English Version

গ্রিন ইউনিভার্সিটিতে গ্রাজুয়েশন শেষে চাকরির সুবিধা

প্রকাশিতঃ জানুয়ারি ১১, ২০১৮, ৪:৩৩ অপরাহ্ণ


চলতি শিক্ষাবর্ষে (২০১৭-১৮) ৫০ শতাংশ ছাড় দিয়ে ‘অ্যাডমিশন ফেয়ার’ শুরু করেছে বেসরকারি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গ্রিন ইউনিভার্সিটি অব বাংলাদেশ। একই সঙ্গে গ্রাজুয়েশন শেষে চাকরির দেয়ার অফার দিচ্ছে বেসরকারি এ বিশ্ববিদ্যালয়টি। ‘অ্যাডমিশন ফেয়ারে’ ভর্তি কার্যক্রম ১১ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) থেকে চলবে আগামী ১৬ জানুয়ারি (মঙ্গলবার) পর্যন্ত।

অ্যাডমিশন ফেয়ারে ভর্তি ফির ৫০ শতাংশ ছাড় ছাড়াও বিভিন্ন প্রোগ্রামে মুক্তিযোদ্ধা, ছাত্রী, ভাই-বোন, স্বামী-স্ত্রী, ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী ও খেলোয়াড়দের জন্য সর্বোচ্চ ১০০ শতাংশ পর্যন্ত স্কলারশিপ দেয়া হচ্ছে। এছাড়া এসএসসি ও এইচএসসির ফলাফলের ওপর ভিত্তি করেও দেয়া হচ্ছে বিশেষ ছাড় এবং কর্পোরেট ও গ্রুপভিত্তিক ভর্তিতে রয়েছে অতিরিক্ত ওয়েভার।

বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রতিযোগিতামূলক চাকরির বাজারে শিক্ষার্থীদের টিকিয়ে রাখতে ভিন্নধারার এক প্রতিষ্ঠান গ্রিন ইউনিভার্সিটি। প্রতিবছর উচ্চশিক্ষা শেষে যত সংখ্যক শিক্ষার্থী চাকরির প্রতিযোগিতায় নামে সে তুলনায় দেশে শূন্যপদের সংখ্যা কম। এছাড়া ব্যক্তিগত দুর্বলতা ও সামাজিক পারিপার্শ্বিকতা কারণে অনেক ক্ষেত্রেই কঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছানো সম্ভব হয় না। মূলত এসব সমস্যা দূর করতেই ভিন্নধারার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে গ্রিন ইউনিভার্সিটি।

জানানো হয়, বিশ্ববিদ্যালয়টিতে স্প্রিং সেমিস্টারে ভর্তিচ্ছুদের সর্বোচ্চ ১০০ শতাংশ স্কলারশীপের পাশাপাশি গ্রাজুয়েশন শেষে ইউএস-বাংলা গ্রুপের ১০টি প্রতিষ্ঠানে (ইউএস-বাংলা এয়ারলাইনস, অ্যাসেট, হাইটেক, মিডিয়া, ইউএস-বাংলা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, ইউএসবি এক্সপ্রেস, ফুড, লেদার) অগ্রাধিকার ভিত্তিতে চাকরির নিশ্চিয়তা দেয়া হচ্ছে। সেই সঙ্গে ক্যারিয়ার ডেভেলপমেন্ট সেন্টারের মাধ্যমে স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠানে ইন্টার্নশীপের সুযোগ-সুবিধা রয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. গোলাম সামদানী ফকির জানান, একবিংশ শতাব্দীতে ‘সমৃদ্ধ ও উন্নত আগামী’ গড়তে শুধু শিক্ষাগ্রহণই জরুরি নয়, বরং শিক্ষার মানোন্নয়ন ও আধুনিকায়নও গুরুত্বপূর্ণ। গ্রিন ইউনিভার্সিটি সেটাই করছে।

ইউএস-বাংলার বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে এ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের অগ্রাধিকার ভিত্তিতে চাকরি পাওয়ার বিষয়টিকে ‘বড় অর্জন’ হিসেবে উল্লেখ করেন তিনি।

গ্রিন ইউনিভার্সিটির যাত্রা শুরু হয় ২০০৩ সালে। বর্তমানে মিরপুর শেওড়াপাড়ায় মোট তিনটি ভবনে এ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষা কার্যক্রম চলছে। যা শিগগিরই পূর্বাচল আমেরিকান সিটিস্থ স্থায়ী ক্যাম্পাসে চলে যাবে বলেও জানানো হয়।

প্রকাশকঃ
মোঃ মামুনুর হাসান (টিপু)

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক:
খন্দকার আমিনুর রহমান

৫০/এফ, ইনার সার্কুলার, (ভি আই পি) রোড- নয়া পল্টন ,ঢাকা- ১০০০।
ফোন: ০২-৯৩৩১৩৯৪, ৯৩৩১৩৯৫, নিউজ রুমঃ ০১৫৩৫৭৭৩৩১৪
ই-মেইল: khoborprotidin24.com@gmail.com, khoborprotidin24news@gmail.com

.::Developed by::.
Great IT