Logo
আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

নবীনগর প্রেসক্লাবের ৩৭ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ২৩ নভেম্বর 20২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২৩৭জন দেখেছেন

Image

মোহাম্মাদ হেদায়েতুল্লাহ্ ,নবীনগর (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি:ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে ঐতিহ্যবাহী নবীনগর প্রেসক্লাবের ৩৭তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী নানা আয়োজনে পালিত হয়েছে।বুধবার সন্ধ্যায় স্থানীয়  গণ-পাঠাগারে  আলোচনাসভা, কেক কাটা ও দোয়া  মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।প্রেসক্লাব সভাপতি শ্যামা প্রসাদ চক্রবর্তী শ্যামল এর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সাইদুল আলম সোরাফের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর ফরহাদ শামীম।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মাহমুদা জাহান, নবীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ মাহাবুব আলম,   ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জসিম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক বাহারুল ইসলাম মোল্লা, কোষাধ্যক্ষ মোশারফ হোসেন বেলাল, সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ আরজু প্রমুখ। বক্তব্য রাখেন, নবীনগর প্রেসক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি আবু কামাল খন্দকার, প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক কান্তি কুমার ভট্টাচার্য্য।

সাবেক সাধারণ সম্পাদক আসাদুজ্জামান কল্লোল, সিনিয়র সহ-সভাপতি আরিফুল ইসলাম ভূইয়া মিনাজ, সহ-সভাপতি মোহাম্মদ জহিরুল হক (জ ই বুলবুল), মোহাম্মদ হোসেন শান্তি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, মোঃ আব্দুল হাদী, মিঠু সূত্রধর পলাশ, এসএ রুবেল প্রমুখ।প্রধান অতিথি নবীনগর প্রেসক্লাবকে ফাদার সংগঠন হিসেবে আখ্যায়িত করে তাদের গতিশীল কার্যক্রম অব্যাহত রাখতে আহ্বান জানান এবং প্রেসক্লাবের জায়গা সম্প্রসারিত করতে সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দেন। এসময় নবীনগর প্রেসক্লাবের সদস‍্যবৃন্দসহ সুশীল সমাজের ব‍্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

-খবর প্রতিদিন/ সি.ব


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




গাংনীতে ভুল চিকিৎসায় শিশুর মৃত্যু ভূয়া চিকিৎসকের দুই বছর কারাদন্ড

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:সোমবার ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮৯জন দেখেছেন

Image

মজনুর রহমান আকাশ,মেহেরপুর প্রতিনিধি:মেহেরপুরের গাংনীতে ভূল চিকিৎসায় এক নবজাতকের মৃত্যুর ঘটনায় সুজন হোসেন নামের এক ভূয়া ডাক্তারের দুই বছরের কারাদন্ড ও ২০ হাজার টাকা অর্থদন্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। আজ শুক্রবার সকালে  দণ্ডিতকে মেহেরপুর জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

এর আগে বৃহষ্পতিবার সন্ধ্যারাতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী হাকিম ও গাংনী উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) নাদির হোসেন শামীম এ দন্ড প্রদান করেন। দণ্ডিত সুজন আলী গাংনীর মহাম্মদপুর গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে।ভ্রাম্যমাণ আদালত সুত্রে জানা গেছে, বাওট গ্রামের মনিরুল ইসলামের দুই দিন বয়সী নবজাতক শিশুর চিকিৎসার জন্য নেওয়া হয় মহাম্মদপুর গ্রামের হালিমা ফার্মেসীতে।

সেখানে গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উপ সহকারি কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার শরিফুল ইসলামের ব্যক্তিগত চেম্বার রয়েছে। শরিফুল ইসলামের অনুপস্থিতিতে সেখানে সুজন আলী নামের এক ব্যক্তি নিজেকের ডাক্তার দাবি করে নবজাতকের চিকিৎসা দেন। কয়েকটি এন্টিবায়োটিক ওষুধসহ বিভিন্ন ওষুধ দেওয়া হয়। পরিবারের লোকজন বাড়ি ফিরে ওই ওষুধ সেবন করানোর পর নবজাতক আরও অসুস্থ হয়ে পড়ে। বিকেলে নবজাতকের মৃত্যু হলে ওই ফার্মেসীতে অভিযান চালায় ভ্রাম্যমাণ আদালত।

ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাছে সুজন ভূয়া ডাক্তার হিসেবে প্রমাণিত হওয়ায় বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল আইন ২০১০ এর ২৯ এর ১ ধারায় তাকে দোষী সাব্যস্ত করে দুই বছর কারাদন্ড ও ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। গাংনী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডাঃ আব্দুল আল মারুফ ও গাংনী থানা পুলিশের সহায়তায় এ ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়।


আরও খবর

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ২৬

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




হাসপাতালে শয্যা সংকট,মেঝেতেও হচ্ছে না ঠাঁই

প্রকাশিত:শনিবার ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮২জন দেখেছেন

Image

আব্দুল হান্নান, নাসিরসগর,ব্রাহ্মণবাড়িয়াঃব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নাসিরনগর উপজেলার ৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতালে দেখা দিয়েছে শয্যা সংকট,মেঝেতেও হচ্ছেনা ঠাঁই।সরেজমিন হাসপতালে গিয়ে দেখা গেছে এমনই চিত্র।

হাসপাতালে সীট না পেয়ে রােগীদের মেঝেতে শুয়ে চিকিৎসা নিতে দেখা যাচ্ছে।হাতপাতাল সুত্রে জানা গেছে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল হলেও এখানে প্রতিদিন ৮০ থেকে ৯০ জন রোগীকে ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

অতিরিক্ত রোগীর চাপ সামলাতে ডাক্তার আর নার্সদের খেতে হচ্ছে হিমশিম।এমন হওয়ার কারন কি জানতে চাইলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায়,এখানে ডাক্তারদের ব্যবহার,পর্যাপ্ত ঔষধ পত্র আর সেবার মান ভাল হওয়া পার্শ্ববর্তী সরাইল,লাখাই,মাধবপুর,অষ্টগ্রাম থেকেও চিকিৎসা নেয়ার জন্য রোগীরা আসেন।

আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আর,এম,ও) ডাঃ সাইফুল ইসলাম জানান উক্ত হাসপাতালে আউটডোরে প্রতিদিন প্রায় ৫ থেকে ৬ শ রোগী দেখতে ডাক্তারদেন হিমশিম খেতে হচ্ছে। নাসিরনগর হাসপাতালের চিকিৎসকদের  মাঝে ডাক্তার অভিজিৎ রায়,ডাক্তার মোঃ সাইফুল ইসলাম,ডাক্তার জীবণ চন্দ্র দাস,ডাক্তার মৌমিতা বসাকের চিকিৎসা ব্যবস্থা অন্যতম।তাই হাসপাতালের শয্যা সংকট দুর করতে স্থানীয়রা মাননীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সৈয়দ একে একরামুজ্জামজন এমপি সহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সু দৃষ্টি কামনা করছেন।


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




রমজানেও আল-আকসায় প্রবেশে বিধিনিষেধ দেবে ইসরায়েল

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫২জন দেখেছেন

Image

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:আসন্ন রমজান মাসে অধিকৃত জেরুজালেমে অবস্থিত পবিত্র আল-আকসা মসজিদে প্রবেশে কিছু বিধিনিষেধ আরোপ করবে ইসরায়েল। নিরাপত্তার জন্যই এমনটি করা হবে বলে জানিয়েছে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর কার্যালয়। খবর আল-জাজিরার।

পবিত্র আল-আকসা মসজিদ সারা বিশ্বের মুসলিমদের কাছে তৃতীয় পবিত্রতম স্থান হিসেবে বিবেচিত। এলাকাটি ইহুদিদের কাছেও পবিত্রতম স্থান। সেখানে টেম্পল মাউন্ট রয়েছে বলে মনে করে ইহুদিরা।

রমজান মাসে আল-আকসায় প্রবেশে ইসরায়েলের বিধিনিষেধ দেওয়া নতুন নয়। দীর্ঘদিন ধরেই তারা এমনটি করে আসছে। আর চলতি বছরের ১০ মার্চ রমজান মাস শুরু হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

পবিত্র আল-আকসায় রমজান মাসে বিধিনিষেধ দেওয়া হবে কি না এমন এক প্রশ্নের জবাবে সোমবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) নেতানিয়াহুর কার্যালয় জানায়, নিরাপত্তার প্রয়োজনে প্রধানমন্ত্রী একটি ভারসাম্যপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তবে, কি কি বিধিনিষেধ আরোপ করে তা নিয়ে কোনো কিছু জানায়নি তারা।

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের বিধিনিষেধে বক্তব্যের নিন্দা জানিয়েছে গাজা উপত্যকার নিয়ন্ত্রণ করা সশস্ত্র সংগঠন হামাস। এ বিষয়ে ফিলিস্তিনিদের এক হওয়ার আহ্বান জানিয়েছে তারা। বিধিনিষেধকে ইহুদিবাদী অপরাধ এবং ধর্মীয় যুদ্ধের ধারাবাহিকতা হিসেবে বর্ণনা করেছে সংগঠনটি।

ইসরায়েল প্রায়শ নিরাপত্তার অজুহাতে আল-আকসা মসজিদে প্রবেশকারীদের সংখ্যা সীমিত করে। এর আগে রমজান মাসে পবিত্রতম স্থানটিতে আগ্রাসী অভিযান চালিয়েছে তারা।

গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলে হামলা চালায় ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী গোষ্ঠী হামাস। প্রতিক্রিয়ায় গাজা উপত্যকাসহ অধিকৃত পশ্চিম তীর ও জেরুজালেমে ইসরায়েলি হামলা চলমান। রমজান মাসেও এই হামলা অব্যাহত রাখার কথা জানিয়েছে তারা।

গত রোববার ইসরায়েলি মন্ত্রী বেনি গ্যান্টজ বলেন, ‘বিশ্ববাসীর সঙ্গে সঙ্গে হামাস নেতাদেরও জানা দরকার, যদি রমজানের মধ্যে বন্দিরা বাড়ি না ফেরে তাহলে রাফাহসহ সবখানে হামলা অব্যাহত থাকবে। বেসামরিকদের হত্যা কমিয়ে আনতে আমরা প্রচেষ্টা চালাবো।’ ওই সময় তিনি আরও বলেন, ‘হামাসের কাছে পথ খোলা আছে। তারা আত্মসমর্পণ করুক ও বন্দিদের মুক্তি দিক। তাহলে গাজাবাসী রমজানের উৎসব করতে পারবে।’


আরও খবর



মাগুরায় এমপি কাপ করতে চান সাকিব

প্রকাশিত:রবিবার ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১৪৯জন দেখেছেন

Image
স্টাফ রিপোর্টার মাগুরা থেকে:জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মাগুরা ১ আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর মাগুরা ছেড়েছিলেন  সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) খেলতে তিনি মাগুরার বাইরে ছিলেন তিন সপ্তাহ। হঠাৎ করে এ সপ্তাহে মাগুরায় আসেন এবং ঐদিনই মাগুরা স্টেডিয়ামে অনুশিলন করেন। প্রথমবারের মতো সংসদ সদস্য হিসেবে মাগুরা জেলা আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সাথে মতবিনিময়, সদর উপজেলা আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় উপস্থিত হন। পরে মাগুরা পৌরসভা, পুলিশ সুপারের কার্যালয়,মাগুরা সদর হাসপাতাল পরিদর্শন ও জেলা প্রশাসকের সাথে সৌজন্য সাক্ষাত করেন। এসময় তার সাথে ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আফম আব্দুল ফাত্তাহ, সাধারণ সম্পাদক পঙ্কজ কুমার কুন্ডু, যুগ্ম সম্পাদক রানা আমীর ওসমানসহ আওয়ামী লীগ ও অংগ সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

সাকিবের মামাতো ভাই সাবেক জাতীয় ফুটবলার  মেহেদী হাসান উজ্জ্বল জানান‘মাগুরা সদর উপজেলা গোল্ডকাপ অনেক জনপ্রিয়। আমরা আরও একটি টুর্নামেন্ট শুরু করতে যাচ্ছি। এই টুর্নামেন্টের নাম হবে এমপি কাপ। শুধু ক্রিকেট নিয়ে নয়। তিনটি ফরম্যাটে এটি হতে পারে। ক্রিকেট, ফুটবল বা অন্য কিছু নিয়ে হতে পারে। আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি সব জানিয়ে দেওয়া হবে।’ সদর উপজেলার সব চেয়ারম্যানকে উদ্দেশ্য করে সাবেক এই ফুটবলার জানান, ‘এমপি কাপের সব খরচ আমরা বহন করব। আপনারা  শুধু সহযোগিতা করবেন অন্যান্য বিষয়ে।’ সাকিবের উপস্থিতিতে এমন প্রস্তাবে সবাই সাধুবাদ জানান। মাগুরাকে ক্রীড়াবান্ধব করতে সবার সহযোগিতা চেয়েছেন তিনি। 

মতবিনিময় সভায় সাকিব বলেন, ‘বিপিএল খেলার কারণে নির্বাচনের পর মাগুরার মানুষের সাথে   আমার আনুষ্ঠানিকভাবে দেখা হয়নি। তবে সামনে আবার সময় পাব। ৭ অথবা ৮ তারিখে মাগুরায় এসে দুই-তিন দিন নেতাকর্মীদের নিয়ে আবার কাজ করব। সংসদে কিংবা মন্ত্রণালয়ে কী কী করতে হবে তা আপনারা আমাকে জানাবেন। মাগুরাকে এগিয়ে নিতে আপনাদের সবার সহযোগিতা আশা করি পাব। প্রধানমন্ত্রী সারা দেশকে যেভাবে দেখতে চান, আমরা সেভাবেই আমাদের মাগুরাকে গড়ে তুলব। কিছু সমস্যা আছে, যেগুলো সবখানে থাকে। সেগুলো কীভাবে আমরা সমাধান করতে পারি, তা নিয়ে আমরা সবাই মিলে কাজ করব। ঐদিনই বিকেলে তিনি মাগুরা ছেড়ে আবার বিপিএলে অংশ নেয়ার জন্য চলে যান  জান।

আরও খবর



বাগেরহাটের প্রত্যন্ত অঞ্চলে স্টেম ফেস্টিভাল, ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের দক্ষতায় মুগ্ধ সবাই

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:শনিবার ২৪ ফেব্রুয়ারী 20২৪ | ৫৮জন দেখেছেন

Image

বাগেরহাট প্রতিনিধি:বাগেরহাটের রামপালে প্রত্যন্ত অঞ্চলের শিক্ষার্থীদের নিয়ে বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তি ভিত্তিক স্টেম ফেস্টিভাল অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) উপজেলার পেড়িখালি মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে দিনব্যাপি এই উৎসবে ছিল প্রোগ্রামিং কন্টেস্ট, বিজ্ঞান ভিত্তিক প্রকল্প প্রদর্শণী, উদ্ভাবনী আইডিয়া নিয়ে পোস্টার উপস্থাপনা, রোবটিক্স প্রতিযোগিতাসহ বিভিন্ন আয়োজন। 

বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকার মেয়ে শিক্ষার্থীদের তথ্য প্রযুক্তিভিত্তিক দক্ষতা অর্জনে আগ্রহী করে তোলার লক্ষ্যে বাস্তবায়িত STEM & ICT Skills for Girls of Coastal Areas [SISGCA] শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় বাংলাদেশ ফ্রিডম ফাউন্ডেশনের-এর উদ্যোগে আয়োজিত এই স্টেম ফেস্টের বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বাগেরহাটের ৭টি স্কুলের দুই শতাধিক শিক্ষার্থী অংশগ্রহন করেন। স্কুলগুলো হল- পেড়িখালি মডেল হাইস্কুল, বড়কাটালি বহুমুখী হাইস্কুল, ঝনঝনিয়া সেকেন্ডারি হাইস্কুল, শ্রীফলতলা পাইলট হাইস্কুল, রামপাল পাইলট গার্লস হাইস্কুল, ডাকরা বহুমুখি মডেল হাই স্কুল ও উদ্দীপন বদর সামসু বিদ্যানিকেতন।

ক্ষুদে শিক্ষার্থীদের ৩১টি বিজ্ঞান প্রকল্প, ১০টি পোস্টার প্রেজেন্টেশন এবং দিনব্যাপী প্রোগ্রামিং কন্টেস্ট, কুইজ প্রতিযোগিতা, রোবটিক্স প্রতিযোগিতা পরিদর্শণ করেন উৎসবে আগত বিভিন্ন পর্যায়ের অতিথিগণ। শিক্ষার্থীদের উপস্থাপিত সাসটেইনএবল সিটি, ড্রোন, ফ্লাড এলার্ম সিস্টেম, ভূমিকম্প নির্ণায়ক, ফায়ার ডিটেক্টরসহ বেশ কিছু প্রকল্প নিয়ে শিক্ষার্থীরা বৈজ্ঞানিক প্রকল্প বা মডেলগুলো সম্পর্কে প্রশংসা করেন অতিথিগণ।

এদিন বিকেলে সমাপনী আয়োজনে গণিত অলিম্পিয়াডের সভাপতি ও বাংলাদেশ ওপেন সোর্স নেটওয়ার্কের সাধারণ সম্পাদক মুনির হাসান বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিজয়ী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন। পুরুস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রামপাল উপজেলার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রহিমা সুলতানা বুশরা, মোরেলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ তারেক সুলতান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অফ ইনফরমেশন টেকনোলজি (আইআইটি) বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. বি এম মইনুল হোসেন, খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের মেকাট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ার বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ড. মোঃ হেলাল আন নাহিয়ান, বাংলাদেশ ফ্রিডম ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক সাজ্জাদুর রহমান চৌধুরী। এছাড়া অংশগ্রহনকারী বিদ্যালয় গুলোর প্রধান শিক্ষক ও শিক্ষকবৃন্দ, বিদ্যালয় ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্যবৃন্দ ও অন্যান্য শিক্ষকমন্ডলী উপস্থিত ছিলেন। তাঁরা বিভিন্ন প্রতিযোগিতা ঘুরে শিক্ষার্থীদের প্রাণোচ্ছল অংশগ্রহণ উপভোগ করেন।

মালালা ফান্ডের অর্থায়নে বাংলাদেশ ফ্রিডম ফাউন্ডেশন ও বাংলাদেশ ওপেন সোর্স নেটওয়ার্কের বাস্তবায়নে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাস্তবিক সমস্যা সমাধানে প্রযুক্তি ও বিজ্ঞানকে কাজে লাগানোর মনোভাব সৃষ্টি ও প্রযুক্তি কর্মক্ষেত্রের জন্য দক্ষ হয়ে গড়ে তোলার লক্ষ্যে গত বছর থেকে রামপাল উপজেলার পেড়িখালি মডেল হাইস্কুল ও বড়কাটালি বহুমুখী হাইস্কুলের শিক্ষার্থীদের জন্য দক্ষতা উন্নয়ন প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজন করে আসছে প্রকল্পটি। এর আগে প্রকল্পটির মাধ্যমে স্কুল দুটিতে বাংলাদেশ জুনিয়স সাইন্স অলিম্পিয়াডের আওতায় স্কুল ভিত্তিক সাইন্স অলিম্পিয়াড এবং বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াডের আওতায় স্কুল ভিত্তিক গণিত অলিম্পিয়াড আয়োজিত হয়। 

রামপাল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রহিমা সুলতানা বুশরা বলেন, রামপালের মত প্রত্যন্ত এলাকার মেয়েদের জ্ঞানচর্চায় উদ্বুদ্ধ করা এবং তাঁদের উদ্ভাবনী ক্ষমতাকে বিকশিত করার এমন সুযোগ শিক্ষার্থীদের আরো প্রযুক্তি ও বিজ্ঞানমনষ্ক করে তুলবে বলে আমার বিশ্বাস।

মোরেলগঞ্জ উপজেলার উপজেলা নির্বাহী অফিসার এস. এম. তারেক সুলতান বলেন, শিক্ষার্থীদের প্রাণবন্ত অংশগ্রহণ আমাকে আনন্দিত করেছে এই ভেবে যে স্মার্ট বাংলাদেশ তৈরী তে আমাদের উপকূলের মেয়েরাও সমানভাবে অংশ নিতে প্রস্তুত হচ্ছে।


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪