Logo
আজঃ Tuesday ০৭ February ২০২৩
শিরোনাম

মুন্ডুমালা পৌরসভায় অযত্ন অবহেলায় কোটি টাকার ট্রাক রোলার বিকল

প্রকাশিত:Tuesday ২৯ November ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ০৭ February ২০২৩ | ৮৮জন দেখেছেন
Image
তানোর(রাজশাহী)প্রতিনিধি:  রাজশাহীর তানোর উপজেলার মুন্ডুমালা পৌরসভায় সরকারের দেওয়া ৩ টি ট্রাক ও ২ টি রোলার দীর্ঘ দিন ধরে অযত্ন অবহেলায় বিকল হয়ে পড়ে রয়েছে। অবস্থাটা এমন সরকারী মাল দরিয়া মে ঢাল। এতে করে পৌরসভা হারাচ্ছে রাজস্ব অপর দিকে সরকারের সদ ইচ্ছা বিনষ্ট করেছেন পৌরসভার কর্তা বাবুরা। ফলে এত টাকা মূল্যের গাড়িগুলো নষ্টের জন্য মেয়র সচিবকেই দায়ী করছেন নাগরিকরা। এসব নিয়ে স্থানীয় সরকার বিভাগকে জরুরী পদক্ষেপ নিতে বিভাগীয় তদন্তের দাবি উঠেছে।
জানা গেছে, মুন্ডুমালা পৌরসভাটি প্রতিষ্ঠিত হয় ২০০১ সালের দিকে। প্রথম নির্বাচন হয় ২০০৪ সালে। প্রথমবারের মত মেয়র হন প্রয়াত বিএনপি নেতা শীশ মোহাম্মাদ। এরপর ২০১১ সালে আওয়ামীলীগ সভাপতি গোলাম রাব্বানী, ২০১৬ সালে নৌকা প্রতীকে তিনিই মেয়র হন। গত ২০২১ সালে নির্বাচনে মেয়র রাব্বানীর একান্ত সহচর সাইদুর রহমান জগ প্রতীকে বিদ্রোহী হয়ে মেয়র নির্বাচিত হন।
পৌরবাসী জানান, প্রথম দিকে একটি ট্রাক পরে আরো দুটি ও ২ টি রোলার দেয় সরকার। ৩ টি ট্রাক ও ২ টি রোলার মিলে প্রায় ৭০/৮০ লাখ টাকা হবে। কিন্তু এসব ট্রাক রোলার অযত্নে অবহেলায় নষ্ট হয়েছে। ঝড় বৃষ্টি হলে মেয়রদের জিপ গাড়ী থাকে যেখানে পানি পড়ে না সেখানে। অথচ সরকারে দেওয়া লাখ লাখ টাকা মুল্যের গাড়ীগুলো কর্তাবাবুদের অবহেলায় নষ্ট হয়ে দীর্ঘ দিন ধরে পড়ে রয়েছে। একটি ট্রাক ভালো ছিল সেটাতে কর্তাবাবুদের ব্যক্তিগত কাজের জন্য ব্যবহার করা হত। শুধু তাই না যখন ট্রাক রোলার ভালো ছিল তখন লাখ লাখ টাকা এসেছে, কোন হুূ্দিস নেই। ভাড়ার টাকা শুধু গিলেছে, আর এখন গাড়ীগুলো নষ্ট মেরামতের কোন উদ্দোগ নেয়। অবস্থাটা এমন সরকারের দেওয়া ট্রাক রোলার ভালো থাকলেই কি না থাকলেই কি, কারো তো মাথা ব্যাথা নেই। এসব গাড়ী ভালো থাকলে অনেক টাকা রাজস্ব আসত বেতনও হত।
পৌর সচিব আবুল হোসেন জানান, সব নষ্ট হয়নি, একটি ভালো আছে বলে দায় সারেন।
মেয়র সাইদুর রহমান জানান, দীর্ঘ দিন ধরে গাড়ীগুলো নষ্ট হয়ে আছে। গ্যারেজে দেওয়া হবে। তবে কবে কখন দেওয়া হবে সে ব্যাপারে কোনকিছুই বলেন নি।


আরও খবর