Logo
আজঃ Monday ২৯ November ২০২১
শিরোনাম
নৌকা পরাজিত স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান হলো তৃতীয় লিঙ্গের ঋতু! তৃতীয় ধাপে ইউনিয়ন নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ, চলছে গণনা কুমিল্লায় নৌকা পেয়েও সরে দাড়ালেন বাহালুল, প্রাথমিক সদস্য না হয়েও মনোনীত নূরুল! মাতুয়াইলে সড়ক উন্নয়ন কাজের উদ্ধোধন করলেন সংসদ সদস্য কাজী মনু পলো উৎসবে মাছ ধরায় মেতেছে মানুষ, চির চেনা বাংলা গাজীপুরে ৩০ সেকেন্ডেই মা-মেয়ের জীবন শেষ করল দুই খুনি হয়নি হাফ পাসের সিদ্ধান্ত,টাস্কফোর্স গঠনের প্রস্তাব আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রংপুরের তারাগঞ্জে ট্রাকচাপায় তিন নারী শ্রমিক নিহত কুমিল্লার তিতাস ও মেঘনা উপজেলায় ইউপি নির্বাচনে বিজয়ী যারা !
ইউপি নির্বাচনে শৃঙ্খলা ভঙ্গ করলে কঠোর ব্যবস্থা: সেতুমন্ত্রী

ইউপি নির্বাচনে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ করলে কঠোর ব্যবস্থা: ওবায়দুল কাদের

প্রকাশিত:Monday ০১ November ২০২১ | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ১৩৯জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


 

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে মনোনয়নকে কেন্দ্র করে যারা সাংগঠনিক শৃঙ্খলা ভঙ্গ করছেন, নিজেদের মধ্যে সংঘাত- সংঘর্ষে লিপ্ত হচ্ছেন তাদেরকে সাংগঠনিক শৃঙ্খলা বিরোধী তৎপরতা থেকে বিরত থাকতে নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে।

 

তিনি বলেন, সাংগঠনিক শৃঙ্খলা ভঙ্গকারী এবং তাদের মদদদাতা, উস্কানিদাতা নেতা ও জনপ্রতিনিধিরাও দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে কঠোর সাংগঠনিক ব্যবস্থার সম্মুখীন হবেন।সোমবার সকালে সংসদ ভবন এলাকায় নিজ বাসভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

 

শৃঙ্খলা ভঙ্গকারী এবং তাদের মদদদাতাদের বিরুদ্ধে দলীয় প্রধানের নির্দেশে তালিকা তৈরি করা হচ্ছে জানিয়ে তিনি বলেন, অপকর্ম করলে কেউ রেহাই পাবে না; শাস্তি তাদের  পেতেই হবে। কৌশলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় কেউ নির্বাচিত হলে শৃঙ্খলা বিরোধী অপকর্ম বলে গণ্য করা হবে।

 

তিনি বলেন, ক্ষমতায় যেতে আওয়ামী লীগের কোন ষড়যন্ত্রের প্রয়োজন হয় না, আওয়ামী লীগ এদেশের মাটি ও মানুষের দল। বঙ্গবন্ধু এ দেশের মানুষের জন্য আজীবন সংগ্রাম করেছেন, আর এখন তার কন্যা শেখ হাসিনা পিতার স্বপ্ন পূরণে অবিরাম লড়ে যাচ্ছেন।

 

ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ জনগণের রাজনীতি করে বলেই জনগণ আওয়ামী লীগের প্রাণ শক্তি। অপরদিকে যারা ক্ষমতাকে নিজের ভাগ্য বদলের চাবি মনে করে এবং দেশে বিদেশে সম্পদের পাহাড় গড়ে,ষড়যন্ত্র, হত্যা ও সন্ত্রাস নির্ভর রাজনীতি করে তাদের জনগণ প্রত্যাখ্যান করেছে।

 

খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



ত্রিশালে সড়ক দূর্ঘটনায় দুই সহোদর নিহত

ময়মনসিংহের ত্রিশালে সড়ক দূর্ঘটনায় দুই ভাই নিহত

প্রকাশিত:Tuesday ০২ November 2০২1 | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ২০০জন দেখেছেন
Image



 

মতিউল আলম, ময়মনসিংহ : 


ময়মনসিংহের ত্রিশালে এক সড়ক দূর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী দুই সহোদর ভাই নিহত হয়েছেন। সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের কাজীর শিমলায় এই মর্মান্তিক দূর্ঘটনা ঘটে।

ত্রিশাল থানার অফিসার ইনচার্জ মো মাইন উদ্দিন জানান, সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের ত্রিশাল উপজেলার কাজীর শিমলা নামক স্থানে মোটরসাইকেল আরোহীকে বাংলাদেশ পার্সেল এন্ড কুরিয়ার সার্ভিসের কাভার্ড ভ্যান পেছন থেকে ধাক্কা দিলে মোটরসাইকেল আরোহী ফিরোজ মোর্শেদ ও তৌহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থইে নিহত হয়।

নিহতরা জামালপুর সদরের নান্দিনা খড়খড়িয়া গ্রামের আজিজুল হকের ছেলে। গাজীপুরের নয়াপুর থেকে গ্রামের বাড়ী যাচ্ছিল। ফিরোজ মোর্শেদ গাজীপুরে ডিবিএল সিরামিক্স কারখানায় চাকুরী করতেন। তার ছোট ভাই তৌহিদুল চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী ও বিসিএস পরীক্ষার্থী ছিলেন।

 

নিহতদের লাশ উদ্ধার এবং পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। কাভার্ড ভ্যান চালককে আটক করা হয়েছে।

-খবর প্রতিদিন /সি.বা

নিউজ ট্যাগ: সড়ক দূর্ঘটনা

আরও খবর



আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত:Saturday ২৭ November ২০২১ | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ৭৭জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


আলেম-ওলামাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।শনিবার হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ আয়োজিত ওলামা-মাশায়েখ সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, প্রধানমন্ত্রী হেফাজতে ইসলাম নিয়ে ভাবেন। একজন ধার্মিক মুসলিম হিসেবে শেখ হাসিনা রাষ্ট্র পরিচালনা করছেন। তিনি সকালে পবিত্র কোরআন তিলাওয়াত করে কাজ শুরু করেন। আলেম-ওলামাদের প্রতি তার যথেষ্ট শ্রদ্ধা-ভক্তি রয়েছে। আপনাদের মতো প্রধানমন্ত্রী শফী সাহেবকে (শাহ আহমদ শফী) অত্যন্ত ভালোবাসতেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আপনারা বলেছেন হেফাজত অরাজনৈতিক দল, হেফাজত রাজনীতি করে না, নির্বাচনে যায় না। কিন্তু বাইরে থেকে দুষ্কৃতিকারীরা এসে আপনাদের অপবাদ অথবা কুমন্ত্রণা দিচ্ছে। সেখানে আপনারা ভুল করছেন অথবা ভুল করে ফেলেছেন।

মন্ত্রী আরো বলেন, আমরা বারবার বলতে চাই আপনারা আধ্যাত্মিক লাইনের চর্চা করেন, কোরআন-সুন্নাহ অনুযায়ী চলেন। আপনারা যেহেতু অরাজনৈতিক প্রতিষ্ঠান, সেহেতু কেন আপনাদের মাঝে বহিরাগতদের অনুপ্রবেশ ঘটে? আপনাদের আরো সাবধান হওয়া উচিত।

সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন- হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর শাহ মুহিববুল্লাহ বাবুনগরী, মহাসচিব নুরুল ইসলাম।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- আতাউল্লাহ হাফেজ্জি, অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, সাজিদুর রহমান, ইয়াহইয়া, তাজুল ইসলাম, আব্দুল আওয়াল প্রমুখ।

 

-খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



প্রভার নতুন ভিডিও

আবারো আলোচনায় প্রভা

প্রকাশিত:Monday ০১ November ২০২১ | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ১৪৬জন দেখেছেন
বিনোদন ডেস্ক

Image



অভিনয়ের মানুষ হিসেবেই পরিচিত মডেল-অভিনেত্রী সাদিয়া জাহান প্রভা। এবার কণ্ঠশিল্পী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করলেন আলোচিত এই অভিনেত্রী। মৌসুমী ভৌমিকের গাওয়া ‘আমি শুনেছি সেদিন তুমি’ শিরোনামের শ্রোতাপ্রিয় গানটি কাভার করেছেন তিনি। এ গানের সংগীতায়োজন করেছেন ইমরান মাহমুদুল। সম্প্রতি মুক্তি পেয়েছে এটি।

 

গানটি নিয়ে নির্মিত হয়েছে মিউজিক ভিডিও। কক্সবাজার সমুদ্র সৈকতে ধারণ করা হয়েছে ভিডিও চিত্রটি। গানটি মুক্তির পর থেকে দারুণ প্রশংসা কুড়াচ্ছেন প্রভা।

কাজী জিয়াউদ্দিন লিখেছেন, খুবই দরদ দিয়ে গাওয়া গান, ভালো লেগেছে। প্রভার গানের গলা ভালো জানা ছিল না, তাই অবাক লেগেছে বৈকি! দেখতে সুন্দর একজন মানুষ যার গানের কণ্ঠ ভালো, তিনি দেশের একজন সম্পদ বটে। শুভ কামনা প্রভা!আরো নতুন গানের দাবি জানিয়ে ইমতিয়াজ আহমেদ লিখেছেন, মন ছুয়ে যাওয়ার মতো একটি গান, এমন কাজ আরো চাই।

 

বিস্ময় প্রকাশ করে তানিয়া আহমেদ লিখেছেন, এটা প্রভার গলা? অসম্ভব! এত সুন্দর গলা থাকতে আপনি গান করেন না? এমন অসংখ‌্য মন্তব‌্যে ভরে আছে কমেন্ট বক্স।

হঠাৎ কণ্ঠে গান তোলার পেছনের গল্প জানিয়ে প্রভা বলেন, ইমরান ও আমি খুব ভালো বন্ধু। একসঙ্গে আড্ডা দিই। আড্ডায় গুনগুন করে গান গাওয়ার অভ‌্যাস আমার। একদিন আমার গান শুনে ইমরান বলল, চল দোস্ত, তোর গান রেকর্ড করি। এভাবেই গানটিতে কণ্ঠ দেওয়া।

 

গান রেকর্ডিংয়ের অভিজ্ঞতা জানিয়ে প্রভা বলেন- স্টুডিওতে ইনস্ট্রুমেন্টের সামনে দাঁড়িয়ে গান গাওয়ার সময়ে নার্ভাস লাগছিল। আমার মনে হয়, গানের ব্যাপারটা পুরোপুরি গড গিফটেড একটা ব্যাপার। আগে মনে হতো, এক দিনে বুঝি অনেকগুলো গান রেকর্ড করে ফেলা যায়। কিন্তু মাইক্রোফোনের সামনে দাঁড়িয়ে আমার সব ভুল প্রমাণিত হয়েছে। ইমরান ছাড়া অন্য কেউ গানটি রেকর্ড করতে গেলে ধৈর্য হারিয়ে ফেলত। বন্ধু হওয়াতে বেস্ট উপায়ে আমার গানটা রেকর্ড করিয়ে নিয়েছে।

ছোটবেলায় প্রভার মা চাইতেন মেয়ে গান শিখুক। কিন্তু তাতে আগ্রহ কম ছিল প্রভার। গানের প্র্যাকটিসে বসে ফাঁকি দিতেন তিনি। বিষয়টি উল্লেখ করে প্রভা বলেন- আমি অনেক ফাঁকিবাজ। তাই গানের প্র্যাকটিস বেশি করা হতো না। গানের অনুষ্ঠানের দিন বলতাম, আমি উপস্থাপনা করি? তবে খালি গলায় বেশি ভালো গাই।

-খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



দলীয় মনোনয়ন পেয়েও সরে দাড়ালেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান বাহালুল

কুমিল্লায় নৌকা পেয়েও সরে দাড়ালেন বাহালুল, প্রাথমিক সদস্য না হয়েও মনোনীত নূরুল!

প্রকাশিত:Sunday ২৮ November ২০২১ | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ১২৭জন দেখেছেন
Image


মাহফুজ বাবু :

 

কুমিল্লায় চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেয়েও সরে দাড়ালেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান বাহালুল, অপর দিকে স্থানীয় আওয়ামী লীগের সাধারণ সদস্য পদ না থাকলেও দলীয় ভাবে মনোনীত হয়েছেন সিআইপি নূরুল ইসলাম।

 

আদর্শ সদর উপজেলার পাঁচথুবি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতিকের প্রার্থী ইকবাল হোসেন বাহালুল নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়িয়েন। আসন্ন নির্বাচনে তিনি অংশ নেবেন না বলেও ঘোষণা দিয়েছেন।

 

মনোনীত হওয়ার পর এ নিয়ে চেয়ারম্যান বাহালুল তার ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডিতে ২৪ নভেম্বর একটি স্টাটাস দেন এতে তিনি লেখেন আল্লাহ মেহেরবানিতে আমি দলীয় মনোনায়ন পেয়েছি তবে সংগঠন ও এম পি মহোদয় সিদ্ধান্তের বাহিরে কিছু করব না । আমি সবার কাছে ক্ষমা প্রার্থী

পরদিন ২৫ নভেম্বর আরেকটি পোস্ট করেন তার ফেসবুক আইডিতে তাতে লেখা নৌকা পেয়েছি, নৌকা উৎসর্গ করেছি, নেতার জন্য। এইটা তেমন বেশি কি নেতা ডেকে এনে চেযারম্যান করেছিল, না হলে হয়ত হতে পারতাম না।সকলে মেনে নাও নৌকার বিজয় হয়েছে,আমাদের হাতে। জয় বাংলা।

 

গত ২৫ নভেম্বর বৃহস্পতিবার মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন হলেও তিনি তার মনোনয়ন পত্র জমা দেননি। এতে ঐ ইউনিয়নে একক প্রার্থী হিসেবে বিনা ভােটে নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন হাসান রফি রাজু। তিনি পাঁচথুবি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। জানা যায়, সদর উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন পরিষদে (ইউপি) দলীয় কাউন্সিলের মাধ্যমে মনােনীত প্রার্থীদের তালিকা কেন্দ্রে পাঠায় উপজেলা আওয়ামী লীগ। কিন্তু সে তালিকায় ছিলেন না বর্তমান চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন বাহালুল। তার বদলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাসান রফি রাজুর নাম কেন্দ্রে পাঠানো হয়। তবে তাকে মনোনয়ন না দিয়ে ইকবাল হোসেন বাহালুলকে মনোনয়ন দেওয়া হয়।

 

 এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের মনােনয়ন পাওয়া ইকবাল হোসেন বাহালুল বলেন, দল আমাকে মনোনয়ন দিয়েছে, আমি নৌকা প্রতীক পেয়েছি। তারপরও নির্বাচন করব না। দলীয় শৃঙ্খলা বজায় রাখা সহ আমার নেতা ও কর্মীরদের স্বার্থে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

 মনোনয়ন পত্র জমা দেওয়া হাসান রফি রাজু বলেন, তৃণমূল আওয়ামী লীগ সম্মেলনের মাধ্যমে আমাকে নির্বাচিত করেছে তৃণমূল আওয়ামী লীগ যেহেতু আমাকে নির্বাচিত করেছে। তাই আমি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করব। শুনেছি, নৌকা প্রতীকের প্রার্থী নির্বাচন করবেন না। তাই আমি ছাড়া এই ইউপিতে চেয়ারম্যান পদে আর কোনো প্রার্থী নেই।

 

এদিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে কেন্দ্রে পাঠানো ছয়জনের মধ্যে দলের মনােনয়ন পাননি তিন বারের নির্বাচিত ১নং কালিরবাজার ইউপি'র চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সেকান্দর আলী। এখানে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেয়েছে নুরুল ইসলাম। স্থানীয় আওয়ামী লীগের সদস্য পদ না থাকলেও গত বছর আওয়ামী লীগে যোগদানকারী প্রবাসী ব্যবসায়ী ও সিআইপি তিনি।

 

এবিষয়ে ১নং কালির বাজার ইউনিয়নের তিন বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আলহাজ্ব সেকান্দর আলী বলেন, কিছুদিন আগে ইউনিয়ন কাউন্সিলিংয়ে নেতৃবৃন্দের ভোটে আমি ৭০ভোট পাই, বিপরিতে নূরুল ইসলাম পান ১৬ ভোট। স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ এবং এলাকাবাসীর সেবায় দীর্ঘ ১৫ বছর নিজেকে উৎসর্গ করেছি। উন্নয়ন করেছি প্রতিটি গ্রামে। তবে কি কারনে এমনটা হয়েছে জানা নেই। দলীয় মনোনয়ন না পাওয়ায় নেতাকর্মীরা কিছুটা অবাক হয়েছেন অনেকে। তবে ইউনিয়নবাসী ও স্থানীয় নেতাকর্মীদের অনুরোধ রক্ষায় আমি অবশ্যই নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করবো। এবং আশাকরি সুষ্ঠ ভোটের মাধ্যমে বিশাল ব্যবধানের জয়লাভ করবো।

 

এদিকে দলীয় মনোনয়ন পেলেও এখনো ভোটের মাঠে ততটা সরব দেখা যায়নি আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নূরুল ইসলামকে। মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করেও পাওয়া যয়নি তাকে। তবে তার নেতাকর্মীদের কয়েকজন জানান কৌশলে আগাচ্ছেন তিনি। নিরবে ভোটারদের মাঝে প্রচারণা চালাচ্ছেন তারা। আগামী ৫তারিখ প্রতিক বরাদ্দের পর আনুষ্ঠানিক ভাবে ভোটের মাঠে নামবেন তারা। 

 

আদর্শ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কাজী আবুল বাশার এ বিষয়ে বলেন, আমরা দলীয় প্রার্থী নির্বাচনে ছয়টি ইউপিতে সম্মেলন করেছি। সেখান থেকে নির্বাচিত ছয় জনের তালিকা কেন্দ্রে পাঠিয়েছি। তাদের মধ্যে চারজন নৌকা প্রতীক পেয়েছেন। দলীয় শৃঙ্খলা বজায় রাখতে বাকি দুজনের বিষয়ে সমন্বয়ের চেষ্টা করছি।

 

গত ২৬ নভেম্বর বৃহস্পতিবার সদর উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে মনােনয়নপত্র জমা দিয়েছেন মোট ১৫ জন। জগন্নাথপুর ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী মামুনুর রশিদ, জসিম উদ্দিন তালুকদার, আবু বক্কর সিদ্দিক। দুর্গাপুর উত্তর ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনােনীত প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ, এয়াকুব আলী, দুর্গাপুর দক্ষিণ ইউপিতে আওয়ামী লীগের প্রার্থী আমিনুল হক, হুমায়ূন কবির, আমড়াতলী ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী কাজী মোজাম্মেল হক, কাজী নজরুল ইসলাম, রুবেল আহমেদ, কালিরবাজার ইউপিতে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী নূরুল ইসলাম ও সেকান্দর আলী, আব্দুল হক, কামাল হোসেনএবং পাঁচথুবি ইউপিতে হাসান রফি রাজু। আগামী ২৬ ডিসেম্বর চতুর্থ ধাপে এসকল ইউপিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 

নিউজ ট্যাগ: ইউপি নির্বাচন

আরও খবর



হাজার হাজার শৌখিন মৎস শিকারিদের আনা গোনায় রহুল বিল

পলো উৎসবে মাছ ধরায় মেতেছে মানুষ, চির চেনা বাংলা

প্রকাশিত:Saturday ২৭ November ২০২১ | হালনাগাদ:Monday ২৯ November ২০২১ | ১০৪জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


 

মাছ ধরা বা মাছ শিকার করা বিলাঞ্চলের মানুষদের আজন্ম শখ। বিশেষ করে চলন বিল এলাকায় বর্ষা মৌসুমে নিম্নাঞ্চলের খাস বা সরকারি জলাভূমিতে পানি অল্প থাকাকালে মাছ শিকারিরা দল বদ্ধ হয়ে পলো, ছোট জাল নিয়ে একটি নিদিষ্ট দিনে মাছ শিকার করে থাকে। এলাকায় এটি পলো উৎসব বা বাউত উৎসব নামের পরিচিত।

 

শনিবার পাবনার ভাঙ্গুড়ার উপজেলার পারভাঙ্গুড়া ইউপির বিল রুহুলে এমনই এক শৌখিন মাছ শিকারিদের মিলন মেলা হয়েছে। এতে সবার কাছে মাছ ধরা পড়ুক বা না পড়ুক এক সঙ্গে বছরের এই দিনে মাছ ধরতে আসার মজাই যেন অন্য রকম।

 

সরেজমিন শনিবার উপজেলার বিল রুহুল এলাকা ঘুরে দেখা যায় , পাবনাসহ পার্শ্ববর্তী জেলাগুলো থেকে শৌখিন মাছ শিকারিরা ভোর বেলার কুয়াশা ভেদ করেই বিভিন্ন যানবাহন বাস, নছিমন, আটো ভ্যান, ভটভটি যোগে এই বিল পাড়ে আসতে থাকে। তাদের হাতে পলো, জাল ঠেলাজাল, ধর্মখরাসহ মাছ ধরার বিভিন্ন উপকরণ নিয়ে বিলের পাড়ে এসে হাজির হয়ে এক সঙ্গে মাছ ধরতে পানিতে নামে। তারা মাছ ধরার সময় বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকে। কেউ মাছ পেলে সবাই মিলে তাকে আরো উৎসাহ দিতে থাকে।

 

এদিনে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে বিলপাড়ে বিস্কুট রুটি ও চায়ের দোকান নিয়েও বসেছে। মাৎস শিকারিদের কেউ কেউ পেয়েছে সোল, বোয়াল, রুই, গজার । আবার অনেকেই মাছ পায় নি। তবে প্রায় সবার মুখেই ছিল মাছ ধরতে আসতে পারায় আনন্দের ছোয়া।

শিশু, কিশোর, যুবক, বৃদ্ধসহ সব ধরণের হাজার হাজার শৌখিন মৎস শিকারিদের আনা গোনায় রহুল বিল ছিল কানায় কানায় পরিপূর্ণ।

জানা গেছে, ভাঙ্গুড়া উপজেলার পারভাঙ্গুড়া ইউপি ও পার্শ্ববর্তী চাটমোহর উপজেলার পার্শ্বডাঙ্গা ইউপির কিছু অংশ নিয়ে কয়েক হাজার একর জমি নিয়ে রয়েছে রুহুল বিল। বিশেষত বর্ষার পানি চলে যাওয়ার পর কয়েক শ’ একর জমিতে বিভিন্ন গভীরতায় পানি থাকে। সেখানে বর্ষার পানিতে আটকে থাকা বোয়াল, সোল, গজার, পুঁটি, সিং সহ দেশীয় প্রজাতির বিভিন্ন মাছ।

 

বছরের একটি নিদিষ্ট দিনে একে অন্যেরে সঙ্গে মোবাইল ফোন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যোগাযোগ করে নাটোর, পাবনা, সিরাজগঞ্জ, টাঙ্গাইল থেকে বাস, ভটভটি, নছিমন যোগে ভোরে এই বিলে মাছ ধরার জন্য এসে হাজির হয়। এদিনে তাদের হাতে ধরা পড়ে নানা ধরণের মাছ। বেলা বাড়ার  সঙ্গে সঙ্গে মাছ শিকারির সংখ্যাও কমতে থাকে।

মাছ ধরতে আসা নাটোরের পঞ্চাশোর্ধ আলম হোসেন বলেন, এই দিনটিতে রহুল বিলে মাছ ধরার জন্য প্রতি বছর অপেক্ষা করে থাকি। লোক মুখে খবর পেয়ে মাছ ধরতে এসেছি।

টাঙ্গাইলের বাছের উদ্দীন বলেন, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে মাছ ধরার খবর পেয়ে তারা একাধিক বাস রিজার্ভ করে পলো ও মাছ ধরার উপকরণ নিয়ে কয়েকশ শৌখিন মাৎস শিকারি মাছ ধরতে এসেছেন।

 

-খবর প্রতিদিন/ সি.বা 


আরও খবর