Logo
আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

কোনো অবস্থায় বিশৃঙ্খলা করতে দেওয়া যাবে না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত:শুক্রবার ০৮ ডিসেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১৬৩জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:কেউ যেন বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে, সেদিকে লক্ষ্য রাখতে বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, একটি অপশক্তি বিশৃঙ্খলা করতে চেষ্টা করবে। কোনো অবস্থায় বিশৃঙ্খলা করতে দেওয়া যাবে না। এ ব্যাপারে সবাইকে সজাগ থাকতে হবে। আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের একসঙ্গে কাজ করতে হবে।

বৃহস্পতিবার (৭ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপড়ায় নিজ বাসভবনে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের সঙ্গে বৈঠকে এসব কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, নির্বাচনি আচরণবিধি ভঙ্গ করা যাবে না। নির্বাচন কমিশন ঘোষিত নির্বাচন আচরণবিধি প্রতিপালন করতে হবে। এর কোনো ব্যত্যয় ঘটানো যাবে না।

এ সময় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন, অগ্রগতি ও সমৃদ্ধির ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা চালাতে হবে। জনগণের দোরগোড়ায় যেতে হবে। সরকারের সাফল্যের কথা তুলে ধরতে হবে।

তিনি আরও বলেন, সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের উজ্জীবিত করে রাজপথে নামাতে হবে। আমার মা, বাবা, ভাই নেই। আপনারাই আমার সব। আমার সব কিছুই আপনারা দেখবেন।

এর আগে বিকেলে ছোট বোন শেখ রেহানা ও পরিবারের সদস্যদের নিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন ও দোয়া করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ সময় ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট হত্যাকাণ্ডের শিকার বঙ্গবন্ধু ও সব শহিদের রুহের শান্তি কামনা করে দোয়া করেন।

পুষ্পস্তবক অর্পণের পর প্রধানমন্ত্রী স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে কিছুক্ষণ নীরবে দাঁড়িয়ে ছিলেন।


আরও খবর



মহাত্মা গান্ধী আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার ভূষিত (উপ) পরিচালক আব্দুস সালাম

প্রকাশিত:রবিবার ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ২০জন দেখেছেন

Image

কলারোয়া(সাতক্ষীরা)প্রতিনিধি:মহাত্মা গান্ধী আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার পেলেন উন্নয়ন পরিচালক (উপ) নির্বাহী পরিচালক আব্দুস সালাম। মানব ও সমাজসেবায় বিশেষ অবদানের জন্য মহাত্মা গান্ধী আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার-২০২৪ পদকে ভূষিত হয়েছেন। বাংলাদেশের ভারত সীমান্ত ঘেষা সাতক্ষীরার কলারোয়ার উন্নয়ন পরিষদ (উপ) নির্বাহী পরিচালক আব্দুস সালাম। বৃহস্পতিবার (২২ফেব্রæয়ারি) বিকেল ৫টায় পশ্চিমবঙ্গের যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ত্রিগুনা সেন হল মিলনায়তনে সার্ক কালচারাল ফোরামের উদ্যোগে ভারত-বাংলাদেশ সম্প্রীতি উৎসবে তাকে ওই পদকে ভূষিত করা হয়।

সংবর্ধনা প্রদান অনুষ্ঠানে ক্রেষ্ট ও সনদপত্র তুলে দেন ভারত সরকারের পশ্চিমবঙ্গের এম এল এ দেবাশিষ মূখার্জী ও বাংলাদেশের ড. মাহফুজুর রহমান, চেয়ারম্যান এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজ, ভারতের সার্ক কালচারাল ফোরামের সভাপতি এটিএম মমতাজুল করিম সহ পশ্চিমবঙ্গের গুনিজন ব্যক্তিবর্গ। এদিকে সাতক্ষীরার কলারোয়ার উন্নয়ন পরিষদ (উপ) এর নির্বাহী পরিচালক আব্দুস সালাম মহাত্মা গান্ধী আন্তর্জাতিক শান্তি পুরস্কার পাওয়ায় অভিনন্দন জানিয়েছেন সংস্থার সকল কর্মকর্তা কর্মচারীবৃন্দ।


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




নওগাঁয় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে খোলা আকাশের নিচে ১৯ টি পরিবার

প্রকাশিত:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৯১জন দেখেছেন

Image

নওগাঁ প্রতিনিধি:নওগাঁর বদলগাছী ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ১৯টি পরিবারের ঘর সহ যাবতীয় আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়েছে। এছাড়াও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ১০ থেকে ১২টি পরিবার তবে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনাই।শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারী ) দুপুর ২ টায় উপজেলার আধাইপুর ইউনিয়নের রসূলপুর গ্রামের আদিবাসী পাড়ায় এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। 

বদলগাছী ফায়ার সার্ভিস ষ্টেশন অফিসার মোঃ মহিদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। তবে আগুনের সূত্রপাত সম্পর্কে বলেন শর্ট সার্কিট থেকে এই  আগুন লাগতে পারে বলে জানান তিনি। আরো বলেন তিনি এটি ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড ছিল এই আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে আড়াই ঘন্টার মতো সময় লেগেছে। 

ক্ষতিগ্রম্ত বিমল চন্দ্র বলেন, আমার বাড়িতে বৈদ্যুতিক তার থেকে আগুনের সূত্রপাত শুরু হয়। এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় আমারসহ আরও ১৯ টি পরিবারের ঘরসহ যাবতীয় আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়েছে। এই আগুনের শুরু থেকেই আমরা অনেক চেষ্টা করেও আগুন নিয়ন্ত্রণ করতে পারি নাই। পরে ফায়ার সার্ভিস এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

প্রত্যক্ষদর্শী শাহীনুর ইসলাম বলেন, আগুনে যাদের ঘর পুড়েছে তারা সবাই খেটে খাওয়া দিনমজুর। এই আগুন এমন ভাবে শুরু হয়েছে কোনো ঘর থেকেই কিছু উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। ঘরে থাকা চাল, ডাল, খাতা কলম, টাকা-পয়সা স্বর্ণলোকার,কাপড়-চোপড় ও শীতের পোশাক  সহ সব পুড়ে ছাই এবং তিনটি গবাদি পশু পুড়ে গিয়েছে  এই পরিবারগুলো সব হারিয়ে একদম নিঃস্ব রাতের খাবার পরনের কাপড় ও ঘুমানোর জায়গাও নেই এখন। 

ফেরদৌস নামে এক ব্যক্তি বলেন, আজকের অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় এই ব্যক্তিগুলোর বিপুল পরিমাণ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে কমপক্ষে -৩০-৩৫ লাখ টাকার ক্ষতি  হয়েছে এখন তারা নিঃস্ব।

সহকারী কমিশনার (ভূমি) আতিয়া খাতুন বলেন, অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাটি মর্মান্তিক একটি ঘটনা সেখানে ১৯ টি পরিবারের ঘরবাড়ী সব পুড়ে ছাই। প্রত্যেক পরিবার কে নগদ পাঁচ হাজার টাকা দুই প্যাকেট শুকনো খাবার,এবং দুটি করে কম্বল দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি । এছাড়াও আধাইপুর ইউনিয়ন পরিষদ এবং  মুক্তিযোদ্ধাদের সাবেক কমান্ডার জবির উদ্দিন (এফএফ) পক্ষ থেকে প্রত্যেক ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার কে একটি শাড়ী এবং লুঙ্গি দিওয়া হয়। 

আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




রোজার আগেই বাড়ছে বিদ্যুতের দাম

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৫২জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:মার্চে বাড়ছে বিদ্যুতের দাম। তা কার্যকর করা হবে রমজান মাস আসার আগেই। এক্ষেত্রে বিদ্যুতের দাম প্রতি ইউনিট ৩৪ থেকে ৭০ পয়সা বাড়ছে বলে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ ও জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ।

মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সচিবালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা জানান তিনি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, বিদ্যুতের নতুন দাম কার্যকর হবে মার্চের প্রথম সপ্তাহ থেকেই। বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর গেজেট মঙ্গলবার জারি হতে পারে। এছাড়া, আন্তর্জাতিক বাজার বিবেচনা করে মার্চ থেকে তেলের দামও সমন্বয় করা হবে বলে জানান তিনি।

তিনি বলেন, ৫০ ইউনিট ব্যবহারকারীদের জন্য প্রতি ইউনিট ৩৪ পয়সা দাম বাড়বে। এর উপরে প্রতি ইউনিট ধাপ ভেদে ৭০ পয়সা পর্যন্ত দাম বাড়ানো হবে। আর যেসব ক্ষেত্রে গ্যাস ব্যবহার করে বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হয়, সেখানে প্রতি ইউনিট বিদ্যুতের দাম বাড়ছে ৭৫ পয়সা। তবে আবাসিক খাতে গ্রাহক পর্যায়ে গ্যাসের দাম আপাতত বাড়ছে না বলে জানিয়েছেন প্রতিমন্ত্রী।

ডলারের বিনিময় হার বেড়ে যাওয়ায় দাম সমন্বয় করা হচ্ছে উল্লেখ করে প্রতিমন্ত্রী বলেন, বিদ্যুত খাতে ৪৩ হাজার কোটি টাকা ও গ্যাসে ৬ হাজার কোটি টাকা ভর্তুকি দেয়া। তাই আগামী কয়েক বছর এভাবে বাড়িয়ে দাম সমন্বয় করা হবে। এই খাতে ভর্তুকি থেকে সরকার বেরিয়ে আসতে চায়।

এর আগে, ইন্টারন্যাশনাল ইসলামিক ট্রেড ফাইন্যান্স করপোরেশনের (আইটিএফসি) প্রতিনিধি দলের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী। বৈঠকের পর তিনি জানান, আইটিএফসি বাংলাদেশকে ২.১ বিলিয়ন ডলার সহায়তা করবে। এর মধ্যে ৫শ’ মিলিয়ন ডলার তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) কেনার জন্য, বাকি টাকা তেল কেনায় সহায়তা করবে। ভবিষ্যতে সহায়তার পরিমাণ আরও বাড়বে বলে জানান প্রতিমন্ত্রী।


আরও খবর



ফোনের বাজারে আসছে ‘লং-লাস্টিং ভ্যালু কিং’ রিয়েলমি নোট ৫০

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১০৫জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:ঢাকা, ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪: বিশ্বের দ্রুত বর্ধনশীল স্মার্টফোন ব্র্যান্ড রিয়েলমি স্মার্টফোনের দুনিয়া কাঁপাতে নিয়ে আসছে রিয়েলমি নোট ৫০। অসাধারণ স্থায়িত্ব ও আকর্ষণীয় মূল্যের সমন্বয়ে একটি অনন্য এন্ট্রি-লেভেল স্মার্টফোন হতে যাচ্ছে এটি। রিয়েলমি নোট ৫০ ডিভাইসটি আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ তারিখে স্মার্টফোনের বাজারে উন্মোচন করা হবে। একটি “লং লাস্টিং ভ্যালু কিং” হিসেবে নিজের অবস্থান ধরে রাখার প্রত্যাশা রয়েছে এই টেক ফোনটির। পাশাপাশি স্মার্টফোন প্রেমীদের একটি মানসম্মত ইউজার এক্সপেরিয়েন্সও নিশ্চিত করবে নতুন রিয়েলমি নোট ৫০।

প্রতিদিনের ব্যবহারে ফোনপ্রেমীরা অনুভব করবেন নির্ভরযোগ্যতা ও গুণগতমানের অনন্য সংমিশ্রণ

ধুলা ও পানি-রোধী ফিচার, একটি কঠিন গ্লাস স্ক্রিন এবং ফোন পড়ে গেলেও ভেঙে যাওয়ার হাত থেকে রক্ষা করতে একটি মজবুত অ্যালুমিনিয়াম কাঠামো সমৃদ্ধ রিয়েলমি নোট ৫০ টেকপ্রেমী গ্রাহকদের দেবে অসাধারণ স্থায়িত্বের গ্যারান্টি! এ সকল নির্ভরযোগ্য ফিচার ৪৮ মাস পর্যন্ত রিয়েলমি’র স্মার্টফোন ব্যবহারকারীকে একটি মসৃণ অভিজ্ঞতার নিশ্চয়তা দেয়। এছাড়াও, এর দীর্ঘস্থায়ী ব্যাটারি ফ্ল্যাগশিপ-লেভেলের ব্যাটারি লাইফ সরবরাহ করবে।

একটি অক্টা-কোর প্রসেসর ও আনটুটু বেঞ্চমার্কের উল্লেখযোগ্য স্কোর পাওয়া রিয়েলমি নোট ৫০ তরুণ স্মার্টফোন প্রেমীদের দেবে ধারণাতীত গতিসম্পন্ন গেমিং ও অ্যাপ চালানোর সুযোগ! স্মার্টফোনটিতে রয়েছে ৪ জিবি+৬৪ জিবি এবং ৪ জিবি+১২৮ জিবি র‌্যাম-রম সহ একটি ৫০০০ এমএএইচ এর শক্তিশালী ব্যাটারি, যার মাধ্যমে টানা ১০৬ ঘণ্টা ধরে নিরবচ্ছিন্নভাবে গান চালানো সম্ভব। এর নতুন ডিজাইন করা মিনি ক্যাপসুল ফিচারের মাধ্যমে ব্যবহারকারীরা ফোনের স্ক্রিনে মূল তথ্যগুলো সহজে দেখার সুযোগ পাবেন। আরও রয়েছে সাইড ফিঙ্গারপ্রিন্ট রেকগনিশন সুবিধা। এই ফিচারের মাধ্যমে যে কোনো সময় দ্রতই ফোন আনলক করা যাবে।

স্কাই ব্লু ও মিডনাইট ব্ল্যাক- রিয়েলমি নোট ৫০ ডিভাইসে ব্যবহার করা হয়েছে এই দুই রঙের ব্যাক কাভার। ফলে স্টাইল ও নির্ভরযোগ্যতার অনন্য সংমিশ্রণ ঘটেছে ডিভাইসটিতে। ফোনকে সহজে হাতে ধরতে স্লিম বডি ও হালকা কাঠামোতে এর ডিজাইন করা হয়েছে। এতে রয়েছে অসাধারণ ৯০.৩% স্ক্রিন-টু-বডি রেশিওর ৬.৭৪- ইঞ্চির ফুল-স্ক্রিন ডিসপ্লে এবং বাইরে ছবি তোলা বা ভিডিওর জন্য ৫৬০ নিটের দারুণ উজ্জ্বলতা। এর ৯০ হার্টজের হাই রিফ্রেশ রেট এবং বিস্তৃত কালার রেঞ্জ নিরবচ্ছিন্নভাবে একটি অনন্য ও বৈচিত্র্যময় ভিজ্যুয়াল যাত্রার অভিজ্ঞতা দেবে রিয়েলমি প্রেমীদের।

টেক প্রেমীদের একটি নির্ভরযোগ্য ও সেরা স্মার্টফোনের অভিজ্ঞতা প্রদানে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ তরুণদের জনপ্রিয় স্মার্টফোন ব্র্যান্ড রিয়েলমি। তাই আরও নতুনভাবে ফোন প্রেমীদের সামনে রিয়েলমি এবার হাজির হতে যাচ্ছে নোট ৫০ সিরিজটি নিয়ে। নির্বিঘ্ন পারফরম্যান্স, উদ্ভাবনী ফিচারসমূহ ও উল্লেখযোগ্য ডিজাইনের কারণে এই স্মার্টফোনটি ভীড়ের মধ্যেও গ্রাহকদের নজর কেড়ে নেবে। বৈচিত্র্যময়তা ও সহজে ব্যবহারযোগ্যতার একটি দারুণ সংমিশ্রণ রিয়েলমি নোট ৫০। প্রতিদিন স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের মনের আনন্দে ফোন ব্যবহারের নিশ্চিত সমাধান হতে পারে এই ডিভাইসটি।

ব্যবহারকারীরা ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ দুপুর ১২ টায় নোট ৫০ উন্মোচন সম্পর্কে ফেসবুক এবং ইউটিউব লাইভ স্ট্রিমিং দেখতে পাবেন। রিয়েলমি নোট ৫০ -এর উন্মোচন সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্যের জন্য, স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরা রিয়েলমি বাংলাদেশের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ https://www.facebook.com/realmeBD/ - এ ঘুরে আসতে পারেন।


আরও খবর



পোরশায় দাফনের ৪মাস পর কবর থেকে অফিস সহায়কের লাশ উত্তোলন

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ২০ ফেব্রুয়ারী ২০24 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৬১৫জন দেখেছেন

Image

পোরশা (নওগাঁ) প্রতিনিধি :নওগাঁর পোরশায় দাফন করার প্রায় ৪মাস পর মোকসেদ আলী(৫৫) নামের এক অফিস সহায়কের লাশ কবর থেকে উত্তোলন করা হয়েছে। তিনি উপজেলার সোমনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের অফিস সহায়ক হিসাবে কর্মরত ছিলেন।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মনিরুজ্জামানের উপস্থিতিতে স্থানীয় সোমনগর কবরস্থান থেকে তার লাশ উত্তোলন করা হয়।

জানা গেছে, অফিস সহায়ক মোকসেদ আলী গত বছরের ৬নভেম্বর দিবাগত রাতে মারা যান। স্ট্রোকজনিত কারনে মোকসেদের মৃত্যু হয়েছে বলে পরিবারের পক্থে কে জানানো হয়। সে কারনে পরের দিন মঙ্গলবার জোহরের নামাজের পর সোমনগর মসজিদে মরহুমের নামাজে জানাজা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করা হয়েছিল। এর কিছুদিন পরে তার বোন সাপাহার উপজেলার মামুরিয়া গ্রামের শফিউদ্দিনের স্ত্রী হাসিনা বেগম তার ভাইয়ের মৃত্যুকে স্বাভাবিক নয় দাবি করে নওগাঁ ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মোকসেদ  আলীর স্ত্রী জান্নাতুন ফেরদৌস ও একই গ্রামের নূর মোহাম্মদের ছেলে মিজানুর রহমানকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার পরিপ্রেক্ষিত স্থানীয় থানা পুলিশ মিজানুর রহমান এবং ঔ গ্রামের লোকমানের ছেলে রহমত আলীকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করেন এবং মোকসেদের স্ত্রী জান্নাতুন আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। আদালতে মামলার শুনানি শেষে আদালত মোকসেদ আলীর লাশ কবর থেকে তুলে ময়না তদন্তের জন্য নির্দেশ দেন। লাশ উত্তোলনের সময় সাপাহার সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার এমএম সবুজ রানা, পোরশা থানার অফিসার ইনচার্জ আতিয়ার রহমান উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪