English Version

পর্তুগালের বিশ্বকাপ দলে জায়গা মেলেনি ইউরোর দলের ১০ ফুটবলারের

প্রকাশিতঃ মে ১৮, ২০১৮, ৫:৩৫ অপরাহ্ণ


ফুটবলে পর্তুগালের সেরা সাফল্য হয়ে আছে ২০১৬ ইউরো জয়। নিজেদের ইতিহাসের সেরা সাফল্য এনে দেওয়া সে স্কোয়াডের সবাইকে মাথায় করে রাখে দেশটি। কিন্তু দুই বছর পর বিশ্বকাপে সে দলটা অনেকটাই গুরুত্ব হারিয়ে ফেলেছে। ইউরোর দলে থাকা ২৩ জনের মধ্যে ১০ জনই এবার রাশিয়ার প্লেনে উঠতে পারছেন না। পর্তুগালের ইতিহাসের সবচেয়ে উজ্জ্বল সাফল্য এনে দেওয়া এডের এবার আর কোনো চমক দেখানোর সুযোগ পাচ্ছেন না।

২০১৬ সালের ওই ইউরো থেকে পর্তুগালের সেরা আবিষ্কার ছিল রেনাতো সানচেজ ও আন্দ্রে গোমেজ। গোটা টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স দেখানো এ দুই তরুণ ইউরোর পরেই যোগ দিয়েছিলেন দুই পরাশক্তি বায়ার্ন মিউনিখ ও বার্সেলোনায়। কিন্তু এর পরপরই ক্যারিয়ারে খেই হারিয়েছেন দুজন। বিশ্বকাপের দলেও ডাক পাননি দুজনের কেউ। এডেরও গত দুই বছরে দলে জায়গা ধরে রাখার মতো কিছুই করতে পারেননি।

এ তিনজনের বাইরে বাদ পড়াদের মধ্যে আছে আরও দুটি বড় নাম। এলিসু ও সাবেক ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড উইঙ্গার নানি। প্রতিশ্রুতিশীল মিডফিল্ডার রুবেন নেভেস ইংলিশ চ্যাম্পিয়নশিপে দারুণ মৌসুম কাটালেও জায়গা করতে পারেননি এ দলে। স্পেন, মরক্কো ও ইরানের গ্রুপ সঙ্গী পর্তুগালের নেতৃত্বে অবধারিতভাবেই রোনালদোর কাঁধে।

দল ঘোষণার সময় কাজটা যে কঠিন ছিল, সেটা স্বীকার করেছেন সান্তোস, ২৩ জনকে বেছে নেওয়া খুব কঠিন ছিল। পেশাদার হিসেবে, আমাকে সিদ্ধান্ত নিতে হয়েছে এবং আমি জানি সবাই সন্তুষ্ট হয়নি। কিন্তু ব্যক্তিগতভাবে ইউরোতে যারা খেলেছিল, তাদের কয়েকজনকে দলে নিতে না পারা আমাকে কষ্ট দিচ্ছে। পাশাপাশি বিশ্বকাপ বাছাইয়ে অনেকেই খেলেছে, যাদের আমি বিশ্বকাপ দলে নিতে পারিনি। সেটাও কষ্টের। এডের, নানি এবং অন্যরা যারা পর্তুগিজ ফুটবল ইতিহাসে চমৎকার একটি অধ্যায় যোগ করেছে, তাদের বাদ দেওয়া কঠিন। কিন্তু আমি এমন ফুটবলারদেরই বেছে নিয়েছি, যাদের দিয়ে আমি আমার ধাঁধাটা মেলাতে পারব।’

দলে ডাক পাওয়া খেলোয়াড়দের মধ্যে চমক বলতে একজনই। রাশিয়ান লিগে খেলা ৩২ বছর বয়সী মিডফিল্ডার ম্যানুয়েল ফার্নান্দেজ। সান্তোসের দাবি, এটাই তাঁর সেরা দল, ‘আমি বলতে পারব না ইউরোতে খেলা দলের চেয়ে এটা শক্তিশালী কি না। তবে ওই দলের মতোই এ দলের ওপরও আমার পূর্ণ আস্থা আছে।’

পর্তুগালের ২৩ জনের স্কোয়াড
গোলরক্ষক : অ্যান্থনি লোপেজ, বেতো, রুই প্যাট্রিসিও
ডিফেন্ডার : ব্রুনো আলভেজ, সেড্রিক সোয়ারেস, জোসে ফন্তে, মারিও রুই, পেপে, রাফায়েল গুরেইরো, রিকার্ডো পেরেইরা, রুবেন ডিয়াজ
মিডফিল্ডার : আদ্রিয়েন সিলভা, ব্রুনো ফার্নান্দেজ, জোয়াও মারিও, জোয়াও মুতিনহো, ম্যানুয়েল ফার্নান্দেজ, উইলিয়াম কারভালহো
ফরোয়ার্ড : আন্দ্রে সিলভা, বার্নান্ডো সিলভা, ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো, গেলসন মার্টিন্স, গন্সালো গেদেস, রিকার্ডো কারেসমা

প্রকাশকঃ
মোঃ মামুনুর হাসান (টিপু)

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক:
খন্দকার আমিনুর রহমান

৫০/এফ, ইনার সার্কুলার, (ভি আই পি) রোড- নয়া পল্টন ,ঢাকা- ১০০০।
ফোন: ০২-৯৩৩১৩৯৪, ৯৩৩১৩৯৫, নিউজ রুমঃ ০১৫৩৫৭৭৩৩১৪
ই-মেইল: khoborprotidin24.com@gmail.com, khoborprotidin24news@gmail.com

.::Developed by::.
Great IT