Logo
আজঃ বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
শিরোনাম

বাংলাদেশ ২৩ ওভার বাকি থাকতেই অলআউট

প্রকাশিত:বুধবার ০৬ ডিসেম্বর ২০২৩ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১৮৬জন দেখেছেন

Image

স্পোর্টস ডেস্ক:বাংলাদেশ সিলেট টেস্টে দারুণ একটা জয়ের সুখস্মৃতি নিয়ে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ঢাকা টেস্ট খেলতে নেমেছে । সকালে মিরপুর শের ই বাংলা স্টেডিয়ামে সকালে টস জিতে ব্যাট করতে নামে বাংলাদেশ তবে দিনের প্রায় ২৩ ওভার বাকি থাকতেই অল-আউট হয়ে গেছে স্বাগতিকরা। প্রথম ইনিংস শেষ হয়েছে ৬৬.২ ওভার ব্যাটিং করে সব উইকেট হারিয়ে ১৭২ রান তুলে।

ম্যাচের আগের দিন টাইগার কোচ চণ্ডিকা হাথুরু সিংহে বলেছিলেন, মিরপুরের উইকেট বোঝা বড় কঠিন। শেষ পর্যন্ত তাই হলো। বাংলাদেশের বেশ কয়েকজন ব্যাটার বলতে গেলে উইকেট ছুঁড়ে দিয়েছেন।

শুরুটা হয় জাকির হাসানের (৮) বিদায়ে। ইনিংসের ১১তম ওভারের তৃতীয় ওভারে মিচেল স্যান্টনারকে উড়িয়ে মারতে গিয়ে ক্যাচ দেন কেইন উইলিয়ামসনের হাতে। এক ওভার পর অ্যাজাজ প্যাটেলের শিকার হন মাহমুদুল হাসান জয় (১৪)।

দলের অন্যতম অভিজ্ঞ ব্যাটার মুমিনুল হকও (৫) সাজঘরে ফেরেন প্যাটেলের বলে টম ব্লান্ডেলের গ্লাভসে ক্যাচ দিয়ে। সিলেটে সেঞ্চুরি হাঁকানো অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত আজ ৯ রান করে লেগ বিফোর হন স্যান্টনারের বল সুইপ করতে গিয়ে।

দলীয় ৪৭ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে ফেলার পর মুশফিকুর রহিম ও শাহাদাৎ হোসেন দিপুর জুটিতে ঘুরে দাঁড়ালেও নিজের ভুলে ৩৫ রান করে বিদায় নেন মুশফিক। শাহাদাৎ ৩১ রান করে ফিরেন গ্লেন ফিলিপসের বলে ক্যাচ দিয়ে। শেষ দিকে মেহেদী হাসান মিরাজের ২০, নুরুল হাসানের ৭, নাঈম হাসানের ১৩, তাইজুল ইসলামের ৬ ও শরিফুল ইসলামের ১৪ রান করেন।

নিউজিল্যান্ডের পক্ষে সমান ৩টি করে উইকেট নেন স্যান্টনার ও ফিলিপস। ২টি উইকেট নেন প্যাটেল আর ১ উইকেট নেন টিম সাউদি।


আরও খবর



মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ

প্রকাশিত:রবিবার ১১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১১১জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের কনফারেন্স রুমে সংবাদ সম্মেলনে এমবিবিএস (মেডিকেল) ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী অধ্যাপক ডা. সামন্ত লাল সেন আনুষ্ঠানিকভাবে এ ফল ঘোষণা করেন।

এর আগে শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। ঘণ্টাব্যাপী দেশের ১৯টি পরীক্ষা কেন্দ্রের ৪৪টি ভেন্যুতে একযোগে চলে পরীক্ষা।

এবার সরকারি-বেসরকারি মিলিয়ে ১০৪টি মেডিকেল কলেজের ১১ হাজার ৬৭৫টি আসনের জন্য এবার ১ লাখ ৪ হাজার ৩৭৪ জন ভর্তিচ্ছু আবেদন করেন। ৩৭টি সরকারি মেডিকেল কলেজে মোট আসন ৫ হাজার ৩৮০টি এবং বেসরকারি পর্যায়ে অনুমোদিত ৬৭টি মেডিকেল কলেজে মোট আসন ৬ হাজার ২৯৫টি।

এমবিবিএস ও বিডিএস ভর্তি পরীক্ষায় ন্যূনতম নম্বর (পাস নম্বর) গতবারের মতো এবারও ৪০ ছিল। প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য শূন্য দশমিক ২৫ নম্বর কাটা হয়। লিখিত পরীক্ষায় ৪০ নম্বরের কম পাওয়া শিক্ষার্থীদের অকৃতকার্য বিবেচনা করা হয়েছে।

মেডিকেল ও ডেন্টাল কলেজে ভর্তি থাকা দ্বিতীয়বার ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের ১০ নম্বর কাটা হয়। এ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় জেলা কোটা বাতিল। মুক্তিযোদ্ধা কোটায় নির্ধারিত সময়ে আসন পূরণ করা না গেলে সেসব আসনে সাধারণ শিক্ষার্থীরা ভর্তির সুযোগ পাবেন। যেভাবে ফল জানা যাবে:- স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী, এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষার ফল ঘোষণার পর ওয়েবসাইট থেকে ফলাফল জানা যাবে। এ ছাড়া স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের ওয়েবসাইটেও ফলবিষয়ক তথ্য প্রকাশ করা হবে।

পাশাপাশি যেসব শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছেন, তাদের আবেদনের সময় দেওয়া মোবাইল ফোন নম্বরে খুদেবার্তার (এসএমএস) মাধ্যমে ফল জানিয়ে দেবে অধিদপ্তর।


আরও খবর



এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু

প্রকাশিত:বৃহস্পতিবার ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৯৯জন দেখেছেন

Image

নিজস্ব প্রতিবেদক:এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়েছে সারাদেশে । বৃহস্পতিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টায় সারাদেশে একযোগে ৩ হাজার ৭০০টি কেন্দ্রে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন ২০ লাখের বেশি শিক্ষার্থী। প্রশ্ন ফাঁস ও শৃঙ্খলা রক্ষার্থে পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগেই কেন্দ্রে প্রবেশ করতে হয়েছে শিক্ষার্থীদের। এছাড়া, আরও ১৩ ধরনের নির্দেশনা মানতে হচ্ছে তাদের।

আন্তঃশিক্ষা বোর্ডের পরীক্ষা সূচি অনুযায়ী, সাধারণ ৯টি শিক্ষা বোর্ডে বাংলা প্রথম পত্র, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডের অধীনে দাখিলের কুরআন মাজিদ ও তাজবীদ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি (ভোকেশনাল) ও দাখিলে (ভোকেশনাল) বাংলা-২ পত্রের পরীক্ষা হচ্ছে।

এবার ১১টি বোর্ডে মোট ২০ লাখ ২৪ হাজার ১৯২ ছাত্র-ছাত্রী পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে। গত বছর ২৯ হাজার ৭৩৫টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান থেকে পরীক্ষা দিয়েছিল ২০ লাখ ৭২ হাজার ১৬৩ জন। সে হিসেবে এবার পরীক্ষার্থী কমেছে ৪৭ হাজার ৯৭১ জন। তবে পরীক্ষা কেন্দ্র ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যাও কমেছে। গত বছরের তুলনায় এবার পরীক্ষা কেন্দ্র কমেছে ১৮০টি এবং পরীক্ষায় অংশ নেওয়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সংখ্যা কমেছে ৬৩টি।


আরও খবর



বাগেরহাটে ১২ কেজি গাজাসহ মাদক কারবারি আটক

প্রকাশিত:শুক্রবার ০২ ফেব্রুয়ারী 2০২4 | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১০৮জন দেখেছেন

Image

বাগেরহাট প্রতিনিধি:বাগেরহাটের মোল্লাহাটে ১২ কেজি গাঁজাসহ মো: আকাশ খান (২২) নামে এক মাদক কারবারিকে আটক করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ। বৃহস্পতিবার (০১ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে জেলার মোল্লাহাট উপজেলার গারফা এলাকার মেসার্স মা ফিলিং স্টেশনের বিপরীত পাশে শিকদার প্লাজা নামক মার্কেটের সামনে থেকে আটক করা হয়। 

আটককৃতের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের পূর্বক আদালতে সোপর্দ করা হবে। আটক আকাশ খান মোরেলগঞ্জ উপজেলার বারইখালী গ্রামের সুলতান খানের ছেলে।

বাগেরহাট জেলা গোয়েন্দা পুলিশের পরিদর্শক স্বপন কুমার রায় বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে  আকাশ খানকে আটক করা হয়। তার কাছে থাকা একটি বস্তা থেকে  ১২ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়। যার বাজার মূল্য ৩ লক্ষ ৬০হাজার টাকা। মাদক বিক্রেতাদের কাছে গাজা হস্তান্তরের জন্য অপেক্ষা করছিলেন আকাশ। এছাড়া আকাশ দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন এলাকায় ছোট ছোট বাজারে গাঁজা বিক্রি করে আসছিল। আকাশের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান এই কর্মকর্তা।


আরও খবর

ঢাকায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ২৬

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ইমাম নিয়োগকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়!

প্রকাশিত:মঙ্গলবার ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:বুধবার ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮৮জন দেখেছেন

Image
সাব্বির খান, ইবি প্রতিনিধি:কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে কেন্দ্রীয় মসজিদের ইমাম নিয়োগকে কেন্দ্র উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে । সকাল ১১ টা থেকে দফায় দফায় উপাচার্যের সাথে দেখা করেন উপাচার্য বিরোধী শিক্ষক, কর্মকর্তা ও শাখা ছাত্রলীগের একাংশ। এ নিয়ে উপাচার্যের কার্যালয়ে আধা ঘন্টা বাকবিতন্ডতা করেন উপাচার্য বিরোধী শিক্ষক ও শাখা ছাত্রলীগের একাংশ। 

এসময় ছাত্রলীগের একাংশ কর্তৃক শিক্ষকদের লাঞ্চিত করার অভিযোগ উঠেছে। উপাচার্যের বিরুদ্ধে ইউজিসি কর্তৃক নিয়োগ বাণিজ্যর তদন্ত চলমান থাকার কারনে সংশ্লিষ্ট চেয়ারে বসার যোগ্যতা হারিয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছে শিক্ষককেরা। শিক্ষকদের দাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে ইউজিসি কর্তৃক গঠিত তদন্তের সুরাহা হওয়ার আগে কোন নিয়োগ বোর্ড করতে পারবে না বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। 

এসময় উপাচার্য বিরোধী শিক্ষকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শাপলা ফোরামের সভাপতি অধ্যাপক ড. পরেশ চন্দ্র বর্মণ, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. রবিউল হোসেন, শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মামুনুর রহমান, বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মাহবুবুল আরেফীনসহ প্রায় ৩০ জন শিক্ষক।

এ নিয়ে বঙ্গবন্ধু পরিষদ শিক্ষক ইউনিট এক বিবৃতিতে পাঠান গণমাধ্যমে। বিবৃতিতে বলা হয়, উপাচার্য ও শিক্ষকদের আলোচনা শুরুর কয়েক মিনিটের মধ্যেই উপাচার্যের অফিস কক্ষে ঢুকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ শুরু করে বহিরাগত ও বিশ্ববিদ্যালয়ের কিছু শিক্ষার্থীরা বলে অভিযোগ।

এদিকে পরে বিকাল তিনটায় উপাচার্যর বাংলোয় বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় মসজিদের ইমাম নিয়োগ বোর্ড বসে। নিয়োগ বোর্ড থেকে কর্মকর্তা সমিতি চাকরী প্রার্থীদের বের করে দেন। তাৎক্ষণিক আবার প্রার্থীদের উপাচার্যর বাংলোয় নিয়ে আসেন ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এ নিয়ে বাংলো গেইটে উপাচার্য বিরোধী শিক্ষক, কর্মকর্তা এবং প্রশাসন পন্থী শিক্ষক ও শাখা ছাত্রলীগের একাংশ মুখোমুখি অবস্থান নেয়। প্রায় ২০ মিনিট অপেক্ষা করে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সাড়া না পেয়ে উপাচার্য বিরোধী শিক্ষক ও কর্মকর্তা সমিতি বাংলো গেইট ছেড়ে চলে যায়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. মাহবুবুল আরেফীন বলেন, আমরা উপাচার্যের সাথে সাধারণ কিছু কথা বলতে গিয়েছিলাম। সেখানে উপাচার্যের সাথে কথা বলার এক পর্যায়ে হঠাৎ করে বহিরাগত অছাত্ররা কার্যালয়ে ডুকে পরে ও আমাদের চরমভাবে হেনস্তা করে। আমাদের একটিই দাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে গঠিত তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কোন নিয়োগ বোর্ড চলবে না। এছাড়া অছাত্রদের কর্তৃক শিক্ষকদের হেনস্তার বিচার করতে হবে।

শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন বলেন, 'যারা আজকের এই কাল্পনিক ঘটনা ঘটিয়েছে আমি মনে করি তাদের বিরুদ্ধে তদন্ত হওয়া উচিৎ যারা জাতীয় প্রোগ্রামে তছনছ, কম্পিউটার এইসব বিষয় নিয়ে আপনারা তোহ জানেন , এসবের তদন্ত হওয়া উচিৎ। ভুতের মুখে রাম রাম।'

এ বিষয়ে উপাচার্য অধ্যাপক ড. শেখ আবদুস সালাম বলেন, 'আমি বিন্দুমাত্র কোন দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত নেই। আমার বিরুদ্ধে এসব উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে হয়রানি করা হচ্ছে। এছাড়া শিক্ষকদের সাথে শিক্ষার্থীরা যা করেছে, তা অনাকাঙ্ক্ষিত।  আমি ওইসব শিক্ষার্থীদের চিনিও না। দুর্নীতির সঙ্গে আমার কোন সংশ্লিষ্টতা নেই। ক্লিয়ার বলছি আমি কোন দুর্নীতি করিনি। নিয়োগ বোর্ড যা হয়েছে সব দুর্নীতিমুক্ত।'

আরও খবর

সন্দ্বীপ থানার ওসি কবীর পিপিএম পদকে ভূষিত

মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪




ফুলবাড়ীতে আওয়ামীলীগের শান্তি ও গণতন্ত্র সমাবেশ মিছিল

প্রকাশিত:বুধবার ৩১ জানুয়ারী ২০২৪ | হালনাগাদ:মঙ্গলবার ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ১২৭জন দেখেছেন

Image

ফুলবাড়ী, দিনাজপুর প্রতিনিধি:-দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে উপজেলা আওয়ামীলীগের শান্তি ও গণতন্ত্র সমাবেশ, জাতীয় পতাকা ও দলীয় পতাকা মিছিল অনুষ্টিত হয়। গত মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৬টায় ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয় থেকে শান্তি ও গণতন্ত্র সমাবেশ মিছিলটি বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে দলীয় কার্যালয়ে গিয়ে শেষ হয়। শান্তি ও গণতন্ত্র সমাবেশ মিছিলে নেতৃত্ব দেন ফুলবাড়ী উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোঃ এনামুল

হক। এ সময় শান্তি ও গণতন্ত্র সমাবেশ মিছিলে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি অধ্যক্ষ মিজানুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মুশফিকুর রহমান বাবুল, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান আতাউর রহমান মিল্টন, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ শাহ মোঃ আব্দুল কুদ্দস, পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি ও প্যানেল মেয়র মামুনুর রশিদ চৌধুরী এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নিরু সামসুন্নাহার সহ প্রায় ৫শতাধিক অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।


আরও খবর