Logo
আজঃ Friday ১৯ August ২০২২
শিরোনাম
রূপগঞ্জে আবাসিকের অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন ডেমরায় প্যাকেজিং কারখানায় ভয়বহ অগ্নিকান্ড রূপগঞ্জে পুলিশের ভুয়া সাব-ইন্সপেক্টর গ্রেফতার রূপগঞ্জে সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ ॥ সভা সরাইলে সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ৭৭তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষ্যে বিশেষ দোয়া অনুষ্ঠিত। নারায়ণগঞ্জে পারিবারিক কলহে স্ত্রীকে পুতা দিয়ে আঘাত করে হত্যা,,স্বামী গ্রেপ্তার রূপগঞ্জ ইউএনও’র বিদায় সংবর্ধনা নাসিরনগরে স্বামীর পরকিয়ার,বলি ননদ ভাবীর বুলেটপানে আত্মহত্যা নাসিরনগরে জাতীয় শোক দিবস ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭ তম শাহাদত বার্ষিকী পালিত ডেমরায় জাতীয় শোক দিবসের কর্মসুচি পালিত
ত্রিশালে সড়ক দূর্ঘটনায় দুই সহোদর নিহত

ময়মনসিংহের ত্রিশালে সড়ক দূর্ঘটনায় দুই ভাই নিহত

প্রকাশিত:Tuesday ০২ November 2০২1 | হালনাগাদ:Friday ১৯ August ২০২২ | ৪৫৩জন দেখেছেন
Image



 

মতিউল আলম, ময়মনসিংহ : 


ময়মনসিংহের ত্রিশালে এক সড়ক দূর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই সহোদর ভাই নিহত হয়েছেন। সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের কাজীর শিমলায় এই মর্মান্তিক দূর্ঘটনা ঘটে।

ত্রিশাল থানার অফিসার ইনচার্জ মো মাইন উদ্দিন জানান, সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ত্রিশাল উপজেলার কাজীর শিমলা নামক স্থানে মোটরসাইকেল আরোহীকে বাংলাদেশ পার্সেল এন্ড কুরিয়ার সার্ভিসের কাভার্ড ভ্যান পেছন থেকে ধাক্কা দিলে মোটরসাইকেল আরোহী ফিরোজ মোর্শেদ ও তৌহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থইে নিহত হয়।

নিহতরা জামালপুর সদরের নান্দিনা খড়খড়িয়া গ্রামের আজিজুল হকের ছেলে। গাজীপুরের নয়াপুর থেকে গ্রামের বাড়ী যাচ্ছিল। ফিরোজ মোর্শেদ গাজীপুরে ডিবিএল সিরামিক্স কারখানায় চাকুরী করতেন। তার ছোট ভাই তৌহিদুল চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী ও বিসিএস পরীক্ষার্থী ছিলেন।

 

নিহতদের লাশ উদ্ধার এবং পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। কাভার্ড ভ্যান চালককে আটক করা হয়েছে।

-খবর প্রতিদিন /সি.বা

নিউজ ট্যাগ: সড়ক দূর্ঘটনা

আরও খবর



বন্ধুকে হত্যা, ১১ বছর পর মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি গ্রেফতার

প্রকাশিত:Wednesday ১০ August ২০২২ | হালনাগাদ:Thursday ১৮ August ২০২২ | ৪৫জন দেখেছেন
Image

রাজধানীর কোতোয়ালি থানার নবাবপুরে রজব আলী হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ১১ বছরের পলাতক আসামি মো. জিকুকে (৩২) গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-৩। মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) মুন্সীগঞ্জের শীনগর এলাকা থেকে জিকুকে গ্রেফতার করা হয়।

র‍্যাব-৩ জানায়, নিহত রজব আলী জিকুর বন্ধু ছিলেন। তারা দুজনই মাদকাসক্ত। মাদক সেবনকে কেন্দ্র করে রজব আলীর সঙ্গে জিকুর শত্রুতা সৃষ্টি হয়। এর জের ২০১১ সালে জিকু তার সহযোগীদের নিয়ে রজবকে হত্যা করে। রজবকে হত্যার পর দীর্ঘ ১১ বছর বিভিন্ন জায়গায় নাম পরিচয় বদলে আত্মগোপনে ছিলেন ঝিকু ।

বুধবার (১০ আগস্ট) দুপুরে কারওয়ান বাজারে র‍্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান র‍্যাব-৩ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ।

তিনি বলেন, ভিকটিম রজব আলী জিকুর ঘনিষ্ঠ বন্ধু ছিলেন। তারা পরস্পর বন্ধু হলেও এলাকা ভিত্তিক উঠতি বয়সের যুবকদের মধ্যে গ্রুপে ছিল। জিকু ও রজব পাড়ায় এক সঙ্গে দলবেঁধে মাদক সেবন করতেন। একদিন মাদক সেবনের জন্য তাদের কাছে পর্যাপ্ত টাকা ছিল না। তখন রজব আলী সজিব নামে একজনের মোবাইল জামানত রেখে মাদকের টাকা সংগ্রহ করেন। পরে সবাই মিলে মাদক সেবন করেন। পরে মাদকের টাকা পরিশোধ না করে জামানতের মোবাইল ফেরত চাওয়ায় জিকু ও রজবের মধ্যে শত্রুতা সৃষ্টি হয়।

jagonews24

আরিফ মহিউদ্দিন আহমেদ বলেন, এই শত্রুতাকে কেন্দ্র করে জিকুর নেতৃত্বে রহিম ওরফে আরিফ, আবু বক্কর সিদ্দিক ওরফে টাইগার, মন্টি, মো. মিলন ওরফে চোপা মিলন, আকাশ ওরফে রাসেল, ফরহাদ হোসেন ওরফে ফরহাদ, সজিব আহমেদ খান, শহীন চাঁন খাদেম ও মোহাম্মদ আলী হাওলাদার বাবু ভিকটিম রজব আলীকে শায়েস্তা করার জন্য পরিকল্পনা করে। পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০১১ সালে ২৪ জুলাই রাতে নবাবপুরে মোবাইলের দোকানে রজব আলী টাকা রিচার্জ করতে গেলে জিকুসহ আরও চার থেকে পাঁচজন তার ওপর এলোপাতাড়ি আক্রমণ করে বুকে ও পেটে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে।

র‌্যাবের এই কর্মকর্তা বলেন, ওই ঘটনায় রাজধানীর কোতোয়ালি থানায় রজবের ভাই জুম্মন বাদী হয়ে মামলা করেন। পরে ২০১২ সালে ৫ ডিসেম্বর মামলার তদন্ত শেষে তদন্তকারী কর্মকর্তা ১৩ জনকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেয়। বিচার কাজ শেষে আদালত ২০১৯ সালে ১ আগস্ট জিকু, রহিম ওরফে আরিফ ও আবু বক্কর সিদ্দিক ওরফে টাইগারকে মৃত্যুদণ্ড দেন। রায় ঘোষণার সময় সব আসামিরা পলাতক ছিলেন। এছাড়াও একই রায়ে সাতজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও তিনজনকে খালাস দেওয়া হয়।

জিকুর পলাতক জীবন নিয়ে র‍্যাব-৩ এর অধিনায়ক বলেন, রজবকে হত্যার পর পর মাতুয়াইল এলাকায় মনুমিয়ার বাড়িতে আত্মগোপনে চলে যান জিকু। দীর্ঘ আট মাস পলাতক থাকার পর তিনি গ্রেফতার হয়ে ৬ মাস জেল খেটে জামিনে বের হন। পরে তিনি বরিশালে তার শ্বশুরবাড়ি চলে যান এবং কোর্টে হাজিরা দেওয়া থেকে বিরত থেকে পলাতক জীবন যাপন শুরু করেন। সেখানে নিজেকে মোটর মেকানিক হিসেবে পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন ওয়ার্কশপে কাজ করতেন।

‘এক সময় নাম পরিবর্তন করে নিজেকে নাসির উদ্দিন নামে পরিচয় দেন জিকু। মটর মেকানিকের কাজ জানায় তিনি অতি সহজেই কর্মস্থল পরিবর্তন করতে পারতেন। এভাবে কিছুদিন আত্মগোপনে থাকার পর তিনি আবার ঢাকায় ফিরে আসেন। লম্বা চুল ও দাড়ি রেখে বেশ বদল করে নাসির উদ্দিন পরিচয়ে ধোলাইখাল এলাকায় একটি ওয়ার্কশপে কাজ করতে শুরু করেন জিকু। এরই মধ্যে তার মাদক সেবনের পরিমাণ আরও বাড়তে থাকে।’

তিনি আরও বলেন, ওয়ার্কশপের এক সহকর্মীর পরামর্শে জিকু মুন্সীগঞ্জের একটি মাদকাসক্তি নিরাময় কেন্দ্রে ভর্তি হন। সেখানে ভর্তি হওয়ার পর কর্তৃপক্ষ জিকুর চুল ও দাড়ি কেটে দেয়। এভাবেই তার আসল চেহারা প্রকাশ পায়। পরে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে র‌্যাব-৩ এর একটি চৌকস আভিযানিক দল তাকে গ্রেফতার করে।


আরও খবর



ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৮৬

প্রকাশিত:Saturday ৩০ July ২০২২ | হালনাগাদ:Friday ১৯ August ২০২২ | ৩৮জন দেখেছেন
Image

রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকার মাদকবিরোধী অভিযানে বিক্রি ও সেবনের অভিযোগে ৮৬ জনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) বিভিন্ন অপরাধ ও গোয়েন্দা বিভাগ।

এ সময় তাদের কাছ থেকে দুই হাজার ৯২১ পিস ইয়াবা, ৪৪৫ গ্রাম হেরোইন, ১০ কেজি ৫৬০ গ্রাম গাঁজা ও ১০৪ বোতল দেশিমদ উদ্ধার করা হয়।

শুক্রবার (২৯ জুলাই) ভোর ৬টা থেকে শনিবার (৩১ জুলাই) ভোর ৬টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ৫৬টি মামলা রুজু হয়েছে।


আরও খবর



ছাড়পত্র ছাড়া সরিষার তেল বিক্রি, সুপারশপকে জরিমানা

প্রকাশিত:Tuesday ২৬ July ২০২২ | হালনাগাদ:Friday ১৯ August ২০২২ | ৫৭জন দেখেছেন
Image

রাজধানীর বনানীতে ছাড়পত্র ছাড়া সরিষার তেল বিক্রির অপরাধে একটি সুপারশপকে জরিমানা করেছে বিএসটিআই।

মঙ্গলবার (২৬ জুলাই) ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে বনানীর আমেনা বিগবাজারকে ২৫ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

বিএসটিআই আইন, ২০১৮ অনুসারে বাধ্যতামূলক সরিষার তেল পণ্যের অনুকূলে বিএসটিআইয়ের সিএম সনদ/ ছাড়পত্র ছাড়া উৎপাদন, বিক্রয়, বিতরণ ও বাজারজাতের অপরাধে প্রতিষ্ঠানটিকে জরিমানা করা হয়।

বিএসটিআইয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নাফিসা নাজ নীরার নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হয়। প্রসিকিউটর হিসেবে ফিল্ড অফিসার (সিএম) খালেদ হোসেন দায়িত্ব পালন করেন।


আরও খবর



সাংবাদিক গোলাম সারওয়ারের মৃত্যুবার্ষিকী আজ

প্রকাশিত:Saturday ১৩ August ২০২২ | হালনাগাদ:Wednesday ১৭ August ২০২২ | ৩১জন দেখেছেন
Image

বিশিষ্ট সাংবাদিক, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও দৈনিক সমকালের প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের চতুর্থ মৃত্যুবার্ষিকী আজ (১৩ আগস্ট)। ২০১৮ সালের ১৩ আগস্ট ৭৫ বছর বয়সে সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন তিনি।

মৃত্যুর আগে তিনি ছিলেন সমকালের সম্পাদকের দায়িত্বে। সাংবাদিকতায় অবদানের জন্য তিনি পেয়েছেন রাষ্ট্রীয় সম্মাননা একুশে পদক।

দেশের সাংবাদিকতার প্রতিষ্ঠানতুল্য ব্যক্তিত্ব গোলাম সারওয়ার ষাটের দশকে সাংবাদিকতাকে পেশা হিসেবে গ্রহণ করেন। সেই থেকে টানা পাঁচ দশকের বেশি সময় তিনি এ পেশায় মেধা, যুক্তিবোধ, পেশাদারত্ব, দায়িত্বশীলতা, অসাম্প্রদায়িক চিন্তা-চেতনার নিরবচ্ছিন্ন চর্চায় নিজেকে এবং বাংলাদেশের সংবাদপত্রকে অনন্য উচ্চতায় প্রতিষ্ঠিত করেন। বাবা মরহুম গোলাম কুদ্দুস মোল্লা ও মা মরহুম সিতারা বেগমের জ্যেষ্ঠ সন্তান গোলাম সারওয়ার বাংলাদেশের মুক্তচিন্তা, প্রগতিশীল মূল্যবোধ আর মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে আজীবন সোচ্চার ছিলেন।

তিনি ছিলেন দৈনিক ইত্তেফাকের তিন দশকের বার্তা সম্পাদক। দৈনিক যুগান্তরেরও প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক।

গোলাম সারওয়ার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগ থেকে সম্মানসহ স্নাতক ও এমএ ডিগ্রি অর্জন করেন।

ছাত্র থাকা অবস্থায় ১৯৬২ সালে চট্টগ্রামের দৈনিক আজাদীর বিশ্ববিদ্যালয় সংবাদদাতা হিসেবে সাংবাদিকতায় যোগ দেন তিনি। একই বছর দৈনিক সংবাদের সহসম্পাদক হিসেবে যোগ দেন। ১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ পর্যন্ত সংবাদে কর্মরত ছিলেন। এরপর মহান মুক্তিযুদ্ধে যোগ দেন। মুক্তিযুদ্ধে তিনি সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন নিজ এলাকা বরিশালের বানারীপাড়ায়।


আরও খবর



তহসিল অফিসে তিন বছরের অধিক কর্মরতদের বদলির সুপারিশ

প্রকাশিত:Thursday ০৪ August ২০২২ | হালনাগাদ:Thursday ১৮ August ২০২২ | ২৮জন দেখেছেন
Image

তহসিল অফিসে কোনো ভূমি মালিক যেন হয়রানির শিকার না হয় সে জন্য ভূমি ব্যবস্থাপনার কাজ সম্পাদনের ক্ষেত্রে অধিক সজাগ থাকার সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি। পাশাপাশি প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে তহসিল অফিসে তিন বছরের অধিক সময় কর্মরতদের বদলির সুপারিশ করেছে কমিটি।

বৃহস্পতিবার (৪ আগস্ট) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত ভূমি মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির ১৩তম বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়। বৈঠক শেষে কমিটির সভাপতি মো. মকবুল হোসেন এ তথ্য জানান।

এছাড়াও কমিটির সদস্য ভূমি মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী, মনোরঞ্জন শীল গোপাল, মো. হাবিবর রহমান, নেছার আহমদ, মো. আমিনুল ইসলাম এবং খান আহমেদ শুভ বৈঠকে অংশ নেন।

এছাড়া দেশব্যাপী ভূমি ব্যবস্থাপনায় ডিজিটাল পদ্ধতিতে বিভিন্ন মৌজার জমির ধরণ নির্ণয়ের পাশাপাশি জরিপ কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার প্রক্রিয়া চলমান থাকায় কমিটি কর্তৃক ধন্যবাদ জ্ঞাপন করা হয়।

বৈঠকের ১৫ আগস্ট কালরাতে বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ তার পরিবারের যে সকল সদস্য শাহাদৎ বরণ করেছেন তাদের প্রতি গভীর শোক ও সমবেদনা জ্ঞাপন করে দোয়া-মোনাজাত করা হয়।

ভূমি মন্ত্রণালয়ের সচিব, ভূমি আপিল বোর্ডের চেয়ারম্যান, ভূমি সংস্কার বোর্ডের চেয়ারম্যান, ভূমি রেকর্ড ও জরিপ অধিদপ্তরের মহাপরিচালকসহ মন্ত্রণালয় এবং সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর