Logo
আজঃ বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪
শিরোনাম

মোবাইল ফোনে কথা বলার খরচ বাড়লো

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ০৬ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১০২জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:মোবাইলফোনের কল রেটের ওপর সম্পূরক শুল্ক ৫ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে ২০২৪-২৫ অর্থবছরের প্রস্তাবিত জাতীয় বাজেটে। এতে গ্রাহকদের মোবাইলফোনে কথা বলার খরচও বাড়বে।

আগে মোবাইলফোনের কল রেটের ওপর ১৫ শতাংশ ভ্যাট এবং ১৫ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক দিতে হতো গ্রাহকদের। এখন তা আরও ৫ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে। এর সঙ্গে ভোক্তাদের ১ শতাংশ সারচার্জ দিতে হবে।

নতুন করে সম্পূরক শুল্ক ৫ শতাংশ বাড়ানোয় একজন গ্রাহক এখন ১০০ টাকার রিচার্জ করলে ভ্যাট ও সম্পূরক শুল্ক কেটে নেওয়ার পর ৬৯ টাকা ৩৫ পয়সার কথা বলতে পারবেন। আগে ১০০ টাকা রিচার্জ করলে ভ্যাট ও সম্পূরক শুল্ক কেটে নেওয়ার পর গ্রাহকরা ৭৩ টাকার কথা বলতে পারতেন। অর্থাৎ ১০০ টাকা রিচার্জে আগের চেয়ে ৩ টাকা ৬৫ পয়সার কথা কম বলতে পারবেন গ্রাহকরা।

আগে মোবাইলফোনের কল রেটের ওপর ১৫ শতাংশ ভ্যাট এবং ১৫ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক দিতে হতো গ্রাহকদের। এখন তা আরও ৫ শতাংশ বাড়ানো হয়েছে। এর সঙ্গে ভোক্তাদের ১ শতাংশ সারচার্জ দিতে হবে।

এদিকে প্রস্তাবিত বাজেট ঘোষণার পরপরই নতুন এ শুল্ক হার কার্যকর করবে মোবাইলফোন অপারেটরগুলো। জানা যায়, বাজেট ঘোষণার জন্য অর্থমন্ত্রী জাতীয় সংসদে বক্তব্য দেওয়া শুরু করলেই এ সংক্রান্ত আদেশ (এসআরও) পাঠানো হয়। ফলে বৃহস্পতিবার (৬ জুন) বিকেল ৩টার পর থেকেই নতুন হারে গ্রাহকের কাছ থেকে কর কর্তন শুরু করা হতে পারে।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




রূপগঞ্জে সোশ্যাল মিডিয়ায় মিথ্যা অপপ্রচার উপজেলা ছাত্রলীগের প্রতিবাদ

প্রকাশিত:বুধবার ১২ জুন ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ৬০জন দেখেছেন

Image

আবু কাওছার মিঠু রূপগঞ্জ নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি:নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সদ্য ঘোষিত উপজেলা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় মিথ্যা অপপ্রচারে করায় প্রতিবাদ জানিয়েছেন উপজেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। বুধবার সকালে রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তানজীর আহমেদ খান রিয়াজ সাধারণ সম্পাদক মাসুম ভুইয়া এ প্রতিবাদ জানিয়েছেন। 

এ সময় রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তানজীর আহমেদ খান রিয়াজ বলেন, কিছুদিন পূর্বে রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। কমিটি ঘোষণার পর থেকে উপজেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা কেন্দ্র ঘোষিত সকল কার্যক্রম করে আসছে। এ ছাড়াও রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা সবসময় অসহায় মানুষের পাশে থেকে কাজ করছেন। এসব কাজে ঈশ্বার্নিত হয়ে একটি চক্র উপজেলা ছাত্রলীগের পিছনে কাজ করা শুরু করেন। এর পর থেকে উপজেলা ছাত্রলীগের বিভিন্ন পোস্টের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়ে আসছে।

আমরা রূপগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগ এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। রূপগঞ্জের স্বপ্নদ্রষ্টা সাংসদ গোলাম দস্তগীর গাজী সাহেব ও তার সুযোগ্য পুত্র রূপগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি গোলাম মর্তুজা পাপ্পা সাহেবের নেতৃত্বে আরো এগিয়ে যাবে।


আরও খবর



রাজধানীর ১৮টি ওয়ার্ড ডেঙ্গুর উচ্চ ঝুঁকিতে

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১৩৪জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:রাজধানীর দুই সিটির ১৮টি ওয়ার্ডে ডেঙ্গুর উচ্চ ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখার পরিচালক অধ্যাপক ডা. শেখ দাউদ আদনান।

মঙ্গলবার (২৮ মে) সকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে আয়োজিত মৌসুম পূর্ব এডিস সার্ভে-২০২৪ এর ফলাফল প্রকাশ অনুষ্ঠানে জরিপের তথ্য উপস্থাপন করা হয়।

কর্মশালায় জরিপের ফলাফল ঘোষণায় শেখ দাউদ আদনান বলেন, রাজধানীর দুই সিটির ১৮টি ওয়ার্ডে ডেঙ্গুর উচ্চ ঝুঁকিতে রয়েছে। ঢাকার দুই সিটির ৯৯টি ওয়ার্ডের ৩ হাজার ১৪৯টি বাসায় জরিপ চালিয়ে দেখা যায়, শতকরা ১৫ শতাংশ বাড়িতে এডিসের লার্ভা ও পিউপার উপস্থিতি পাওয়া গেছে। মিরপুর, বনানী, নিকেতন, হাতিরঝিল, মোহাম্মদপুর, খিলক্ষেত, মালিবাগসহ গতবারের ঝুঁকিপূর্ণ ওয়ার্ডগুলোই সর্বোচ্চ ঝুঁকিতে রয়েছে। এডিসের ঘনত্ব সর্বোচ্চ ৪২ দশমিক ৩৩ শতাংশ পাওয়া গেছে বহুতল ভবনে। এরপরই স্বতন্ত্র বাড়ি ও নির্মাণাধীন ভবনে লার্ভার হার ২১ দশমিক ৬ শতাংশ। এছাড়াও ঢাকা দক্ষিণের ১৬ দশমিক ৩৯ শতাংশ এবং ঢাকা দক্ষিণের ১৪ দশমিক ৩০ শতাংশ পরিত্যক্ত পাত্রে মশার লার্ভা পাওয়া গেছে।

ঝুঁকিপূর্ণ ওয়ার্ডগুলোর মধ্যে রয়েছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ১২, ১৩, ২০, ৩৬, ৩১, ৩২, ১৭ ও ৩৩ নম্বর এবং দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ১৩, ০৪, ৫২,৫৪, ১৬, ৩০, ০৫, ১৫, ১৭ ও ২৩ নম্বর ওয়ার্ড। ২০১৯ সাল থেকে ২০২৪ পর্যন্ত মৌসুম পূর্ব জরিপে উভয় সিটি করপোরেশনেই এডিসের লার্ভার উপস্থিতি বেড়েছে। তাই লক্ষণ প্রকাশপেলেই সময় নষ্ট না করে হাসপাতালে আসার আহ্বান জানান তিনি।

কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে ইমেরিটাস অধ্যাপক ডা. এ বি এম আব্দুল্লাহ বলেন, সারা দেশের প্রতিটি ঘরে ঘরে ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়েছে। এই রোগের সুনির্দিষ্ট কোনো চিকিৎসা নেই। রোগীর লক্ষণের ওপর ভিত্তি করে চিকিৎসা দেওয়া হয়। তাই সবাইকে সচেতন হতে হবে রোগটি যেন না হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এবিএম খুরশীদ আলম বলেন, চলতি বছরের মে মাস পর্যন্ত সারা দেশে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছে প্রায় পৌনে ৩ হাজার মানুষ। এই সময়ে রোগটিতে মৃত্যু হয়েছে ৩৪ জনের। যেখানে গত বছরের ২৭ মে পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছিল ১৭০৪ জন এবং মৃত্যু হয়েছিল ১৩ জনের। এই পরিসংখ্যানই বলছে এবারের ডেঙ্গু কতটা ভয়াবহ রূপ নিতে পারে।

এবিএম খুরশীদ আলম বলেন, পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, অনেকেই মনে করেন ঢাকায় ভালো চিকিৎসা পাওয়া সম্ভব। তাই জেলা বা উপজেলা হাসপাতাল থেকে তারা ঢাকার উদ্দেশে রওনা করেন। দীর্ঘ যাত্রা পথে শরীরে জটিলতা সৃষ্টি হয় এবং পথেই মৃত্যু বরণ করেন।

মহাপরিচালক বলেন, ডেঙ্গুতে যেন মৃত্যু না হয় সে জন্য আমরা দেশের সব হাসপাতাল প্রস্তুত রাখতে নির্দেশ দিয়েছি। প্রয়োজনীয় স্যালাইন ও আনুষঙ্গিকের ব্যবস্থা করা হয়েছে। পাশাপাশি প্রাণহানি এড়াতে বিভিন্ন বিভাগের চিকিৎসকদের সমন্বিত চিকিৎসার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

উপস্থিত ছিলেন অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আহমেদুল কবীর, রোগ নিয়ন্ত্রণ শাখার কর্মসূচি ব্যবস্থাপক ডা. এম এম আক্তুরুজ্জামান প্রমুখ।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪




ফুলবাড়ী সহকারী কমিশনার (ভূমি) সিনিয়র সহকারী সচিব হিসাবে পদোন্নতি

প্রকাশিত:শনিবার ১৮ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১৪২জন দেখেছেন

Image

ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভুমি) মুহাম্মদ জাফর আরিফ চৌধুরী পদোন্নতি পেয়ে সিনিয়র সহকারী সচিব হিসাবে নিয়োগ পাওয়া তাকে গতকাল শুক্রবার ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মীর মোঃ আল কামাহ তমাল। এসময় উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা শফিউল ইসলাম, জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তা সোহানুর রহমান সুমন সহ প্রিন্ট মিডিয়ার সংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। 

তিনি ফুলবাড়ী উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) হিসাবে দায়িত্বে থাকাকালীন সততা ও নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। পাশাপাশি ফুলবাড়ী বিভিন্ন অপরাধ দমনেরও সক্রিয় ভূমিকা পালন করেন। তিনি পদোন্নতি পাওয়ায় বিভিন্ন রাজনৈতিকমহল, ফুলবাড়ী থানা প্রেসক্লাব এর সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক সহ সকল সাংবাদিকবৃন্দ, সুধিজন তাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। এবং তার উত্তর উত্তর সমৃদ্ধি কামনা করেন। 


আরও খবর



আম্বানি পুত্রের বিয়েতে গাইবেন শাকিরা

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৮ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১৬৫জন দেখেছেন

Image

বিনোদন ডেস্ক:ভারতীয় ধনকুবের মুকেশ আম্বানীর ছোট ছেলের বিয়ের তারিখ জুলাই মাসে। তবে প্রাক‌্‌-বিবাহ অনুষ্ঠান শুরু হয় মার্চ মাস থেকেই। এ বার দ্বিতীয় প্রাক্‌-বিবাহ অনুষ্ঠানের পালা। একটি মাত্র প্রাক্-বিবাহ অনুষ্ঠানেই যে আয়োজন শেষ হবে না, সেটাই তো স্বাভাবিক। অনন্ত আম্বানী ও তার হবু বউ রাধিকা মার্চেন্টের প্রাক্-বিবাহ অনুষ্ঠান এ বার ভারতে নয়, হবে অন্য দেশে। ইতালিকেই বেছে নিয়েছেন আম্বানীরা।

আম্বানিবাড়ির ছোট ছেলের প্রথম প্রাক্‌-বিয়ের আয়োজনে খরচ হয়েছে হাজার কোটি টাকার বেশি। ভারতের গণমাধ্যম বলছে, সেটিই ছিল বিশ্বের সবচেয়ে ব্যয়বহুল বিয়ে। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ভারতের গুজরাটের জামনগরে হাজির হয়েছিলেন ধনকুবের আর তারকারা। বাদ যাননি এম এস ধোনি, ডোয়াইন ব্রাভো, শচীন টেন্ডুলকার বা রহিত শর্মার মতো ক্রিকেটাররাও। ছিলেন মাইক্রোসফটের প্রতিষ্ঠাতা বিল গেটস, মার্কিন ব্যবসায়ী ইভাঙ্কা ট্রাম্প, ফেসবুকের সিইও মার্ক জাকারবার্গ, গুগলের সিইও সুন্দর পিচাইও।

রিহানার মতো পপ তারকা এসেছিলেন অনন্ত-রাধিকার প্রথম প্রাক্‌-বিবাহ অনুষ্ঠানে। তিনি মঞ্চ কাপাতে নিয়েছিলেন ৭৪ কোটি রুপি। আম্বারি পুত্রের দ্বিতীয় প্রাক বিয়ের অনুষ্ঠানেও থাকছে নানা চমক। তাদের দ্বিতীয় প্রাক্‌-বিবাহ অনুষ্ঠানের পার্টিতে মঞ্চ কাঁপাতে পারেন কলম্বিয়ার পপ গায়িকা শাকিরা। ডেসটিনেশন প্রি-ওয়েডিংয়ে এবার আগের থেকেও বেশি অর্থ ব্যায় করবে আম্বানিরা তা বলাই বাহুল্য।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ২৯ মে থেকে ১ জুন পর্যন্ত চলা এই অনুষ্ঠানে শাকিরা ছাড়াও মঞ্চ মাতাতে পারেন ডুয়া লিপা ও এআর রহমান। এখন অনেকের মনেই প্রশ্ন উঠছে কয়েক ঘণ্টার জন্য গাইতে কত টাকা পারিশ্রমিক নিচ্ছেন শাকিরা? খবর অনুযায়ী, শাকিরা অনুষ্ঠানের জন্য পারিশ্রমিক হিসেবে নিচ্ছেন ১০ থেকে ১৫ কোটি রুপি।

জানা গেছে, অতিথিদের সঙ্গে বিলাসবহুল ক্রুজ শিপে চড়ে দ্বিতীয় প্রাক্‌–বিবাহ অনুষ্ঠান উপভোগ করবেন অনন্ত-রাধিকা। ইতালি থেকে ফ্রান্সের দক্ষিণ প্রান্ত; সমুদ্রপথে প্রায় সাড়ে চার হাজার কিলোমিটার পাড়ি দেবে বিলাসবহুল ক্রুজটি। এ অনুষ্ঠানের অতিথি তালিকায় ৮০০ জনের বেশি মানুষের নাম রয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। ক্রুজে থাকবেন প্রায় ৬০০ জন কর্মী।

এই অনুষ্ঠানে সপরিবার শাহরুখ খানকেও আমন্ত্রণ জানানো হবে। আমন্ত্রিতদের তালিকায় থাকবেন সালমান খানও। এ ছাড়া রণবীর-আলিয়া, রণবীর-দীপিকা, নিক-প্রিয়াঙ্কা, সিদ্ধার্থ-কিয়ারা জুটি হাজির থাকবেন এই অনুষ্ঠানে।

তবে নিক জোনাস ছাড়া আর কোনো বিদেশি তারকা হাজির থাকবেন, তা এখনো জানা যায়নি। ইতিমধ্যেই লন্ডনে এই ক্রুজের আয়োজন শুরু করে ফেলেছে আম্বানি পরিবার। জুলাই মাসের প্রথম দিকেই অনন্ত-রাধিকার চার হাত এক হওয়ার কথা। বিদেশে প্রি-ওয়েডিং সেরে মুম্বাইতে বিয়ের আসর বসবে।

এদিকে, রোববার মধ্যরাত থেকেই মুম্বাই বিমানবন্দরে একের পর বলিতারকাদের আগমন ঘটে। প্রথমেই দেখা যায় আলিয়া ভাট ও মেয়ে রাহা কাপূরকে কোলে নিয়ে বিমানবন্দরে ঢোকেন রণবীর কাপুর। তারপর স্ত্রী ও মেয়েকে নিয়ে ছবিশিকারিদের ক্যামেরাবন্দি হন মহেন্দ্র সিংহ ধোনি। এরপর মুম্বাই বিমানবন্দরে হালকা নীল রংয়ের শার্ট ও জিন্স পরে দেখা যায় সালমান খানকে। তাদের গন্তব্য অনন্ত আম্বানি-রাধিকা মার্চেন্টের দ্বিতীয় প্রাক বিবাহ অনুষ্ঠানে।

অন্যদিকে, বলিউড অন্দরের খবর অনুযায়ী রণবীর কাপুর ও আলিয়া ভাট নাকি অনন্ত ও রাধিকার দ্বিতীয় প্রাক্-বিবাহ অনুষ্ঠানে মঞ্চ কাপাতে পারেন। এছাড়াও নিমন্ত্রিত থাকছেন বলিউডের তিন খানের পরিবার।

আগামী ১২ জুলাই সাত পাকে বাঁধা পড়তে চলেছেন অনন্ত ও রাধিকা। গেল মার্চে প্রথম প্রাক্‌ বিবাহ অনুষ্ঠানে এলাহি কাণ্ড করেছিল আম্বানিরা। তবে অনন্ত-রাধিকার দ্বিতীয় প্রাক্‌-বিবাহ অনুষ্ঠান যে প্রথমবারের অনুষ্ঠানকে ছাপিয়ে যাবে তা বলাই বাহুল্য।


আরও খবর



তরুণদের উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তুলতে কাজ করছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:রবিবার ১৯ মে ২০২৪ | হালনাগাদ:বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪ | ১২৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জানিয়েছেন তরুণ প্রজন্মদের উদ্যোক্তা হিসেবে গড়ে তুলতে কাজ করছে সরকার বলে।

রোববার (১৯ মে) সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ১১তম জাতীয় ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের পণ্য মেলায় উদ্বোধনীয় অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, শুধু পণ্য উৎপাদন করলেই হবে না। পণ্য উৎপাদনের সঙ্গে সঙ্গে পণ্য বাজারজাত করণের দিকেও নজর দিতে হবে। বিশ্ব অর্থনীতির প্রভাব পড়ছে বাংলাদেশে। তবে মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে সরকার। দেশের শিল্পখাতে ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

সরকারপ্রধান বলেন, ২০০৯-২৩ এ বাংলাদেশ বদলে গেছে। প্রতিটি ক্ষেত্রেই ব্যাপক অগ্রগতি হয়েছে। সেই জায়গা থেকে আরও সামনে এগিয়ে যেতে হবে। কৃষি উৎপাদন বাড়াতে হবে। তারই পাশাপাশি শিল্পায়ন করতে হবে।

তিনি বলেন, মানুষের উদ্যম কাজে লাগাতে পারলেই সোনার বাংলাদেশ গড়ে তোলা যাবে। এসএমই উদ্যোক্তারা একক বা যৌথভাবে অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগ করতে পারে। নারী-পুরুষকে সমানভাবে উদ্যোক্তা করতে পারলে দেশ দ্রুত এগিয়ে যাবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, কোভিড, ইউক্রেন-রাশিয়া যুদ্ধ, স্যাংশন-পাল্টা স্যাংশন না হলে দেশ আরও এগিয়ে যেত। এর ওপর গাজায় ইসরায়েলের আক্রমণ। পণ্য পরিবহন, সঞ্চালন, আমদানি ব্যয় অনেক বেড়েছে। ফলে মূল্যস্ফীতি বেড়েছে। তবে তা নিয়ন্ত্রণে আপ্রাণ চেষ্টা করছে সরকার। আমাদের দেশীয় উৎপাদন বাড়াতে হবে।


আরও খবর

মেট্রোরেল ঈদের দিন বন্ধ থাকবে

বৃহস্পতিবার ১৩ জুন ২০২৪