Logo
আজঃ Sunday ২৪ October ২০২১
শিরোনাম
স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে গ্রিসে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ‘বাংলাদেশ উৎসব ২০২১

১৭ অক্টোবর গ্রিসে অনুষ্ঠিত হবে ‘বাংলাদেশ উৎসব’

প্রকাশিত:Sunday ১০ October ২০২১ | হালনাগাদ:Sunday ২৪ October ২০২১ | ৫৭জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image



ডেস্ক এডিটর :

মুজিববর্ষ ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে গ্রিসে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ‘বাংলাদেশ উৎসব ২০২১’।মুজিববর্ষের কূটনীতি, প্রগতি ও সম্প্রীতি এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে এথেন্সে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসের আয়োজনে আগামী ১৭ অক্টোবর আয়োজিত হবে এই জমকালো উৎসব।

 

দূতাবাস কার্যালয় প্রাঙ্গণে ওইদিন দুপুর ২টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত চলবে এ উৎসব। দূতাবাস সূত্রে জানা যায়, এরই মধ্যে নানা ধরনের অনুষ্ঠানমালা চূড়ান্ত করা হয়েছে। এছাড়া বাংলাদেশি খাবার, পণ্য প্রদর্শনী ও মেলার আয়োজন রয়েছে।

 

শেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হবে। আয়োজনে গ্রিসে বসবাসকারী বাংলাদেশি শিল্পীরা সংগীত পরিবেশন করবেন। এরই মধ্যে যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে দূতাবাস।

 

উৎসবকে আনন্দমুখর করে তুলতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সবান্ধব/সপরিবারে উপস্থিত হওয়ার জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছে বাংলাদেশ দূতাবাস, এথেন্স, গ্রিস।

 

খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



২০২২-২৩ অর্থবছরেই জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে এশিয়ার বেশিরভাগ দেশকে আবারও পেছনে ফেলবে বাংলাদেশ

দ. এশিয়ায় অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে সবচেয়ে ধারাবাহিক বাংলাদেশ

প্রকাশিত:Sunday ১০ October ২০২১ | হালনাগাদ:Sunday ২৪ October ২০২১ | ৬৪জন দেখেছেন
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

Image



আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

 

করোনাভাইরাস মহামারির ভয়াল থাবা থেকে ধীরে ধীরে বেরিয়ে আসছে দক্ষিণ এশিয়া। স্থবিরতা কাটিয়ে ফের গতিশীল হচ্ছে এ অঞ্চলের অর্থনীতি। কিন্তু বছরখানেক আগে অর্থনীতিতে যে আঘাত দিয়েছিল করোনা, তার ক্ষত পুরোপুরি মেটানো বেশ কঠিন। অথচ এমন কঠিন সময়েও দারুণ কৃতিত্ব দেখিয়ে অর্থনীতিতে ইতিবাচক প্রবৃদ্ধি ধরে রেখেছে বাংলাদেশ। বলা বাহুল্য, ২০১৯-২০ অর্থবছরে দক্ষিণ এশিয়ায় একমাত্র ইতিবাচক প্রবৃদ্ধি হওয়া দেশের নাম বাংলাদেশ। উন্নয়নের সেই ধারা অব্যাহত থাকতে পারে আগামী বছরগুলোতেও। আর তা হলে ২০২২-২৩ অর্থবছরেই জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে ভারতসহ দক্ষিণ এশিয়ার বেশিরভাগ দেশকে আবারও পেছনে ফেলবে বাংলাদেশ।

 

গত বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) বিশ্বব্যাংক প্রকাশিত দক্ষিণ এশীয় অর্থনীতি বিষয়ক সবশেষ প্রতিবেদনে (সাউথ এশিয়া ইকোনমিক ফোকাস) এসব তথ্য উঠে এসেছে।

 

বিশ্বব্যাংক প্রকাশিত হিসাবে দেখা যায়, ২০১৯-২০ অর্থবছরে দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে শুধু বাংলাদেশের (জুলাই-জুন) জিডিপি প্রবৃদ্ধি হয়েছে ইতিবাচক ধারায় ৩ দশমিক ৫ শতাংশ। একই সময় এ অঞ্চলের বাকি সব দেশের প্রবৃদ্ধিই ছিল নেতিবাচক। ওই অর্থবছরে ভারতের (এপ্রিল-মার্চ) প্রবৃদ্ধি মাইনাস ৭ দশমিক ৩ শতাংশ, মালদ্বীপের (জানুয়ারি-ডিসেম্বর) মাইনাস ৩৩ দশমিক ৬ শতাংশ, শ্রীলঙ্কার (জানুয়ারি-ডিসেম্বর) মাইনাস ৩ দশমিক ৬ শতাংশ, ভুটানের (জুলাই-জুন) মাইনাস ০ দশমিক ৬ শতাংশ, নেপালের (জুলাই-জুন) মাইনাস ২ দশমিক ১ শতাংশ ও পাকিস্তানের (জুলাই-জুন) অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ছিল মাইনাস ০ দশমিক ৫ শতাংশ।

 

এরপর ধীরে ধীরে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসায় ফের ইতিবাচক ধারায় ফেরে দক্ষিণ এশিয়ার অর্থনীতি। ২০২০-২১ অর্থবছরে এ অঞ্চলের দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের জিডিপি প্রবৃদ্ধি হয়েছে ৫ শতাংশ, ভারতের ৮ দশমিক ৩ শতাংশ, নেপালের ১ দশমিক ৮ শতাংশ, পাকিস্তানের ৩ দশমিক ৫ শতাংশ, মালদ্বীপের ২২ দশমিক ৩ শতাংশ ও শ্রীলঙ্কার ৩ দশমিক ৩ শতাংশ। এই বছরটিতে কেবল ভুটানই নেতিবাচক ধারা থেকে বের হতে পারেনি। তাদের প্রবৃদ্ধি ছিল মাইনাস ১ দশমিক ২ শতাংশ।

 

বিশ্বব্যাংকের পূর্বাভাস অনুসারে, ২০২১-২২ অর্থবছরেও বাংলাদেশ আশাব্যঞ্জক গতিতে প্রবৃদ্ধি অর্জন করবে। এসময় বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি হতে পারে ৬ দশমিক ৪ শতাংশ। এছাড়া নেপালের প্রবৃদ্ধি বেড়ে ৩ দশমিক ৯ শতাংশ ও ভুটানের প্রবৃদ্ধি বেড়ে হতে পারে ৩ দশমিক ৬ শতাংশ। ওই বছর এ অঞ্চলের বাকি দেশগুলোর প্রবৃদ্ধি কমতে পারে। সেসময় ভারতের প্রবৃদ্ধি কমে ৭ দশমিক ৫ শতাংশ, পাকিস্তানের ৩ দশমিক ৪ শতাংশ, মালদ্বীপের ১১ শতাংশ ও শ্রীলঙ্কার প্রবৃদ্ধি কমে দাঁড়াতে পারে মাত্র ২ দশমিক ১ শতাংশে।

 

ভারতের অবনতি অব্যাহত থাকবে এর পরের বছরও। অর্থাৎ ২০২২-২৩ অর্থবছরে দেশটির প্রবৃদ্ধি আরও কমে হবে ৬ দশমিক ৫ শতাংশ। অন্য দেশগুলোর প্রবৃদ্ধি কিছুটা বাড়বে। ওই বছর উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রেখে জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে ভারতকে আবারও ছাড়িয়ে যাবে বাংলাদেশ। ২০২২-২৩ অর্থবছরে বাংলাদেশের প্রবৃদ্ধি বেড়ে দাঁড়াবে ৬ দশমিক ৯ শতাংশ। সে সময় দক্ষিণ এশিয়ার মধ্যে জিডিপি প্রবৃদ্ধিতে কেবল মালদ্বীপের চেয়েই পিছিয়ে থাকবে বাংলাদেশ।

 

সুতরাং বিশ্বব্যাংকের পূর্বাভাস বলছে, আগামী বছরগুলোতে দক্ষিণ এশিয়ার বাকি দেশগুলো অর্থনৈতিক পুনরুদ্ধারে উত্থান-পতন দেখলেও সুষমগতিতেই এগিয়ে যাবে বাংলাদেশ।

খবর প্রতিদিন /সি.বা 


আরও খবর



শিশু সন্তানকে নিয়ে ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যা করেছে এক নারী

গাজীপুরে ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যা

প্রকাশিত:Wednesday ১৩ October ২০২১ | হালনাগাদ:Saturday ২৩ October ২০২১ | ২১৪জন দেখেছেন
Image



মাসুদ পারভেজ, গাজীপুর :

 

গাজীপুরে শিশু সন্তানকে নিয়ে ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়ে আত্মহত্যা করেছে এক নারী। দুই বছর বয়সী শিশুটিকে আহত অবস্থায় এলাকাবাসী উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেছে। শিশুটির হাত ও মাথা থেঁতলে গেছে।

 

স্থানীয়রা জানায়, আজ বুধবার সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে, শ্রীপুর পৌরসভা কাটাপুল এলাকায় ঢাকা থেকে ময়মনসিংহগামী বলাকা এক্সপ্রেস ট্রেনের নিচে নিজের মেয়েকে নিয়ে ঝাঁপ দেয় ওই নারী। এতে ঘটনাস্থলেই মা মারা যায়। আহত অবস্থায় মেয়েটিকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। ওই নারীর পরিচয় জানা যায়নি। 


 

শ্রীপুর রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার হারুনুর রশিদ জানান, খবর পেয়ে রেলওয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

 

খবর প্রতিদিন / সি.বা 


আরও খবর



সুস্থ ও স্বচ্ছ চিন্তা যে কোনো ভালো কাজের ভিত্তি

চিন্তা সমস্ত কর্মকাণ্ডের প্রাণ : মামুনুর হাসান টিপু

প্রকাশিত:Sunday ১০ October ২০২১ | হালনাগাদ:Sunday ২৪ October ২০২১ | ১৭৫জন দেখেছেন
Image


 

সম্পাদকীয় :

চিন্তা হচ্ছে মানবীয় সমস্ত কর্মকাণ্ডের প্রাণ। সুস্থ ও স্বচ্ছ চিন্তা যে কোনো ভালো কাজের ভিত্তি। এ চিন্তার জগতে আমাদের দৈন্য এখন স্পষ্ট। সমাজের সিংহভাগ মানুষের চিন্তার সময় নেই। এরা বেকারত্ব, হতাশা, প্রতিহিংসা, অসুস্থ প্রতিযোগিতায় আকণ্ঠ নিমজ্জিত। যে স্বল্পসংখ্যক মানুষের সময় আছে তাদের চিন্তা বিভ্রান্ত হচ্ছে চারপাশের অনাকাঙ্ক্ষিত তর্ক-বিতর্কে; অস্পষ্ট ধ্যান-ধারণায়। এ পরিস্থিতিতে সমাজের সামগ্রিক চিন্তাজগতে ইতিবাচক পরিবর্তনের প্রয়াস চালানো অপরিহার্য।

 

আমরা দায়সারা গোছের, পেশাগত চিন্তার, গতানুগতিক সংশয়-বিতর্কের, শাখাগত সমস্যার ফিরিস্তি বয়ানের এতসব লেখা আপনাদের সামনে হাজির করতে চাই না। প্রতিটি সংখ্যায় অল্প ক’টি লেখা যথার্থ পর্যালোচনা ও সমালোচনার দাবি নিয়ে আপনাদের সামনে হাজির করতে চাই। এবং আমাদের পোর্টালটিতে বাছাই করা লেখা, চিন্তা, মতামত ও বিশ্লেষণ তুলে ধরতে চাই। আমরা বিশ্বাস করি, প্রকৃত পরিবর্তনের জন্য, সমাজকে নাড়া দেয়ার জন্য, চিন্তার খোরাক দেয়ার জন্য ভালো মানের অল্প লেখাই যথেষ্ট। তবে যদি আমরা মানসম্পন্ন চিন্তাশীল ব্যাপকসংখ্যক পাঠক-লেখক তৈরি করতে পারি তাহলে তাদের মতামত প্রকাশে কলেবর বৃদ্ধি করার ইচ্ছে আছে।

 

দেশ-বিদেশের প্রতি মুহূর্তের ‘ঘটনার’ সংবাদ এখন প্রায় প্রত্যেকের হাতের নাগালেই। চাইলেই পাচ্ছেন, না চাইলেও। কিন্তু প্রশ্ন জাগে, এসব সংবাদ আমাদের কতটুকু সচেতন বা আত্মসচেতন করছে? তর্ক তোলা যায় বিস্তর। কিন্তু না, তর্ক করার বা শোনার ইচ্ছে ও সময় কোনোটাই আমাদের নেই। কারণ আজকাল তর্কের অভাব নেই। সোশ্যাল মিডিয়া, প্রিন্ট-ইলেকট্রনিক মিডিয়া, চায়ের দোকানে, হাটে-ঘাটে-মাঠে তর্ক-বিতর্ক বিস্তর। তাহলে আমরা যা পেশ করছি- এগুলো কী? কেবলই তর্ক-বিতর্ক নয়? প্রশ্নটা আজকের মতো থাকুক। সব কথা বলতে হয় না। কিছু বুঝে নিতে হয়, কিছু নিজেরা চিন্তা করে বের করে নিতে হয়। নইলে ব্রেন ডেম হয়ে যাবে।

 

️লেখক:মামুনুর হাসান টিপু, সাংবাদিক ও সাংস্কৃতিক ব্যাক্তিত্ব

 

 


আরও খবর



কলেজছাত্রকে তুলে এনে বিয়ে, তরুণীর বিরুদ্ধে মামলা

২৩ বছরের এক ছেলেকে অপহরন করে নিয়ে ২৫ বছরের এক মেয়ের জোরপূর্বক বিয়ে

প্রকাশিত:Monday ১৮ October ২০২১ | হালনাগাদ:Sunday ২৪ October ২০২১ | ৪৩০জন দেখেছেন
ডেস্ক এডিটর

Image


২৩ বছরের এক ছেলেকে অপহরন করে নিয়ে ২৫ বছরের এক মেয়ের জোরপূর্বক বিয়ে ! পটুয়াখালী সরকারি কলেজের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের ছাত্র নাজমুল আকনকে অপহরণ করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে জোর করে বিয়ে করার অভিযোগ উঠেছে এক তরুণী । এ ঘটনায় নাজমুল বাদী হয়ে পটুয়াখালী সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা করেছেন।

 

মামলায় ইশরাত জাহান পাখি  নামের ওই তরুণীসহ অজ্ঞাতপরিচয় ছয় থেকে সাতজনকে আসামি করা হয়েছে। মামলাটি গ্রহণ করে পটুয়াখালী সদর থানাকে নথিভুক্ত করার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

 

এদিকে নাজমুলকে জোর করে বিয়ে করার একটি ভিডিও চিত্র আদালতে উপস্থাপন করা হয়েছে। মামলা দায়েরের পর  ১৫ অক্টোবর দুপুর থেকে ওই নারী নিজেকে নাজমুলের স্ত্রী দাবি করে নাজমুলের বাবার বাড়ি মির্জাগঞ্জে অবস্থান করছেন। এ ঘটনায় মির্জাগঞ্জ এলাকায় চাঞ্চল্যর সৃষ্টি হয়েছে।

 

নাজমুল মির্জাগঞ্জ উপজেলার মির্জাগঞ্জ ইউনিয়নের জালাল আকনের ছেলে। অভিযুক্ত ইশরাত জাহান পাখি একই উপজেলার গাজিপুর সাকিনের মো. আউয়ালের মেয়ে।

আসামি ইশরাত জাহান পাখি দীর্ঘদিন ধরে নাজমুলকে মোবাইল ফোনে এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে প্রেমের প্রস্তাবসহ বিয়ের প্রলোভন দেখান। কিন্তু নাজমুল রাজি না হওয়ায় গত ২৭ সেপ্টেম্বর পটুয়াখালী লঞ্চঘাট এলাকা থেকে নাজমুলকে অপহরণ করা হয়। পরদিন অজ্ঞাত একটি স্থানে নিয়ে সাত থেকে আটজন ব্যক্তি তাকে বলপূর্বক তাকে একটি নীল কাগজে সই করতে বাধ্য করেন। পরে তাকে ওইদিনই শহরে ছেড়ে দেওয়া হয়। ধারণা করা হচ্ছে, এ দিয়ে তারা একটি কাবিননামা তৈরির পায়তারা করছেন।

 

এদিকে নাজমুলকে অপহরণ এবং পরে জোর করে বিয়ে করার একটি ভিডিও ফুটেজ আদালতে উপস্থাপন করা হয়েছে।

৪৮ সেকেন্ডের ওই ফুটেজে দেখা যায়, একটি কক্ষে একজন তরুণীর বাম পাশে নাজমুল বসে আছেন। পেছন থেকে নাজমুলের মাথার ধরে রেখেছেন এক ব্যক্তি। সেখানে আরও কয়েকজনের উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়। ভিডিওতে ওই তরুণীতে নীল কাগজে সই করতে দেখা গেছে। সই করার পর তরুণীকে মিষ্টি খাইয়ে দেন একজন। পরে নাজমুলের মুখে মিষ্টি দিলে তিনি ফেলে দেন।

 

খবর প্রতিদিন/ সি.বা


আরও খবর



হলে ফিরছেন দর্শক, প্রশংসা পাচ্ছে ‘পদ্মাপুরাণ’

‘পদ্মাপুরাণ’ দেখতে হলে ফিরছেন দর্শক

প্রকাশিত:Sunday ১০ October ২০২১ | হালনাগাদ:Sunday ২৪ October ২০২১ | ১৭৬জন দেখেছেন
বিনোদন ডেস্ক

Image


বিনোদন ডেস্ক :

 

মুক্তির আগেই আলোচনায় ছিল তরুণ নির্মাতা রাশিদ পলাশের প্রথম চলচ্চিত্র ‘পদ্মাপুরাণ’। নানান চমকের পর এবার ছবিটি মুক্তি পেয়েছে। গেল শুক্রবার (৮ এপ্রিল) দেশের বড় কিছু প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেয়েছে এটি। মুক্তির দুই দিনেই বেশ ভালো সাড়া মিলেছে দর্শকের।

 

বিশেষ করে সিনেপ্লেক্সগুলোতে মুক্তি পাওয়ায় শহরের দর্শক ছবিটি দেখতে আসছেন আশা জাগিয়ে। পরিচালকের ভাষ্যে, ‘করোনাকালীন অনেক মন্দ সময় গেছে আমাদের। সিনেমা নিয়েও আমরা একটা চ্যালেঞ্জের মুখে ছিলাম। এখনো করোনা পুরোপুরি বিদায় নেয়নি। তাই একটা আতঙ্ক তো ছিলোই সিনেমাটির মুক্তি নিয়ে।

 

তবে আশার কথা হলো বেশ ভালো রেসপন্স পাচ্ছি। প্রথম দিন কয়েকটি হলে শো ফুলহাউজ গেছে। আমার প্রথম সিনেমা এটি, তাই দর্শকের এই সাড়া আমার জন্য দারুণ অনুভূতির।

তিনি দাবি করেন, দর্শক সিনেমাটি দেখে প্রশংসা করছেন। ছবির গল্প, শিল্পীদের অভিনয় নিয়ে আলোচনা করছেন অনেকে। সোশ্যাল মিডিয়াতেও দর্শক ছবিটি দেখার তৃপ্তির কথা লিখছেন। অনেকে কিছু সমালোচনাও করছেন। সেগুলোকে নির্মাতা ভুল হিসেবে নিয়ে পরবর্তীতে তা শোধরে নেয়ার চেষ্টা হিসেবেই দেখছেন।

 

‘পদ্মাপুরাণ’ ছবিতে বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন সাদিয়া মাহি, প্রসূন আজাদ, শম্পা রেজা, জয়রাজ, সুমিত সেনগুপ্ত, কায়েস চৌধুরী, সূচনা শিকদার, রেশমী, হেদায়েত নান্নু, আশরাফুল আশিষ, সাদিয়া তানজিন প্রমুখ। এদের মধ্যে আলাদা করে আলোচনায় এসেছে সাদিয়া মাহি ও সুমিতের অভিনয়।

 

ছবির গল্প ভাবনা জানিয়ে পরিচালক বলেন, ‘পদ্মার পাড়ের প্রকৃতির সঙ্গে মানুষের লড়াইয়ে গল্প তুলে ধরার চেষ্টা করেছি এ সিনেমায়। আমি বিশ্বাস করি অনেক ভাবনার দ্বার খুলে দিতে পারে এই সিনেমা।সেই জায়গাটাই পর্দায় দেখানোর চেষ্টা করেছি। আমি কোনো মতামত দেয়ার পক্ষে না। আমি একটা ওপেন এন্ডিং রাখতে চেয়েছি দর্শক যে যার মতো করে ভেবে নেবে।

 

 ‘পদ্মাপুরাণ’- দেখা যাচ্ছে

 

স্টার সিনেপ্লেক্স (বসুন্ধরা সিটি শপিং কমপ্লেক্স ও সনি স্কয়ার মিরপু্র), শ্যামলী সিনেমা, যমুনা ব্লকবাস্টার (যমুনা ফিউচার পার্ক), সিনেস্কোপ (নারায়ণগঞ্জ), সুগন্ধা সিনেমা (চট্টগ্রাম)।

 

খবর প্রতিদিন / সি.বা


আরও খবর