Logo
আজঃ Tuesday ২৮ June ২০২২
শিরোনাম
নাসিরনগরে বন্যার্তদের মাঝে ইসলামী ফ্রন্টের ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ রাজধানীর মাতুয়াইলে পদ্মাসেতু উদ্ধোধন উপলক্ষে দোয়া মাহফিল রূপগঞ্জে ভূমি অফিসে চোর রূপগঞ্জে গৃহবধূর বাড়িতে হামলা ভাংচুর লুটপাট ॥ শ্লীলতাহানী নাসিরনগরে পুকুরের মালিকানা নিয়ে দু পক্ষের সংঘর্ষে মহিলাসহ আহত ৪ পদ্মা সেতু উদ্ভোধন উপলক্ষে শশী আক্তার শাহীনার নেতৃত্বে আনন্দ মিছিল করোনা শনাক্ত বেড়েছে, মৃত্যু ২ জনের র‍্যাব-১১ অভিমান চালিয়ে ৯৬ কেজি গাঁজা,১৩৪৬০ পিস ইয়াবাসহ ৬ মাদক বিক্রেতাকে গ্রেফতার করেছে বন্যাকবলিত ভাটি অঞ্চল পরিদর্শন করেন এমপি সংগ্রাম পদ্মা সেতু উদ্বোধনে রূপগঞ্জে আনন্দ উৎসব সভা ॥ শোভাযাত্রা

ফের বন্যায় মানবিক বিপর্যয়ের মুখে সিলেট বাসী

প্রকাশিত:Friday ১৭ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ১৩৫জন দেখেছেন
Image

মোঃ আব্দুল হান্নান,ব্রাহ্মণবাড়িয়া,

সিলেটে আবারো  নতুন করে আবার বন্যা দেখা দেয়ার ফলে বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে সিলেটের জনগণ।


জানা গেছে  বন্যার পানিতে তলিয়ে বিভিন্ন রাস্তা ঘাট। তীব্র পানির স্রোতে ভেসে যাচ্ছে বাড়িঘর। জৈন্তাপুর এলাকায় সারি নদীর প্রবল স্রোতের ভাসিয়ে নিচ্ছে গাছপালা সহ বাশের ঝাড়।  বিদ্যুৎ সংযোগ বন্ধ হয়ে গেছে। আবহাওয়া অধিদপ্তর, পানি উন্নয়ন বোর্ডের মতে আর অল্প পানি বৃদ্ধি পেলেই স্হায়ী ভাবে বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হবে। 


মোবাইলে চার্জ আছে বলে সিলেটের বিপদগ্রস্থ  লোকজন এখন পর্যন্ত মুঠোফোনে উদ্ধারের সাহায্য চাইতে পারছে। বিদুৎ অলরেডি বন্ধ হয়ে গেছে। কিছুক্ষণ পর তাদের হাহাকার শোনারও সুযোগ থাকবে না।


প্রতি মূহুর্তে বাড়ছে পানি ।মুষলধারে হচ্ছে বৃষ্টি। বাচ্চাদের কান্না। গরুর হাম্বা হাম্বা ডাক। গবাদিপশু ভেসে যাচ্ছে। মুরব্বিদের হা হু গোঙানির আওয়াজ। মা তার সন্তানকে হারানোর ভয়ে কাঁদছে। চোখের সামনে অনেককিছু হারিয়ে যাচ্ছে। বাবাদের অসহায় মুখ। আকাশ থেকে বৃষ্টি পড়ছে অনবরত। খাওয়ার কোনো ব্যবস্থা নেই। না আছে শোয়ার ব্যবস্থা, না আছে বসার উপায়।


এই মুহূর্তে দরকার উদ্ধার অভিযান, ট্রলার ও নৌকা । এক মানবিক বিপর্যয় নেমে এসেছে সিলেটের বুকে।সিলেটের বন্যা কবলিত এলাকায় প্রচুর উদ্ধারকারী নৌযান সহ সেনাবাহিনীর হস্তক্ষেপ প্রয়োজন। জানা যায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বন্যাদুর্গত এলাকার এম,পি,মন্ত্রীদের নিজনিজ এলাকায় অবস্থান করে প্রয়োজনীয় শুকনো খাবার বিতরণ সহ সাধ্যমতো সহযোগিতা করার নির্দেশ দিয়েছেন।


অন্যদিকে প্রশাসন বন্যা কবলিত এলাকার জনগণকে নিরাপদ আশ্রয়ে নিতে হিমসিম খাচ্ছে। তাছাড়া বন্যা কবলিত এলাকায় নিরাপদ সুপেয় পানীয়জলের অভাবে নানাবিধ রোগের আশংকা বেড়ে গেছে।


আরও খবর



রান্নাঘরের যে ৭ জিনিস মারাত্মক বিপদ ডেকে আনতে পারে

প্রকাশিত:Monday ১৩ June ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ২৭ June ২০২২ | ৭৯জন দেখেছেন
Image

কর্মব্যস্ত জীবনে রান্নাঘর সামলাতে এখন অনেকেই নানা যন্ত্রপাতি ব্যবহার করেন। ফ্রিজ, মাইক্রোওয়েভ ছাড়া তো এখন রান্নাঘরই অপূর্ণ থাকে!

তবে জানেন কি, রান্নাঘরে ব্যবহৃত এমন কয়েকটি জিনিস আছে যেগুলো হতে পারে স্বাস্থ্যের জন্য বিপজ্জক। জেনে নিন কী কী-

>> ফ্রিজ তো এখন সবার ঘরেই আছে। খাবার দীর্ঘদিন সংরক্ষণের জন্য ফ্রিজের বিকল্প নেই। তবে ফ্রিজ থেকে নির্গত ক্লোরো ফ্লুরো কার্বন কিন্তু শরীরের জন্য হতে পারে মারাত্মক ক্ষতিকর। এই কার্বন তীব্র মাথা যন্ত্রণার কারণ হতে পারে।

>> খাবার গরম করা থেকে শুরু করে বাহারি পদ তৈরির জন্য মাইক্রোওয়েভের বিকল্প নেই। তবে জানলে অবাক হবেন, মাইক্রোওয়েভ থেকে নির্গত রশ্মি শরীরের জন্য হতে পারে ক্ষকির। আর অবশ্যই মাইক্রোওয়েভে ব্যবহৃত বাসনপত্র সঠিক কি না তা যাচাই করে নিন।

>> অ্যালুমিনিয়ামের বাসনপত্র কমবেশি সবাই ব্যবহার করেন। তবে এই বাসনেই লুকিয়ে আছে বিপদ। কারণ অ্যালুমিনিয়ামের বাসন থেকে নির্গত ক্যাডমিয়াম শরীরের জন্য হতে পারে মারাত্মক ক্ষতিকর।

>> খাবার সংরক্ষণের ক্ষেত্রে সোডিয়াম বেনজোয়েট ব্যবহার করা হয়। যদি ভুলেও কোনো খাবারে ০.১ শতাংশের বেশি সোডিয়াম বেনজোয়েট ব্যবহার করা হয় তাহলে শরীরে মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে।

এর ফলে অ্যালার্জি ও ক্যানসারের মতো রোগ হতে পারে। খাবারে ৩ গ্রামেরও বেশি এমএসজি ব্যবহারও ডেকে আনতে পারে বিপদ। এমএসজি হৃদরোগ ও অ্যালার্জি জন্য দায়ী।

>> আধুনিক রান্নাঘরে এয়ার ফ্রায়ার অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তবে এই বৈদ্যুতিক যন্ত্র নানা রোগের ঝুঁকি বাড়াতে পারে।

>> কমবেশি সবাই রান্নায় রিফাইন্ড অয়েল ব্যবহার করেন। ভাজাভুজির পর কখনো বাকি তেলটুকু সংরক্ষণ করে পরে রান্নার কাজে লাগাবেন না।

এই অভ্যাসের কারণে আপনি অসুস্থ হয়ে পড়তে পারেন। কারণ পোড়া রিফাইন্ড অয়েল ব্যবহার ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ায়।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া


আরও খবর



এমপি বাহারকে নির্বাচনী এলাকা ছাড়তে বললো ইসি

প্রকাশিত:Wednesday ০৮ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ৪৬জন দেখেছেন
Image

কুমিল্লা-৬ (সদর) সংসদ সদস্য হাজী আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহারকে সিটি করপোরেশনের নির্বাচনী এলাকা ছাড়তে চিঠি দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

বুধবার (৮ জুন) নির্বাচন কমিশন থেকে এ চিঠি দেওয়া হয়। সন্ধ্যায় কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার শাহেদুন্নবী চৌধুরী জাগো নিউজকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

গত ৬ জুন নির্বাচন কমিশনে একটি লিখিত অভিযোগ জমা দেন স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মনিরুল হক সাক্কু। তিনি এমপি বাহাউদ্দিন বাহারের বিরুদ্ধে আচরণ-বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ আনেন।

অভিযোগে বলা হয়, বাহাউদ্দিন বাহার কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে মহানগর ও আদর্শ সদর উপজেলার আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের নিয়ে নির্বাচনী সভা করেছেন। এছাড়া তিনি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানের সদস্যদের সঙ্গে নির্বাচন সংক্রান্ত সভা করছেন, যা নির্বাচনী আইনের লঙ্ঘন।

সাক্কু আরও অভিযোগ করেন, এমপি বাহার সদর দক্ষিণ ও লালমাই এলাকার আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নিয়ে নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়ে বিভিন্ন দিকনির্দেশনামূলক সভা করছেন। এতে নির্বাচনের শান্তি-শৃঙ্খলা ব্যাহত হচ্ছে।

অভিযোগে তিনি সংসদ সদস্যকে নিজ এলাকায় অবস্থানের পাশাপাশি এ ধরনের সভায় অংশগ্রহণ থেকে বিরত রাখতে নির্বাচন কমিশনকে ব্যবস্থা নেওয়ার আহ্বান জানান।


আরও খবর



পদ্মা সেতুর চাপ রাজধানীর সড়কেও

প্রকাশিত:Sunday ২৬ June ২০২২ | হালনাগাদ:Tuesday ২৮ June ২০২২ | ২৫জন দেখেছেন
Image

রোববার ভোর থেকে যান চলাচল শুরু হয়েছে পদ্মা সেতুতে। তবে এর আগে থেকেই সেতুতে উঠতে যানবাহনের জটলা তৈরি হয় দুই প্রান্তে। এসব যানবাহনের যাত্রীদের একটা বড় অংশই এসেছেন পদ্মা সেতু পরিদর্শনে। পদ্মা সেতু এলাকায় গাড়ির চাপ বাড়ার সঙ্গে এর প্রভাব পড়েছে রাজধানীতেও। বিশেষ করে রাজধানীর যাত্রাবাড়ীর মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারের উপরে ও নিচের সড়কে যানজট তৈরি হয়েছে।

শনিবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী উদ্বোধনের পর রোববার ভোর থেকে সবার জন্য উন্মুক্ত করা হয়েছে পদ্মা সেতু। এদিন ভোর থেকেই উৎসুক জনতা মোটরসাইকেল, প্রাইভেটকার বা মাইক্রোবাস নিয়ে পরিদর্শনে যান পদ্মা সেতু। এ কারণে সকাল থেকেই যানবাহনের চাপ ছিল সেতুর দুই প্রান্তে।

রোহান নামে এক গণমাধ্যমকর্মী ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে সকাল ৯টার দিকে যান পদ্মা সেতু দেখতে।

তিনি বলেন, পদ্মা সেতু পার হতে বড় ধরনের যানজটের মুখে পড়তে হয়। আবার ঘুরে এসে ঢাকামুখী হতেই বড় ধরনের যানজটের মুখে পড়তে হলো।

একই কথা বলেন তুষার নামে আরেকজন। তিনি বলেন, সকালে বাইক নিয়ে দুই বন্ধু পদ্মা সেতু দেখতে যায়। প্রথম দিনেই বড় যানজটের মুখে পড়লাম। আবার ঢাকায় ফিরতেও দেখি যানজট। এভাবে যানজট হলে যমুনা সেতুর মতো হয়ে যাবে পদ্মা সেতু। এজন্য এসব এলাকার সড়কগুলোতে ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা আরও জোরদারের পরামর্শ দেন তিনি।

পদ্মা সেতুর যানবাহনের চাপ পড়ে ওই সড়ক থেকে রাজধানীর প্রবেশপথ যাত্রাবাড়ী এবং আশপাশের এলাকায়। এতে করে রাজধানীর মেয়র হানিফ ফ্লাইওভারসহ বিভিন্ন স্থানে সৃষ্টি হয়েছে যানজট। গাড়ির দীর্ঘসারি দেখা গেছে পল্টন, কমলাপুর স্টেডিয়াম বা টিটিপাড়া, গুলিস্থান, ঢাকা মেডিকেল সংলগ্ন ফ্লাইওভার, মগবাজার, রামপুরা, খিলগাঁও এবং মতিঝিল-ইত্তেকাক মোড় এলাকাতেও। এ যানজট দূর করতে বেগ পোহাতে হয় দায়িত্বরত ট্রাফিক পুলিশ সদস্যদের।

এনিয়ে এক ট্রাফিক পুলিশ কর্মকর্তারা বলেন, উদ্বোধনের পরই মানুষ আজ পদ্মা সেতু দেখতে হুমড়ি খেয়ে পড়েছে। যে যার মতো করে ব্যক্তিগত গাড়ি, মাইক্রোবাস, মোটরসাইকেল নিয়ে গেছে। বাড়তি গাড়ির চাপ পড়ায় কিছুটা যানজট তৈরি হয়েছে। এটা হয়তো আরও দু-একদিন থাকবে। এরপর ঠিক হয়ে যাবে। আবার ঈদের আগে কিছুটা চাপ তৈরি হবার আশঙ্কা রয়েছে।


আরও খবর



জিভে জল আনা দই চিকেনের রেসিপি

প্রকাশিত:Wednesday ০৮ June ২০২২ | হালনাগাদ:Monday ২৭ June ২০২২ | ৬৯জন দেখেছেন
Image

মুরগির মাংস দিয়ে মুখরোচক সব পদ তৈরি করা যায়। চিকেন ফ্রাই থেকে শুরু করে চিকেন ঝাল ফ্রাই, চিকেন তান্দুরি, রোস্ট, চিকেন মালাইকারি, গ্রিল চিকেনসিহ বিভিন্ন পদ সবাই কমবেশি খেয়ে থাকেন প্রায়ই।

চাইলে স্বাদ পাল্টাতে তৈরি করতে পারেন দই চিকেন। গরমে এই পদ খেলে একদিকে যেমন পেট ঠান্ডা থাকবে তেমনই ভরপেট মাংস খাওয়ার আনন্দও উপভোগ করতে পারবেন। চলুন তবে জেনে নেওয়া যাক রেসিপি-

উপকরণ

১. মুরগির মাংস আধা কেজি
২. টকদই ১ কাপ
৩. পেঁয়াজ কুচি ৩টি
৪. আদার টুকরো এক ইঞ্চি
৫. রসুন ১০ কোয়া
৬. কাজুবাদাম ৬-৭টি
৭. বাদাম ৬-৭টি
৮. লবঙ্গ ৩টি
৯. এলাচ ১টি বড়
১০. সবুজ এলাচ ৪টি
১১. গোলমরিচ ৭-৮টি
১২. দারুচিনি ২ টুকরো
১৩. মরিচের গুঁড়া ২ টুকরা
১৪. হলুদ ১ চা চামচ
১৫. ধনে গুঁড়ো ১ চা চামচ
১৬. গরম মসলার গুঁড়া ১ চা চামচ
১৭. লবণ স্বাদ অনুযায়ী
১৮. তেল পরিমাণমতো ও
১৯. ধনেপাতা ১ টেবিল চামচ।

jagonews24

পদ্ধতি

প্রথমে একটি পাত্রে টকদই নিয়ে তাতে এক চা চামচ মরিচের গুঁড়া, হলুদ, আধা চা চামচ গরম মসলার গুঁড়া, আধা চা চামচ ধনে গুঁড়া ও লবণ দিয়ে ভালো করে ফেটিয়ে নিন। এবার দইয়ের মিশ্রণে মুরগির মাংস মিডিশয়ে ৩ ঘণ্টা মেরিনেট করার জন্য ফ্রিজে রেখে দিন।

অন্যদিকে একটি প্যানে তেল নিয়ে মাঝারি আঁচে গরম করুন। তেল গরম হওয়ার পর মেরিনেট করা মাংস দিয়ে ৭-৮ মিনিট ধরে নাড়ুন। এরপর মাংসের টুকরোগুলো একটি প্লেটে উঠিয়ে নিন।

মাঝারি আঁচে অন্য একটি প্যানে তেল গরম করে। পেঁয়াজ ভেজে নিন। তারপর তা নামিয়ে বেটে নিন। একে একে মিক্সারে রসুন, আদা, বড় ও সবুজ এলাচ, দারুচিনি, কালো গোলমরিচ ও লবঙ্গ দিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন।

চাইলে সব উপকরণ পাটায় পিষে নিতেও পারেন। এরপর পোস্ত, বাদাম ও কাজু পেস্ট করে নিন। এবার একটি প্যানে মাঝারি আঁচে তেল গরম করে রসুন-আদার পেস্ট, লাল মরিচ গুঁড়া, ধনে গুঁড়া, গরম মসলার গুঁড়া ও লবল মিশিয়ে কিছুক্ষণ নাড়ুন।

তারপর পেঁয়াজের পেস্ট ও দই মিশিয়ে ৫ মিনিট ধরে নাড়ুন। তারপর এই গ্রেভিতে পোস্ত বাটা মিশিয়ে কম আঁচে আরও ৫ মিনিট নেড়ে চিকেন দিয়ে দিন।

২ কাপ পানি দিয়ে মাংস ১০ মিনিট ঢেকে রেখে সেদ্ধ করুন। মাংস ভালভাবে সেদ্ধ হয়ে গেলে ঢাকনা খুলে আঁচ বাড়িয়ে আরও ২ মিনিট ধরে আরও রান্না করুন।

ব্যাস তৈরি হয়ে গেল জিভে জল আনা দই চিকেন। রুটি, পরোটা, নান কিংবা পোলাও সব উপকরণের সঙ্গেই দারুন মানিয়ে যায় এই পদ।


আরও খবর



কচা নদীতে হাত-পা বাঁধা তরুণীর মরদেহ উদ্ধার

প্রকাশিত:Thursday ০২ June 2০২2 | হালনাগাদ:Monday ২৭ June ২০২২ | ৪৪জন দেখেছেন
Image

পিরোজপুরের ইন্দুরকানী উপজেলায় কচা নদীর তীর থেকে হাত-পা বাঁধা এক তরুণীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার (২ জুন) দুপুরে উপজেলার চন্ডিপুর ইউনিয়নের পূর্ব চরবলেশ্বর এলাকায় কচা নদীর তীরে মরদেহটি ভাসমান অবস্থায় পাওয়া যায়।

ইন্দুরকানী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক মরদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন

তবে উদ্ধার তরুণীর পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ। তার বয়স আনুমানিক ২৫ থেকে ২৭ বছর।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্র জানায়, দুপুরে অর্ধগলিত মরদেহটি দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা ৯৯৯ নম্বরে ফোন দেন। পরে ইন্দুরকানী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে।

ওসি এনামুল হক জানান, ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চলছে।


আরও খবর