাকায় ৮১ দশমিক ২৮ শতাংশ।

অন্যদিকে নারী-পুরুষ লিঙ্গভিত্তিক বিবেচনায় পুরুষের সাক্ষরতার হার ৭৬ দশমিক ৫৬ শতাংশ, নারী শিক্ষার হার ৭২ দশমিক ৮২ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গের সাক্ষরতার হার ৫৩ দশমিক ৬৫ শতাংশ। ২০১১ সালে নারী-পুরুষ মিলে সাক্ষরতার হার ছিল ৫১ দশমিক ৭৭ শতাংশ।

বিভাগ বিবেচনায় বলা হয়, ঢাকা বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭৮ দশমিক ৯ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৮০ দশমিক ৮ শতাংশ, নারী ৭৬ দশমিক ২ শতাংশ এবং হিজড়া ৫৬ দশমিক ৯ শতাংশ।

বরিশাল বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭৭ দশমিক ৫৭ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৭৭ দশমিক ৭৪ শতাংশ ও নারী ৭৬ দশমিক ৭১ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গের ৬৫ দশমিক ৩০ শতাংশ।

চট্টগ্রাম বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭৬ দশমিক ৫৩ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৭৭ দশমিক ৭৪ শতাংশ, নারী ৭৫ দশমিক ৪৩ শতাংশ, তৃতীয় লিঙ্গ ৫০ দশমিক ৮৪ শতাংশ।

খুলনা বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭৫ দশমিক ২ শতাংশ। পুরুষ ৭৭ দশমিক ১৬ শতাংশ, নারী ৭২ দশমিক ৯৫ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গ ৫৯ দশমিক ৯৩ শতাংশ।

ময়মনসিংহ বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৬৭ দশমিক ৯ শতাংশ। পুরুষ ৬৮ দশমিক ৭৭ শতাংশ, নারী ৬৫ দশমিক ৪৯ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গ ৪৪ দশমিক ৩৬ শতাংশ।

রাজশাহী বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭১ দশমিক ৯১ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৭৩ দশমিক ৯০ শতাংশ, নারী ৬৯ দশমিক ৯৭ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গ ৫৪ দশমিক ২৩ শতাংশ।

রংপুর বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭০ দশমিক ৭৫ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৭৩ দশমিক ৮৮ শতাংশ, নারী ৬৭ দশমিক ৬৯ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গ ৫৪ দশমিক ২৩ শতাংশ।

সিলেট বিভাগে মোট সাক্ষরতার হার ৭১ দশমিক ৯২ শতাংশ। এর মধ্যে পুরুষ ৭৩ দশমিক ৫৪ শতাংশ, নারী ৭০ দশমিক ৫৪ শতাংশ এবং তৃতীয় লিঙ্গ ৪৪ দশমিক ৩৯ শতাংশ।

পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী। এসময় জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী ড. শামসুল আলম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন পরিসংখ্যান ও তথ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের সচিব ড. শাহনাজ আরেফিন। প্রাথমিক প্রতিবেদন বিষয়ক উপস্থাপনা করেন প্রকল্প পরিচালক মো. দিলদার হোসেন।


আরও খবর



‘আমরা চাকর না’ বলা বিমানের কেবিন ক্রু সাময়িক বরখাস্ত

প্রকাশিত:Wednesday ২৭ July ২০২২ | হালনাগাদ:Friday ০৫ August ২০২২ | ২৫জন দেখেছেন
Image

যাত্রীরা পানি চাওয়ায় ‘আমরা চাকর না’ বলা বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের এক কেবিন ক্রুকে চাকরি থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। বরখাস্ত ক্রুর নাম মো. মুগনী মোস্তফা।

বুধবার (২৭ জুলাই) বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার (২১ জুলাই) বিমানের কলকাতা থেকে ঢাকায় আসা বিজি-৩৯৬ ফ্লাইটে যাত্রীদের সঙ্গে কেবিন ক্রুদের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে। পরে যাত্রীরা বিমানের কাছে ‘অসদাচরণের’ অভিযোগ করলে তাদের গ্রাউন্ডেড (সাময়িকভাবে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি) করা হয়। একই সঙ্গে অভিযোগ নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত তাদেরকে বিমানের ডেস্কে অফিস করার নির্দেশ দেওয়া হয়।

জানা গেছে, বিজি-৩৯৬ ফ্লাইটটি নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বোস আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে বৃহস্পতিবার (২১ জুলাই) রাত ৯টার পর ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে। বিমানের ভেতর এসি কাজ না করায় কয়েকজন যাত্রী অসুস্থ বোধ করেন। তারা ক্রুদের কাছে পানি চান। বারবার পানি চাওয়া নিয়ে এক ক্রু নিজেকে যাত্রীদের ‘সার্ভেন্ট নন’ (চাকর না) ও ‘মেশিন নন’ বলে জানান। এ নিয়ে ক্রুরা কয়েক দফা ঝগড়াও করেন যাত্রীদের সঙ্গে।

ঢাকায় নামার পর বিমানবন্দরে বিমান কর্তৃপক্ষ বিষয়টি সুরাহা করার চেষ্টা করে। তবে সেখানেও ক্রুরা যাত্রীদের সঙ্গে খারাপ আচরণ করেন। তাই ওই চারজনকে গ্রাউন্ডেড এবং তদন্ত কমিটি করা হয় বলে জানিয়েছে বিমানের সংশ্লিষ্টরা।


আরও খবর



উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশে সয়লাব চাঁদপুরের মাছ ঘাট, দামও কম

প্রকাশিত:Monday ২৫ July ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ১৯জন দেখেছেন
Image

সাগর আর উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশে সয়লাব চাঁদপুরের বড় স্টেশন মাছ ঘাট। ট্রলারভর্তি ইলিশ নিয়ে এসব অঞ্চল থেকে ঘাটে আসছেন জেলেরা। প্রতিদিন গড়ে ২-৩ হাজার মণ ইলিশের সরবরাহ হচ্ছে এই ঘাটে। উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশের সরবরাহ বৃদ্ধি পাওয়ায় এসব অঞ্চলের ইলিশের দাম কিছুটা কমলেও অপরিবর্তিত রয়েছে চাঁদপুরের পদ্মা-মেঘনার ইলিশের দাম।

আড়তদারদের দাবি, ঘাটে উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশ যেখানে দিনে ২-৩ হাজার মণ আসছে সেখানে চাঁদপুরের স্থানীয় পদ্মা-মেঘনার ইলিশ আসছে ১০-১২ মণ। এজন্য দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

শনিবার (২৩ জুলাই) দিনগত মধ্যরাতে শেষ হয় সাগরে জেলেদের ইলিশ শিকারের নিষেধাজ্ঞা। নিষেধাজ্ঞা শেষে সাগরে নেমে পড়েন জেলেরা। জেলেদের দাবি, সাগর ও উপকূলীয় অঞ্চলে ভালো পরিমাণে ইলিশ ধরা পড়ছে। চাঁদপুরে ইলিশের তুলনামূলক দাম একটু বেশি পাওয়ার আশায় তারা এখানে ছুটে আসছেন।

jagonews24

আড়তদাররা বলছেন, মৌসুমের সবচেয়ে বেশি ইলিশ এখন ঘাটে আসছে। উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশের আমদানি বাড়ায় দাম কিছুটা কমেছে।

সোমবার (২৪ জুলাই) সরেজমিন চাঁদপুর বড় স্টেশন মাছ ঘাট ঘুরে দেখা যায়, সাগর থেকে ট্রলারভর্তি মাছ নিয়ে ঘাটে ফিরছেন জেলেরা। শ্রমিকরা ট্রলার থেকে তুলে নিয়ে আড়তে স্তূপ করে রাখছেন। সবশেষে এসব মাছ নিলামে খরিদ করছেন আড়তদাররা।

উপকূলীয় অঞ্চল থেকে আসা জেলে হাশেম গাজী ও জয়নাল মাঝি জাগো নিউজকে বলেন, ‘সাগরে ইলিশ ধরার নিষেধাজ্ঞা শেষে আমরা নদীতে নেমেছি। আলহামদুলিল্লাহ ভালো মাছ পাচ্ছি। চাঁদপুরে মাছের দাম একটু বেশি পাই। তাই সরাসরি চাঁদপুর মাছ ঘাটে চলে এসেছি।’

jagonews24

চাঁদপুর বড় স্টেশন মাছ ঘাটের আড়তদার সম্রাট বেপারী ও মাসুদ খান জানান, দুদিন আগেও ঘাটে মাছের আমদানি ছিল এক হাজার মণের মতো। সেখানে গতকাল থেকে ইলিশের সরবরাহ অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। ঘাটে আসা ইলিশগুলো সাগর ও উপকূলীয় অঞ্চলের। উপকূলীয় অঞ্চলের ইলিশের দাম কেজিতে ১০০-১৫০ টাকা পর্যন্ত কমেছে।

চাঁদপুর মাছ ঘাটে আসা ৫০০-৭০০ গ্রাম ওজনের ইলিশ ৬০০-৭০০ টাকা, ৭০০-৯০০ গ্রাম ওজনের ৭৫০-৯০০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। যা এক সপ্তাহ আগেও ১০০-১৫০ টাকা বেশি দরে বিক্রি হতো।

ঘাটে ইলিশ কিনতে আসা শরিফ গাজী ও রেদওয়ান জাগো নিউজকে বলেন, ‘ইলিশের দাম কিছুটা সাধ্যের মধ্যে এসেছে। তবে পদ্মা-মেঘনার ইলিশের দাম এখনো কমেনি। ঘাটে এখন যেসব মাছ দেখছি তার বেশিরভাগই দক্ষিণাঞ্চলের। আমাদের চাঁদপুরের মাছ কম দেখা যাচ্ছে। তাই হয়তো লোকাল ইলিশের দাম এখনো কমেনি।’

jagonews24

চাঁদপুর মৎস্য বণিক সমিতির সভাপতি আব্দুল বারি মানিক জমাদার বলেন, দুদিন ধরে দক্ষিণাঞ্চলের ইলিশ ঘাটে আসতে শুরু করায় সরবরাহ অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। আমদানি এমন থাকলে আশা করছি দাম আরও কিছুটা সাধারণ মানুষের হাতের নাগালে চলে আসবে।


আরও খবর



নামাজের সময়সূচি : ১৯ জুলাই ২০২২

প্রকাশিত:Tuesday ১৯ July ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১০ August ২০২২ | ৬১জন দেখেছেন
Image

আজ মঙ্গলবার ১৯ জুলাই ২০২২ ইংরেজি, ০৪ শ্রাবণ ১৪২৯ বাংলা, ১৯ জিলহজ ১৪৪৩ হিজরি। ঢাকা ও তার পার্শ্ববর্তী এলাকার নামাজের সময়সূচি তুলে ধরা হলো-

> জোহর- ১২:০৮ মিনিট।

> আসর- ৪:৪৩ মিনিট।

> মাগরিব- ৬:৫১ মিনিট।

> ইশা- ৮:১৫ মিনিট।

> ফজর (২০ জুলাই)- ৩:৫৮ মিনিট।

> আজ সুর্যাস্ত- ৬:৪৭ মিনিট।

> আগামীকালের (২০ জুলাই) সূর্যোদয়- ৫:২২ মিনিট।

বিভাগীয় শহরের জন্য উল্লেখিত সময়ের সঙ্গে যেসব বিভাগে সময় যোগ-বিয়োগ করতে হবে, তাহলো-

বিয়োগ করতে হবে-

> চট্টগ্রাম : -০৫ মিনিট

> সিলেট : -০৬ মিনিট

যোগ করতে হবে-

> খুলনা : +০৩ মিনিট

> রাজশাহী : +০৭ মিনিট

> রংপুর : +০৮ মিনিট

> বরিশাল : +০১ মিনিট

তথ্যসূত্র : ইসলামিক ফাউন্ডেশন


আরও খবর



ঈদযাত্রায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩৯৮

প্রকাশিত:Tuesday ১৯ July ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ০৯ August ২০২২ | ৩৯জন দেখেছেন
Image

ঈদুল আজহায় ৩ থেকে ১৭ জুলাই পর্যন্ত ১৫ দিনে ৩১৯ সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন ৩৯৮ জন। আহত হয়েছেন ৯৬০ জন। গত সাত বছরের ঈদুল আজহার তুলনায় এবার সড়কে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৯ জুলাই) বেলা সাড়ে ১১ টায় রাজধানীর সেগুনবাগিচায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাগর-রুনি মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতির মহাসচিব মো. মোজাম্মেল হক চৌধুরী।

jagonews24

তিনি জানান, ১১৩টি মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ১৩১ জন নিহত হয়েছেন। যা মোট সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত মানুষের ৩৫ দশমিক ৪২ শতাংশ।

বিস্তারিত আসছে....


আরও খবর