English Version

ভুতুড়ে গ্রামটি হারিয়ে যাবে?

প্রকাশিতঃ নভেম্বর ১৭, ২০১৭, ১০:০৩ পূর্বাহ্ণ


পলেস্তারা খসে পড়া বাড়িটির সামনে বিরস মুখে দাঁড়িয়ে ৭৭ বছরের ইয়াকুব ওদেহ। এখানেই শৈশব কেটেছিল তাঁর। পড়ে আছে সেই পাথরের চুলা, যাতে আগুন জ্বেলে রুটি সেঁকতেন মা। এখানে এসে মাটির ঘ্রাণ নিতে পেরে ওদেহ মোহিত। একই সঙ্গে তিনি ব্যথিত যে এখানে আর থাকা হবে না তাঁর।

কিন্তু হারিয়ে গেছে সেই সব সোনালি দিন। শুধু বাড়ি নয়, পুরো গ্রামটিই এখন ইয়াকুবের কাছে স্মৃতি। গ্রাম ছেড়ে পরিবার নিয়ে পালিয়ে যেতে হয়েছে ১৯৪৮ সালের যুদ্ধে। তখন কতই বা বয়স ইয়াকুবের। এই—ছয়-সাত।

ইয়াকুব একা তো নন। ইসরায়েলের রাজধানী জেরুজালেমের পাহাড়ের ধারের লিফতা গ্রাম ছেড়ে সে সময় প্রায় সাড়ে সাত লাখ ফিলিস্তিনিকে বিতাড়িত করা হয়। গ্রামটি এখন জনশূন্যই বলা চলে। দাঁড়িয়ে আছে কেবল পাথরের বাড়িগুলো। আছে জলপাই, কাঠবাদামের গাছ। বাড়ির বিশাল ফটকগুলোও অবিকল। কিন্তু সেগুলো দিয়ে কেউ আর ভেতরে ঢোকে না। গ্রামে নেই মানুষ। যেন ভুতুড়ে গ্রাম।

প্রকাশকঃ
মোঃ মামুনুর হাসান (টিপু)

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক:
খন্দকার আমিনুর রহমান

৫০/এফ, ইনার সার্কুলার, (ভি আই পি) রোড- নয়া পল্টন ,ঢাকা- ১০০০।
ফোন: ০২-৯৩৩১৩৯৪, ৯৩৩১৩৯৫, নিউজ রুমঃ ০১৫৩৫৭৭৩৩১৪
ই-মেইল: khoborprotidin24.com@gmail.com, khoborprotidin24news@gmail.com

.::Developed by::.
Great IT